সুযোগ আসছে তহুরাদেরওক্রীড়া প্রতিবেদক বাংলাদেশি ফুটবলারদের বিদেশি লিগে খেলা একসময় স্বপ্ন থাকলেও গত কয়েক বছরে বিষয়টা স্বাভাবিক হয়ে গেছে। সূচনাটা করেছিলেন সাবিনা খাতুন। তার দেখানো পথ অনুসরণ করেছে কৃষ্ণা রানীও। সম্প্রতি সেথু এফসির হয়ে ইন্ডিয়ান উইমেন্স লিগ খেলে দেশে ফিরেছেন দেশের অন্যতম প্রতিভাবান এই দুই ফুটবলার। তারা জানালেন, বাংলাদেশের মহিলা ফুটবলারদের প্রতিভা দেখে আগামী লিগে আরও বেশি ফুটবলার নিতে মুখিয়ে আছে ভারতীয় ক্লাবগুলো।
ভারতীয় লিগ দারম্নণ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ। সেখানে সেথু এফসির হয়ে বাংলাদেশের দুই নারী ফুটবলারের পারফরম্যান্স মুগ্ধ করেছে সেদেশের ক্লাবগুলোকে। আর সেই কারণেই আগামী মৌসুমে ভারতীয় লিগে সাবিনা কৃষ্ণাদের পাশাপাশি দেখা যেতে পারে তহুরা, শামসুন্নাহার ও আঁখি খাতুনকে।
ভারতীয় লিগে খেলতে যাওয়ার আগে সাবিনা এবং কৃষ্ণা জানিয়েছিলেন, তারা সেখানে ভালো করতে চান। সেটা দেশের নারী ফুটবলের উন্নয়নের জন্যই। তারা যদি ভারতে গিয়ে নিজেদের সেরা পারফরম্যান্সটা দেখাতে পারেন তাহলে ভারতীয় ক্লাবগুলো পরবর্তীতে বাংলাদেশ থেকে আরও বেশি ফুটবলার নিতে আগ্রহ দেখাবে। কথা রেখেছেন সাবিনা। ভারতীয় লিগে সেথু এফসির জার্সিতে মাঠ মাতিয়ে তবেই দেশে ফিরেছেন। ৭ ম্যাচে এই ক্লাবটির ১১ গোলের সাতটিই এসেছে স্ট্রাইকার সাবিনা খাতুনের পা থেকে। শুধু তাই নয়, গোলের পেছনেও ছিল তারা অবদান। পারফরম্যান্স সন্ত্মোষজনক ছিল কৃষ্ণারও।
সাবিনা জানান, তাদের দুইজনের পারফরম্যান্সে এতটাই মুগ্ধ সেথু এফসির সভাপতি যে আগামী মৌসুমেও তাদের ক্লাবে খেলার অগ্রিম প্রস্ত্মাব নাকি দিয়ে রেখেছেন তিনি, 'আমার লক্ষ্য ছিল প্রতি ম্যাচে গোল করা। সেটি করে আসতে পেরেছি। ক্লাবের সিইও আমাদের ডিসিপিস্ননের প্রশংসা করেছেন এবং বলেছেন তারা পরবর্তীতে আমাদের নিজেদের ক্লাবে রাখতে চেষ্টা করবেন।'
সাবিনার জন্য বিদেশি লিগে খেলাটা নতুন নয়। এর আগে মালদ্বীপের ঘরোয়া লিগে প্রতিপক্ষকে গোল বন্যায় ভাসিয়েছিলেন। এবার তার পথ ধরে ভারতীয় লিগে খেলেছেন কৃষ্ণা।
 
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আপনার মতামত দিতে এখানে ক্লিক করুন
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin
close