মনোরম সৌন্দর্যের চালতা ফুললেখা ও ছবি : মোহাম্মদ নূর আলম গন্ধী চালতা মাঝারি আকারের চিরসবুজ বৃক্ষ। উচ্চতায় ১৫ মিটার পর্যন্ত্ম হয়ে থাকে। পরিবার-উরষষবহরধপবধব, উদ্ভিদতাত্ত্বিক নাম-উরষষবহরধ রহফরপধ। গাছের শাখা-প্রশাখা ছায়াঘন ছড়ানো এবং শোভাবর্ধক। দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ায় এর জন্ম, তবে বাংলাদেশ, ভারত, চীনের উষ্ণ আর্দ্র অঞ্চল, মালয়েশিয়া, থাইল্যান্ড, ভিয়েতনাম, শ্রীলংকা ও মিয়ানমারে চালতা গাছ জন্মে। পাতা বৃহৎ আকারের, রং সবুজ, কিনারা করাতের মতো খাঁজ কাটা, শিরা-উপশিরা স্পষ্ট। গাছের কাঠ বেশ শক্ত মানের, চামড়ার রং লালচে ধূসর ও মসৃণ। উঁচু থেকে মাঝারি উঁচু ভূমি ও নিচু ভূমিসহ প্রায় সব ধরনের মাটিতে চালতা ভালো জন্মে। ফুল হিসেবে চালতা ফুলের পরিচিতি সাধারণ মানুষের কাছে না থাকলেও এর মনোরম রং, রূপ, বৈচিত্র্য, প্রকৃতিপ্রেমীর নজর কাড়ে। চালতা ফল হিসেবেই ছোট-বড় সবার কাছে অতি পরিচিত। দীর্ঘ লম্বা আকারের সবুজ রঙের পাতার ফাঁকে সাদা রঙের ফুল এক কথায় মনোরম। ফুল হালকা সুগন্ধযুক্ত। ফুলের গঠন স্পষ্ট। ফুলের বাইরের অংশে থাকে সবুজ বৃতি ৫টি ও ভেতরের অংশে দুধ সাদা রঙের কোমল বড় পাপড়ি ৫টি এবং পাপড়ির মাঝখানে চাকতির মতো গোলাকার অংশে গর্ভদ-কে ঘিরে থাকে হলুদ রঙের অসংখ্য পুংকেশর। গর্ভদ-ের মাঝখানে গর্ভকেশর অবস্থিত এবং তা তারার মতো সাজানো থাকে। ফুলের গড়নের এ বৈচিত্র্য রূপ ফুলকে করেছে আকর্ষণীয়। চালতা ফুলের অন্যরকম বৈশিষ্ট ফুল খুবই ক্ষণস্থায়ী ভোর বেলায় ফোটা ফুলের পাপড়ি সন্ধ্যায় ঝরে পড়ে এবং ফুল ফোটার সময়ে পাপড়ির রং দুধ-সাদা থাকলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে রং পরিবর্তন হয়ে পাপড়ি ঘিয়ে রং ধারণ করে এবং ঝরে পড়ে। তাই চালতা ফুলের প্রকৃত রূপ দেখতে হলে দুপুর হওয়ার আগেই দেখতে হবে। নিষিক্ত ফুলই চালতা ফলে পরিণত হয়। ফুল ফোটার মৌসুম বর্ষাকাল। তবে বর্ষার শুরম্ন। চালতা ফল দেখতে প্রায় গোলাকার। এর ফল পাকার সময় শরৎ ও হেমন্ত্ম। প্রায় প্রতি শাখা-প্রশাখার অগ্রভাগে ফুল-ফল ধরে। ফল স্বাধে টক-মিষ্টি। পাকা ফলের রং হলদে সবুজ। ফল হতে তৈরি করা যায় আচার, চাটনি, জেলি ইত্যাদি এবং কাঁচা চালতা ডাল রান্নায় ব্যবহার হয়। চালতার ফল, বাকল ও পাতায় ভেষজ গুণাগুণ বিদ্যমান। ফলে বীজ হয়। পরিপক্ব বীজের রং বাদামি। বীজের মাধ্যমে চালতার বংশবিস্ত্মার করা হয়। তবে ইদানীং গ্রাফটিংয়ের মাধ্যমে খুব সহজে চালতার বংশবিস্ত্মার করা হচ্ছে। এতে কম সময়ের মধ্যে চালতা ফল পাওয়া যায় এবং বড় টবেও চাষ করা যায়।

 
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আপনার মতামত দিতে এখানে ক্লিক করুন
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin
close