বাংলা আমার বাংলামুস্তাফা নূরউল ইসলাম প্রায়ই আমরা বলে থাকি হাজার বছরের বাংলা, হাজার বছরের বাংলা কবিতা গান, হাজার বছরের বাঙালি সংস্কৃতি। ইত্যাকার উচ্চারণ আমাদের গর্বের সম্পদ। হিসাবটা অবশ্য অঙ্ক গণনায় নয়, আসলে বোঝাতে চাই যে, সুদূর অতীত কালাবধিই বিপুল সমৃদ্ধ আমাদের পিতৃপুরুষের তাবৎ মহান কৃতির অর্জন। সচেতন জনের জানা রয়েছে, একটি জাতির জন্য সুস্থ সুন্দর জীবনে বেঁচে থাকার স্বার্থে এবং সেইসঙ্গে উত্তর-প্রজন্মের মানসভাবনায় তা বাহিত করে দেয়ার লক্ষ্যে আপন ঐতিহ্যজাত... বিস্তারিত
ভাষার গানমুক্তিযুদ্ধ ও ভাষা আন্দোলনের সঙ্গে সংগীতের রয়েছে গভীর সম্পর্ক। মুক্তিযুদ্ধ ও ভাষা আন্দোলনে উদ্দীপিত ভূমিকা পালনের শক্তি সংগীত। বাংলা ভাষার গান ভাষা আন্দোলনকে প্রাণ দিয়েছে, মুক্তিযুদ্ধে স্বাধীনতার বাণী শুনিয়েছে এবং বায়ান্নর ভাষা আন্দোলনকে উজ্জীবিত রেখেছে।'মোবারক হোসেন খান একুশ আমাকে বারবার 'আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো'র কথা মনে করিয়ে দেয়। একুশ আমাকে 'রাষ্ট্রভাষা বাংলা চাই' দুর্বার আন্দোলনের কথা মনে করিয়ে দেয়। একুশ আমাকে 'বায়ান্ন'র কথা স্মরণ করিয়ে দেয়। মায়ের মুখের ভাষা কেড়ে নেয়ার ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদ জানাতে গিয়ে প্রাণ হারাল সালাম, বরকত, রফিকের মতো বীর ভাষাসৈনিকরা। ঢাকার পিচঢালা পথ শহীদের রক্তে রঞ্জিত হলো। কিন্তু বাঙালি জাতি সব প্রতিবন্ধকতাকে দলে-মুচড়ে দাবি আদায়ের লক্ষ্যে সোচ্চার কণ্ঠে সমস্বরে... বিস্তারিত
একুশের চেতনা এবং বাংলাভাষা প্রতিষ্ঠার সংগ্রামতারাপদ আচার্য্য ১৯৪৭ সালে দেশ বিভাগের পরপরই স্বাধীন বাংলাদেশের অস্তিত্ব রোপিত হয়েছিল। সেই রোপিত বীজের নাম ভাষা আন্দোলন, রাষ্ট্রভাষা হিসেবে বাংলাভাষার প্রতিষ্ঠা। ১৯৪৮ সালে প্রথম প্রতিবাদ উঠেছিল। ১৯৫২ সালে ভাষা আন্দোলনের মধ্য দিয়ে ইতিহাসে এ সম্ভাবনাময় দেশ পৃথিবীর মানচিত্রে 'বাংলাদেশ' নামে এক ভূখ-ের লড়াইয়ে লিপ্ত বাঙালি ছিনিয়ে আনে স্বাধীনতা। বায়ান্নর ভাষা আন্দোলনে শহীদ হয়েছে বাংলাদেশের ভাষাপ্রাণ মানুষ সালাম, রফিক, শফিক, জব্বারসহ অনেকেই। মূলত বায়ান্নর ভাষা আন্দোলনই বাঙালির... বিস্তারিত
ভাষা আন্দোলন ও বাঙালি জাতীয়তাবাদবাহালুল মজনুন চুন্নু 'পাড়ায় পাড়ায় নাটক ব্রতচারী নাচ/মুকুলের মাহফিল-কৃষ্ণচূড়া আর পলাশ ফুল/আর সবুজের স্বরগ্রাম/কলাপাতা-সবুজ, ফিরোজা, গাঢ় সবুজ, নীল/তারই মধ্যে বছরের একটি দিনে/রাস্তায় রাস্তায় উঠে আসে মুষ্ঠিবদ্ধ হাত/রাষ্ট্রভাষা বাংলা চাই! রাষ্ট্রভাষা বাংলা চাই! একুশে ফেব্রুয়ারি কবিতার এই কয়েকটি ছত্রের মধ্য দিয়ে আবদুল মান্নান সৈয়দ বায়ান্নোর রাষ্ট্রভাষা বাংলার দাবিতে সস্নোগানে সস্নোগানে মুখরিত রাজপথের দৃশ্যপট এঁকেছেন। এরপরের দৃশ্যপট খুঁজে পাওয়া যায় আবু জাফর ওবায়দুল্লাহর মাগো ওরা বলে কবিতার_ 'চিঠিটা তার পকেটে... বিস্তারিত
প্রথম শহীদ মিনারের কথামাহমুদুল বাসার ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি ছিল বৃস্পতিবার। অপরাহ্নে অর্থাৎ ৩ থেকে ৪টার মধ্যে রাষ্ট্রভাষার দাবিতে বিক্ষোভরত ছাত্রদের ওপর পুলিশ গুলিবর্ষণ করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হোস্টেলের সামনে। গুলি করেছিল ঢাকার তদানীন্তন অবাঙালি ডিসি কোরেশী এবং সিটি এসপি মাসুদের অধীনস্থ পুলিশ বাহিনী।
২৩ ফেব্রুয়ারি রাতে ঢাকা মেডিকেল হোস্টেলের সামনে, ১২ নাম্বার ব্যারাকের কাছে, যেখানে শহীদদের প্রথম রক্ত ঝরেছিল, সেখানে শহীদদের তাৎক্ষণিক মূল্যায়নের তাগিদে, রাতের অন্ধকারে অসমাপ্ত... বিস্তারিত
একুশে ফেব্রুয়ারি ও বিশ্বের অন্যান্য ভাষাজোবায়ের আলী জুয়েল ভাষা হচ্ছে সংস্কৃতির প্রধান বাহন। মানুষের মনে স্বদেশপ্রেম ও স্বদেশ চেতনা উৎসারনে ভাষা এক উল্লেখযোগ্য শক্তি। যুগে যুগে প্রবল প্রতাপশালী আগ্রাসী শক্তির সামনে অসহায় দুর্বল জাতিসমূহ কেবল তাদের স্বাধীনতাই হারায়নি, সেসব বৈদেশিক শক্তির ভাষার আক্রমণে তাদের মাতৃভাষাও হারিয়েছে। বিজয়ী প্রতাপশালীরা সব সময়ই তাদের ভাষা বিজিত জাতিগুলোর ওপর চাপিয়ে দিয়েছে। এভাবে পৃথিবী থেকে অনেক ভাষা হারিয়ে গেছে। একটি ভাষার বিলুপ্তি মানে সভ্যতার একটি অমূল্য অংশ ধ্বংস... বিস্তারিত
জোছনার মতো ভালোবাসাবেগম জাহান আরা দরজায় টুক টুক করে দুটো শব্দ। মানে, কেউ আসবে ঘরে। বললাম, ভেতরে আসেন। সালোয়ার কামিজ আর মাথায় ওড়না দিয়ে এক মহিলা এসে দাঁড়ালো।
-সালামালেকুম। আমি কুবরা।
-ও হ্যাঁ, সিস্টার বলেছিলো আপনার কথা।
সকালেই সিস্টার বলেছিলো, একজন পাকিস্তানি রোগি আছে আমাদের ক্লিনিকে। তুমি বাঙলাদেশি শুনে সে দেখা করতে চায়। তুমি কি কথা বলবে?
মনে মনে ভেবেছিলো রাহেলা, এটা কেমন সংকোচ? সেকি মুক্তিযুদ্ধে... বিস্তারিত
একুশচন্দ্রশিলা ছন্দা প্রসূতি একুশের গর্ভে ছিল
স্বাধীনতার জ্বালা
রফিক জব্বার সালাম বরকত
একেকটি বর্ণমালা... বিস্তারিত
কফিনকাব্য-১৮মামুন মুস্তাফা নিজস্ব সভ্যতাটুকু ঢেকে দিল আকাশসংস্কৃতি। গুগলের দৌরাত্ম্য নিয়ে যায় বিয়ন্ড বাউন্ডারি। কেবলি সার্চ সার্চ আর সার্চের ভেতরে জেগে ওঠে নকলপ্রবণতা। কফিনকাঠে ঘুমিয়ে পড়ে নিজস্বতা। হাইব্রিড বীজধানে ফুলেফেঁপে উঠেছে এই বোধের জগৎ। কফিনকাঠও তাই সিজিনের কাঙাল। সপ্তম পেরেকে বেঁকে যায়! আরও গুঁড়ো গুঁড়ো হয়ে ঝরে পড়ে চাপাতা, অধিক হিমের চেয়েও অন্ধকার নিয়ে কফিন থেকে গড়িয়ে পড়ে বরফের পানি। মাটির গভীরে দেখি কীভাবে এগিয়ে যাচ্ছে এই হত্যাপ্রবণ... বিস্তারিত
কাজ নেইমানস বিশ্বাস এখন আমি বাড়ি চলে যাব
না বাড়ি নয় ঘরে ফিরে যাব
জানি সেখানে আমার কোনো কাজ নেই
কোনোদিন ছিল না, এখনও নেই
শুধু আমার প্রিয়তমার কাছে থাকা শুধু
চলমান রোদ্দুর কিংবা বেগবান
নিশিথে ঘরের কিছুটা সময়
শরীর মন নারীর পাশে রাখা
কখনো ওর মুখের পদ্ম ছুঁয়ে মৃত্তিকা আকাশের
দীর্ঘ প্রীতির হিসেব করি
আরও... বিস্তারিত
স্বর্ণদ্বীপআবুহেনা আবদুল আউয়াল চারদিকে জল আর জলের উত্তাল ঢেউ_
মাঝে জেগে ওঠা
এক চিলতে নরম দ্রাঘিমা,
উত্তাল সাগর পাড়ি দিয়ে
জলপই রঙের পাখিরা
ঝাঁকে ঝাঁকে আসে যায় আসে ...
দূর থেকে দেখি কী সুন্দর!
পূর্ণিমা-চাঁদের চাই নিজ আলো
আর
সূর্যোদয়-সূর্যাস্তের লিরিক উচ্ছ্বাস_
সব কিছু স্বপ্নের মতোন মনে হয়;
দেখার পরেও দেখা থেকে যায়_
বার বার দেখতে... বিস্তারিত
বসন্ত উৎসবআনোয়ার কামাল বৃক্ষের নতুন করে গজিয়ে ওঠার অর্থ তুমি কি বোঝ
দখিনা বাতায়নে বসে নতুন সমীরণে অবগাহন করো
ফেলে আসা দিনের ধূলিকণা জমে থাকে চোখের কোণে
কবিতার অক্ষর আর বেদনার বিলাসী দুপুর, মনে পড়ে
কত বেলা-অবেলায় সবুজ ঘাসের লকলকে ডগা চুমে
প্রতীক্ষায় একেকটি বসন্ত বাতাস উজাড় করেছি?

একটি কোকিলও সঙ্গ দেয়নি তখন_না, কোন বেদনার্ত
মায়াবী... বিস্তারিত
ভালোবাসার দার্জিলিং রোডপ্রবীর চন্দ ভালোবাসার দুর্গম চূড়ায় উঠতে চাই না আর
যদি পড়ে যাই অন্ধকার ঝর্ণার জটিল জলে
চিরদিন ভীতু ছিলাম আমি পাহাড় গমনে;

তাই অনাদর-অবহেলায় পড়ে থাকে চিরদিন
ভালোবাসার দার্জিলিং রোড...

যদিও জীবন ছিল এক অন্যরকম-
হলুদ পাতার ভেতর বসে থাকা পাখির মতোন
শুধু গান গেয়ে যাওয়া...ফাল্গুনের হাওয়া
প্রান্তরের পলাশ ফুল ফুটে থাকে লাল
... বিস্তারিত
একুশের লালশাহীন রেজা একুশের লাল যেন ফুটে ওঠে পলাশের বুকে
পাখিসব করে রব কাছে-দূরে কী স্বাধীন সুখে

শহীদের লহু নিয়ে গোধূলিতে আকাশের সাজে
শিমুলের চিঠি হাতে মেঘগুরু কি নিপুণ বাজে

অ আ ক খ ধ্বনি শুনে বাঙালির ভরে যায় মন
রফিকেরা শফিকেরা দিয়ে গেছে অধরার ধন

মা'র ভাষা কেড়ে নিতে সেই দিন দেয়নিকো যারা
এই... বিস্তারিত
শৌর্য রোদপ্রদীপ মিত্র দেখছি হাজার বছর উৎড়িয়ে হেঁটে হেঁটে যাচ্ছে সর্বব্যাপ্ত
অনন্ত অসীম ঔদার্যের সৌন্দর্যের অপার সবুজশোভা
নয়নে নয়নে উদ্ভাসিত দিগন্তবিস্তারি আকাশের রঙ,
নীলিমার পূর্ণিমার ভরাচাঁদ হাসিতেসে অনুক্ষণ... ।

বনের প্রান্তের বন, মনের অতল অন্তরালে থাকা মন
কী এক অপূর্ব আহ্লাদে আস্বাদে মগ্ন, মাখনের ঘ্রাণ
দু'ঠোঁটের মাঝে খেলিতেছে জলের মাছের ঝাঁক।
তারমধ্যে হংসমিথুন পায়রা বাক্-বাকুম-বাকুম বাগ্।
... বিস্তারিত
ঝিনুক কুঁড়িরবীন্দ্রনাথ অধিকারী এই খানে এই রোদের ভিতরে
বুনে যাই বীজ, রক্তের বীজ
যে বীজে জন্ম নেবে শুদ্ধস্বর, ভাষার হিজল
মুগ্ধমন্ত্র মহাকালের সরগম
বেজে উঠবে শঙ্খধ্বনি, জলের কলস
যে বীজে জন্ম নেবে অগি্নপুরুষ, অগি্নবাহন কাব্য
পাথর গাছ আর শব্দ-ব্রহ্মের ডানা,

এই খানে এই রোদের ভিতরে
লুকিয়ে আছে অগি্নগিরির ভ্রূণ, ভাষা বীজের কণা
যে বীজে জন্ম নেবে রক্ত-ফসল,... বিস্তারিত
জীবনগীতিফারুক মাহমুদ ছোট্ট হোক, তবু থাকি জলাশয় বুকে নিয়ে
দৃষ্টির ছন্দটি অাঁকি পাখিদের ওড়াউড়ি দিয়ে
সরল প্রজ্ঞার হাসি ধরে রাখি সবুজের গানে
একটাই আকাশ, তার কত বর্ণ, কত কিছু মানে

রাস্তার সানি্নধ্য পেলে ঢুকে যাই তোমার গলিতে
সোজাপথে ভ্রান্তি থাকে, জীবনের তুল্যমূল্য দিতে
সাঁকোর ওপারে যাব। সাদা-কালো মিলে যাওয়া ঘ্রাণে
নরম পাতার শব্দ, কেউ যদি রৌদ্র বয়ে আনে... বিস্তারিত
কীর্তিকলাপগোলাম কিবরিয়া পিনু বীভৎসতা দেখে কুঁকড়ে যাই_
কত কিলোগ্রাম ওজনের কষ্ট নিয়ে
কুইনাইন খাই!
মানুষের কীর্তি_কোন্ কৃতিত্বের কাছে?
মানুষও আথ্রর্োপোডা পর্বের প্রাণীতে
পরিণত হবে?
পিঠের বক্রতা ও স্ফীতি নিয়ে
কুটিল স্বভাববিশিষ্ট হননকারী হয়ে
জীবন কর্তন করে_তাতে আবারও
পেরেক বসিয়ে
শলাকা ঢুকিয়ে
আর্তনাদ তৈরি করে_কোন্ ব্যাখ্যা দেয়?
অসূয়ার স্রোতে কোনো কীর্তিস্তম্ভ থাকে?
তারপরও কী কীর্তিকলাপ!... বিস্তারিত
বসন্ত বাহারসরকার মাসুদ ফুল থাকে সারা বছর বটে
বসন্ত না থাকলে ফুলের বিশালতা বোঝা যেত কি?
বসন্ত চাই সারাবছর
বসন্তের নির্জনতায় ভরে থাক ফুলের মহিমা

বারবার দেখবো উজ্জ্বল ফুলগুচ্ছ
আর ঐ ফুলের পাশে পাতার পাশে
হলদে পাখির পুচ্ছ নেচে যায় ...

বসন্ত আছে বলে পাখির কাকলি আরও মোহময়
বৃষ্টিস্নাত রাতে চাঁদের ওপর দিয়ে গড়িয়ে যাওয়া মেঘের... বিস্তারিত
অনন্ত অনুতাপরেজাউদ্দিন স্টালিন এইদিন দীর্ণ হলো বেদনার চেয়ে তীব্র ধ্বনির আঘাতে
ব্যাধের অব্যর্থ বাণে ছিন্নভিন্ন কাতর ক্রৌঞ্চ

রাত্রি তারও স্বপ্ন থাকে মেঘের মাদুরে শুয়ে চাঁদের চুমুর
সকালে ভস্ম হবে তার আগে শিশিরের স্বপ্ন শুধু প্রকৃতিকে পাওয়া
বিচ্ছিন্ন হবার আগে চখার স্বপ্ন থাকে খুব ভোরে চখীকে দেখার
এইদিন তার কোনো স্বপ্ন নেই প্রাপ্তির পূর্বাভাস নেই
বিপন্নতার কোলে ঘূর্ণিঘুমে অচেতন এইদিন অসম্ভব... বিস্তারিত
রামপাল ২০৫০মাসুদুজ্জামান কয়েকটা শাদা ঘোড়া বিন্দুর মতো ঘন কালো
পরিখাগুলি একের পর এক পেরিয়ে যেতে যেতে
দেখে নিল মৃত্যুর উড়ন্ত কুহক ঢেউ

অশ্বখুড়ের ধূলিচূর্ণ কুয়াশায়
ঝলসে যাওয়া পাতার নীল আগুনে
তখনো পুড়ছে বনবাসী মায়েদের আত্মা
কেশদাম জিভ অস্থি প্লিহা

প্রদীপ্ত চাঁদের নিচে অন্ধকারের ছিন্ন মাংস উড়ছে
প্রগাঢ় শস্যভূমি নদী আর তৃণপ্রান্তরের পিঠে
... বিস্তারিত
সুন্দরবনের দিনলিপিইকবাল আজিজ নোনাবনে জল ছুঁয়ে সার বেঁধে নোনাবৃক্ষ আদিম জলের গান গায়
জলের ভেতর তারা বারবার নিজের জন্মকে হাতড়ায়;
লবণের সাথে সখ্য তার কান্না যেন দুঃখের সাথে
তারাভরারাত মিশে থাকে কটকায় সাগরের মোহনায়
সুগভীর সংঘাতে।

সংঘাত জীবনের দ্বন্দ্বকে প্রত্যক্ষ করে
সুন্দরী কেওড়ার পাতা খুঁড়ে কেবলই বৃষ্টি ঝরে;
হেতাল ও বাইনের পাশে চিত্রা হরিণের ছায়া
বনবিবির রাজত্বে নোনাবনে... বিস্তারিত
ভালোবাসার ভাষাসুজাউদ্দিন কায়সার ক্ষীণ নক্ষত্র সংগীত তবুও শোনা যায়
মৃত্তিকায় পদধ্বনি
স্তব্ধতায় যাহাদের_
অমনি বাস
সে উদ্দেশ্যে হৃদয়ে বাঁধি সর্ববিধ অাঁধি!

ডুবে যায় আলো অহোরাত্র
প্রতিশ্রুতি গানে-গানে
প্রবাহে অন্তহীন-
ক্ষুধার রাত

তবুও ফুলময় খুসব দেয়
নীরবতার তপোভঙ্গে!

নিকোনো মাটিতে নিঃসঙ্গ গৃহে সেসব
ভালোবাসা গীত দলবল ছেড়ে স্মৃতির_
দাওয়ায় সমাহিত... বিস্তারিত
ঐতিহ্যের চিরন্তনীহাসান হাফিজ একুশে ঝঙ্কৃত হয় কোকিলের গানে
একুশে রঞ্জিত করে তপ্ত রাজপথ
একুশে স্পর্ধায় ওড়ে আকাশনীলিমে
একুশে সাগরতৃষা দ্রোহ নিরাপোস
একুশে জমানো ঘৃণা পুঞ্জীভূত রোষ।

একুশে ফাল্গুন দিন, তুমি চিরন্তন
শুদ্ধ পরিস্রুত করো বাঙালি মনন।
একুশে এখন তুমি বাঙলায় সীমায়িত নও
বিশ্ব ঐতিহ্যের গর্বে শাশ্বত ও সমুজ্জ্বল হও।... বিস্তারিত
হয়েছে পূরণমাকিদ হায়দার কবি আরিফুল হক কুমার স্নেহাষ্পদ

আগে পিছে নয়,
থাকবো তাহার মনের গহীনে।

মন যদি হয়
কুয়োর শীতল জল, সেই জলের অতলে
থাকবো লুকিয়ে
হাজার বছর।

আগে পিছে নয়
যদি তিনি
রোষ ভরা চোখে তাকায় আমার দিকে
ক্রোধে না ফেরায় গ্রীবা
তখুনি বৃষ্টি হয়ে
ভেজাবো তার চোখের পাতা।... বিস্তারিত
একুশের কথাশাহাবুদ্দীন নাগরী আমার জন্য জন্ম তোমার
তোমার চোখে আমি,
যদিও তোমার মূল্য জানি
আমার চেয়ে দামি।

আমার বুকে কয়েকটি ফুল
তোমার ভেতর লাখো,
তুমি যখন কষ্টে মলিন
তখন বুঝি ডাকো?

আমার বুকে হেলান দিয়ে
তাকাও অবাক চোখে,
তোমার-আমার ভালোবাসা
দেখুক কোটি লোকে।

আমার জন্য জন্ম তোমার
তোমার... বিস্তারিত
 
monobhubon
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin