গুগলক্রোমের নানা দিকছবি ঘোষ গুগলক্রোম ব্যবহারকারীদের সবাই হয়তো জানেন না, ক্রোমে কিছু বিশেষ সুবিধা দিতে রয়েছে বেশ কিছু এক্সটেনশন গুগল ড্রাইভের জন্য। যদিও এগুলো একটু ভারী করে তুলতে পারে কম্পিউটার। তার পরও বেশ কিছু সুবিধা রয়েছে এতে, যা ইন্টারনেট ব্যবহারের অভিজ্ঞতা আনন্দময় করে তুলতে পারে।
কামি (একেএ নোটেবল পিডিএফ) : গুগল ড্রাইভের জন্য একটি চমৎকার পিডিএফ টুল হচ্ছে এটি। পিডিএফসহ ডকুমেন্ট, পাওয়ার পয়েন্ট ও ইমেজ ফাইল। গ্রম্নপ ওয়ার্কিং করার জন্য বেশ কাজে দেয় এ এক্সটেনশনটি।
মিউজিক পেস্নয়ার : আপনার গুগল ড্রাইভে যদি কোনো মিউজিক ফাইল থাকে, তবে এ এক্সটেনশনটি কাজে লাগতে পারে। ড্রাইভের ভেতরকার মিউজিক ফাইলকে পেস্ন করতে পারে এটি। এ হালকা ব্রাউজারের মাধ্যমে পেস্ন লিস্ট করেও গান শোনা সম্ভব।
ড্রাইভ টেম্পল গ্যালারি : পছন্দের ফাইলটিকে গুগল ড্রাইভে আপলোড ও সঠিকভাবে খুঁজে পেতে সাহায্য করে ক্রোমেই এ এক্সটেনশনটি। একটি নামের ফাইল বার বার আপলোড করে সমস্যা তৈরি হতে পারে। সে জন্য এটিতে রয়েছে বিশেষ সুবিধা, যা একই ফাইলকে আবার আপলোড করার আগে ব্যবহারকারীকে জিজ্ঞাসা করে।
ড্রাইভ টিউনস : গুগলে ড্রাইভে মিউজিক ফাইল আপলোড করা থাকলে এ এক্সটেনশনটি ক্রোম থেকেই তাদের পেস্ন করতে পারে।
জলি ক্লাউড : গুগল ড্রাইভ ব্যবহারকারী যদি অন্য কোনো ক্লাউড ব্যবহারকারী হয়ে থাকেন তবে তাদের জন্য সুখবর। জলি ক্লাউড সেসব ক্লাউডের সঙ্গে ক্রোমের সাহায্যে গুগল ড্রাইভকে সমন্বয় করে।
ড্রাইভ নোটপ্যাড : এটা সাধারণত ক্রোমবুক ব্যবহারকারীদের জন্য। যাদের খুব সিম্পল নোট নেয়া দরকার তারা এটা ব্যবহার করতে পারেন। পাশাপাশি এটা গুগল ড্রাইভকেও সিঙ্ক করে থাকে।
ড্রাইভ মাইগ্রেট : বিদ্যমান একাউন্টের উপাদানগুলো সাবলীলভাবে অন্য একাউন্টে স্থানান্ত্মর করতে চাইলে এটা বেশ চমৎকার একটি এক্সটেনশন। খুব সহজেই এক একাউন্টের ডাটা অন্য একাউন্টে এটা ব্যবহার করে স্থানান্ত্মর করা যায়।
ড্রাইভ ফাইলস টু ড্রপবক্স : যদি গুগল ড্রাইভের ডাটা ব্যাকআপ করার প্রয়োজন পড়ে তবে এ এক্সটেনশনের সাহায্যে খুব সহজেই ড্রাইভের ফাইল ব্যবহারকারীর লোকাল হার্ডডিস্কে জমা করা যায়।
ট্রান্সেলেট টু ড্রাইভ : বিভিন্ন ভাষার ডকুমেন্টগুলোকে খুব সহজেই ট্রান্সেলেট করে দিতে পারে এ এক্সটেনশনটি। গুগল ট্রান্সলেটরের সাহায্যে যদিও অনুবাদ করা যায় তার পরও এ এক্সটেনশনের মাধ্যমে খুব সহজেই করা যায়।
ডকুসাইন : ডকুসাইন চমৎকার একটি টুলস যার সাহায্যে ফাইলে সিগনেচার দেয়া যায়। এটা ব্যাংকিং, বীমা, আইনগত কাগজে অটো সাইনের জন্য বেশ কার্যকর।
গ্যানেটার ফর গুগল ড্রাইভ : মাইক্রোসফট প্রজেক্টের মতো কাজ করে। তবে এটা ইন্টারনেটভিত্তিক। খুব সহজেই চার্ট তৈরি করে তাকে গুগল ড্রাইভে সেভ করে রাখা যায় এটার সাহায্যে।
সিম্পল ইনভয়েসিং : খুব দ্রম্নত সময়ের মধ্যে বিল তৈরি করার কাজে এ এক্সটেনশনটি বেশ কার্যকর। শুধু তাই নয়, স্বল্পতম সময়ে এর সাহায্যে জিমেইলে তাকে যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠিয়েও দেয়া সম্ভব।
লুসিড প্রেস : ম্যাগাজিন, ফ্লায়ার, কোম্পানির রিপোর্ট ইত্যাদি অনলাইনেই প্রস্তুত করে তাকে গুগল ড্রাইভে সেন্ড অথবা জিমেইল করার সুবিধা দেয়ার জন্য এ এক্সটেনশন। টুলসটি সম্পূর্ণ ক্লাউডভিত্তিক।
এনভেলপস ফর গুগল ড্রাইভ : বাস্ত্মব জগতে কাউকে চিঠি দেয়ার ক্ষেত্রে পেশাদার খাম দরকার পড়ে। এ এক্সটেনশনটিতে বিভিন্ন ধরনের টেম্পল রয়েছে, যেগুলোর সাহায্যে সঠিক সময়ে সঠিক বস্তুটি যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠিয়ে দেয়া সম্ভব।
পিডিএফ কমপ্রেসর-স্মল পিডিএফ : যতগুলো পিডিএফ কনভার্টর রয়েছে সেগুলোর মধ্যে সবচেয়ে মসৃণ এবং সাবলীল এ কনভার্টরটি। ড্রাইভ থেকে হার্ডডিস্কে কপি অথবা হার্ড ড্রাইভ থেকে ফাইলকে পিডিএফ আকারে সেভ করা যায়।
 
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আপনার মতামত দিতে এখানে ক্লিক করুন
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin
close