নন্দকুমার মামলাব্রিটিশ ভারতের প্রথম বিচারিক হত্যাবিচারিক প্রক্রিয়ার অপব্যবহার করে মিথ্যে মামলা বা মিথ্যে সাক্ষ্যপ্রমাণের ভিত্তিতে কাউকে মৃতু্যদ- দেয়া হলে বিষয়টিকে 'বিচারিক হত্যাকা-' বলা হয়ে থাকে। ব্রিটিশ ভারতে সর্বপ্রথম বিচারিক হত্যাকা-ের সঙ্গে জড়িয়ে আছে দুটি নাম- ওয়ারেন হেস্টিংস এবং মহারাজ নন্দকুমার। জালিয়াতির মামলায় মহারাজ নন্দকুমারের মৃতু্যদ- কীভাবে হয়েছিলজাহিদ হোসেন আজ আপনাদের শুনাবো ব্রিটিশ ভারতে প্রথম ফাঁসির মামলা, প্রথম বিচারিক হত্যা (ঔঁফরপরধষ করষষরহম)। যে মামলাটি ভারত বর্ষ তো বটেই ইংল্যান্ডের পার্লামেন্ট পর্যন্ত্মও গড়িয়েছিল। ১৭৬৩ সালে ওয়ারেন হেস্টিংস ছিলেন বর্ধমান, নদীয়া ও হুগলি জেলার কালেক্টর। বিভিন্ন জমিদারদের কাছ থেকে জোর করে টাকা আদায়সহ মীরজাফরের স্ত্রীর কাছ থেকে ৩ লাখ ৫৪ হাজার টাকা ঘুষ গ্রহণের বিষয় প্রকাশ পাওয়ায় এবং ঘুষখোর, স্বৈরাচারী, নিষ্ঠুর ও অসাধু হেস্টিংসের বিরম্নদ্ধে নানা... বিস্তারিত
মাকে লালন-পালনের খরচ দিতে ছেলেকে নির্দেশআইন ও বিচার ডেস্ক লালন-পালনে মায়ের যে খরচা হয়েছে, সেটা সন্ত্মানকে পরিশোধের আদেশ দিয়েছে তাইওয়ানের এক আদালত। আদালতে আট বছর মামলা লড়ে এ অধিকার আদায়ের সুযোগ পেয়েছেন লো নামের এক নারী। ১৯৯০ সালে স্বামীর সঙ্গে ছাড়াছাড়ি হয়ে যায় লোর। এরপর দুই ছেলেকে বড় করেন তিনি। ছেলেদের বয়স ২০ বছর পেরোলে মায়ের দেখভাল নিয়ে মা ও ছেলেদের মধ্যে চুক্তি হয়। ছেলেরা চুক্তি অমান্য করায় মা বাধ্য হয়ে আদালতের দ্বারস্থ হন।... বিস্তারিত
নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবু্যনালমিথ্যা মামলা, হাজতবাস ও জামিনঅ্যাডভোকেট সিরাজ প্রামাণিক সুমন ও মোহনা একে অন্যকে গভীরভাবে ভালোবাসে। অবশেষে সিদ্ধান্ত্ম নেন বিয়ে করার। সাবালক-সাবালিকা হিসেবে এ ধরনের সিদ্ধান্ত্ম নেয়ার আইনগত ক্ষমতা তাদের আছে। বিয়ের দুই বছরের মাথায় এ দম্পতির কোলজুড়ে আসে একটি ফুটফুটে পুত্রসন্ত্মান। এরই মধ্যে একটি ঠুনকো বিষয়কে কেন্দ্র করে দুজনের সংসারে শুরম্ন হয় দাম্পত্য কলহ। রাগের বশবর্তী হয়ে মোহনা বাবার বাড়িতে চলে যায়। সব শুনে মিলে মোহনার পরিবার এবার সুমনকে শায়েস্ত্মা করতে মন স্থির... বিস্তারিত
জেনে নিনমামলা চলাকালে সম্পত্তি হস্ত্মান্ত্মরমনে করম্নন, আপনার একটি জমি পার্শ্ববর্তী এক প্রভাবশালী ব্যক্তি দখল করে নিয়েছেন। শুধু তাই নয়, জমির দাবি প্রতিষ্ঠিত করতে ভুয়া দলিলও বানিয়ে নিয়েছেন। আপনি দেওয়ানি আদালতে মামলা ঠুকে দিলেন। দেওয়ানি মামলা চলতে থাকল বছরের পর বছর। এরই মধ্যে আপনার অগোচরে দখলদার সেই ব্যক্তি মামলাকৃত জমিটি তৃতীয় আরেক ব্যক্তির কাছে বিক্রি করে দিল। এখন মামলা শেষে আদালতের রায় যদি আপনার পক্ষে আসে, সেক্ষেত্রে আপনি কার কাছে... বিস্তারিত
সংবাদ সংক্ষেপচীনে হাতির দাঁতের ব্যবসা নিষিদ্ধ
আইন ও বিচার ডেস্ক
প্রতি বছর হাজার হাজার আফ্রিকান হাতি হত্যা করে চোরাকারবারিরা। নতুন বছর ২০১৮-এর শুরম্ন থেকেই চীনে পুরোপুরি নিষিদ্ধ হয়ে গেছে হাতির দাঁত এবং এ থেকে তৈরি পণ্যের বেচাকেনা। এতদিন চীন ছিল হাতির দাঁতের পণ্যের ক্ষেত্রে বিশ্বের সবচেয়ে বড় বাজারগুলোর অন্যতম। পৃথিবীতে হাতি সংরক্ষণের ক্ষেত্রে একে এক গুরম্নত্বপূর্ণ ঘটনা বলে বর্ণনা করা হচ্ছে। চীনে হাতির দাঁত... বিস্তারিত
 
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin
close