পিএসজি-চেলসির গোলোৎসবক্রীড়া ডেস্ক চ্যাম্পিয়ন লিগের শুরুতেই প্রতিপক্ষের জালে গোলোৎসবে মেতে উঠল প্যারিস সেইন্ট জার্মেই (পিএসজি) এবং চেলসি। মঙ্গলবার কারাবার্গের বিপক্ষে একের পর এক গোলের দেখা পাওয়া চেলসি জয় তুলে নিয়েছে ৬-০ ব্যবধানে। নেইমারের পিএসজি সেল্টিককে হারিয়েছে ৫-০ গোলে। সবমিলে, দুই দলের ইউরোপের মর্যাদাপূর্ণ আসরটির শুরুটা হলো স্বপ্নের মতোই। অপরদিকে দিনের অপর খেলাগুলোতে জয়ের হাসি হেসেছে বায়ার্ন মিউনিখ, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, স্পোটিং সিপি।
স্টামফোর্ডে ম্যাচের শুরু থেকেই কারাবার্গের ঘাড়ে চেপে আন্তেনিও কন্তের শিষ্যরা। প্রথম গোলের দেখা পেতেও বেশি সময় অপেক্ষা করতে হয়নি তাদের। পঞ্চম মিনিটেই দলকে এগিয়ে নিয়ে যান পেদ্রো। ভিড়ের মাঝেও সময় নিয়ে ডান পায়ের জোরালো শটেই গোলের দেখা পান এই স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড। পরে ম্যাচের ৩০ মিনিটের মাথায় ডিফেন্ডার জাপ্পাকোস্তা জালের দেখার পেলে গোল ব্যবধান দ্বিগুণ হয় স্বাগতিকদের। ম্যাচের পরের ভাগে চেলসির আক্রমণ ঠেকাতে ঠেকাতে ব্যস্ত কারাবার্গ ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি দ্বিতীয়ার্ধেও।
কন্তের শিষ্যদেরও দমিয়ে রাখতে পারেনি অতিথিদের রক্ষণভাগ। দ্বিতীয়ার্ধের ১০ মিনিটে গোল ব্যবধান ৩-০ করেন আজপিলিকুয়েতা। সেস ফ্যাব্রিগাসের ক্রস থেকে পাওয়ার বলকেই নির্ভুল শটে জালবন্দি করেন স্পেনের এই ডিফেন্ডার। পরে ম্যাচের ৭১ এবং ৭৬তম মিনিটে আরও দুইবার সমর্থকদের উল্লাসে মাতার সুযোগ এনে দেন বাকায়োকো এবং বাতসুয়াই। এরপর ম্যাচ শেষের আট মিনিট আগে মেদ্ভেদেভের আত্মঘাতী গোলে ৬-০ ব্যবধানের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে চেলসি।
এদিকে 'বি' গ্রুপের খেলায় প্রথমার্ধের ১৯ মিনিটেই পিএসজিকে লিড এনে দেন নেইমার। আদ্রিয়েন রাবিয়োর্টের পাস থেকে পাওয়া বলকে গোলরক্ষক ক্রেইগ গর্ডনের মাথার উপর দিয়েই জালে পাঠান এই ব্রাজিলিয়ান স্ট্রাইকার। অবশ্য ম্যাচের পঞ্চম মিনিটেই গোলের ভালো একটি সুযোগ পেয়েছিলেন এডিনসন কাভানি। কিন্তু দানি আলভেসের নিচু করে বাড়ানো বলকে পা ছোঁয়াতে ব্যর্থ হলে তা ভেস্তে যায়। ২২তম গোলের উৎসবে মাতার সুবর্ণ সুযোগ এসেছিল সেল্টিকের। তবে গ্রিফিথসের জোরালো ফ্রি-কিক ফিরিয়ে দিয়ে পিএসজিকে এগিয়ে রাখে গোলরক্ষক আলফুস আরিওলা।
তবে দ্বিতীয় গোল উপহার দিতে দলকে বেশি অপেক্ষায় রাখেননি ধারে প্যারিসে পাড়ি জমানো কিলিয়ান এমবাপে। ডি-বক্সের ভেতর কাভানির পাসকে কাজে লাগিয়ে গোল পেতে বেশি বেগ পেতে হয়নি ফরাসি ফরোয়ার্ডের। পরে পেনাল্টি থেকে করা কাভানির গোলে ব্যবধান ৩-০ হয়। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে মিকায়েল লুস্তিগের আত্মঘাতী গোলে হয় ৪-০। এর দুই মিনিট পর লেইভিন কুরজাওয়ার ক্রসে মাথার ছোঁয়ায় দলের পঞ্চম গোলটি করেন কাভানি।
অন্যদিকে একই গ্রুপের অন্য খেলায় আন্ডারলেখটকে ৩-০ ব্যবধানে পরাস্ত করেছে বায়ার্ন মিউনিখ। শুরুতেই ১০ জনের দলে পরিণত হওয়া বেলজিয়ামের দলটির জালে গোল তিনটি করেন রাবার্ট লেভানদোস্কি, থিয়াগো আলকান্তারা এবং জসুয়া কিমিচ। এছাড়া 'এ' গ্রুপের খেলায় মারোয়ানি ফেলাইনি, রোমেলু লুকাকু ও মার্কাস রাশফোর্ডের গোলে ঘরের মাঠে বাসেলের বিপক্ষে ৩-০ ব্যবধানে সহজ জয় তুলে নিয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। গ্রুপের আরেক ম্যাচে বেনফিকাকে ২-১ গোলে পরাজিত করেছেন সিএসকেএ মস্কো।
 
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আপনার মতামত দিতে এখানে ক্লিক করুন
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin