ইউরোপিয়ান ফুটবলফাইনালে এক পা ম্যানইউরক্রীড়া ডেস্ক রাতটা ওয়েন রুনির ছিল না। ইংলিশ অধিনায়ক গোলের দেখা পাননি, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে স্যার ববি চার্লটনের সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ড ছাড়িয়ে যাওয়ার অপেক্ষাটা তাই বেড়েছে তার। তবে রাতটা নিশ্চিতভাবেই সৌভাগ্যম-িত ছিল ম্যানইউর জন্য। মঙ্গলবার ওল্ড ট্রাফোর্ডে হালসিটিকে ২-০ গোলে হারিয়ে ইএফএল কাপের (লিগ কাপ) ফাইনালে এক পা দিয়ে রাখল রেড ডেভিলসরা। আগামী ২৬ জানুয়ারি ফিরতি লেগে ন্যুনতম ব্যবধানে হারলেও সমস্যা নেই তাদের।
ঘরের মাঠে সেমিফাইনালের প্রথম লেগে জয়টা ম্যানইউর হাতে সহজে ধরা দেয়নি। প্রথমার্ধে হালসিটির সুসংঘটিত রক্ষণভাগে চির ধরাতে পারেননি তারা। অসুস্থততার জন্য নিয়মিত স্ট্রাইকার জালাতন ইব্রাহিমোভিচের অভাব বেশ বোধ করেছে দলটি। আগের ম্যাচে স্যার চার্লটনের রেকর্ড ছোঁয়া রুনি, মার্কোস রাশফোর্ড এবং হেনরিখ মিখিতারিয়ান এই অর্ধে জালের দিশা পাননি। মধ্যাহ্ন বিরতির পর খোলস ছেড়ে বেরিয়ে আসে ম্যানইউ। ৫৬ মিনিটে মিখিতারিয়ানের ক্রস থেকে হুয়ান মাতার গোলে এগিয়ে যায় তারা। নির্ধারিত সময়ের মিনিট চারেক বাকি থাকতে জয় নিশ্চিত করেন বদলি হিসেবে নামা মারুয়ান ফেলাইনি।
ম্যানইউর জয়টা কোচ হোসে মরিনহোর জন্যও বড় প্রাপ্তি। চলতি মৌসুমে ওল্ড ট্রাফোর্ডে যোগ দেয়ার প্রথম মৌসুমেই দলটিকে শিরোপার দ্বারপ্রান্তে পেঁৗছে দিলেন এই পর্তুগিজ। ম্যাচ শেষে দলের পারফরম্যান্সের প্রশংসা করেছেন তিনি। তবে ঘরের মাঠের দর্শকদের আচরণ নিয়ে কিছুটা ক্ষোভও ঝেরেছেন এই স্বঘোষিত স্পেশাল ওয়ান।
স্প্যানিশ কোপা দেল রে'র দ্বিতীয় লেগে লাস পালমাসের কাছে ৩-২ গোলে হেরেও শেষ ষোলোপর্ব উতরে গেছে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। প্রতিপক্ষের মাঠে প্রথম লেগে ২-০ ব্যবধানে জিতেছিল তারা। তাতে দুই লেগ মিলিয়ে ৪-৩ ব্যবধানে এগিয়ে থেকে কোয়ার্টার ফাইনালে নাম লিখিয়েছে ডিয়েগো সিমিওনের দল। ভিসেন্তে ক্যালদেরনে গোলশূন্য প্রথমার্ধের পর ৪৯ মিনিটে অ্যাটলেটিকোকে লিড এনে দেন ফরাসি স্ট্রাইকার অ্যান্তোনি গ্রিজম্যান। বেশিক্ষণ এগিয়ে থাকতে পারেনি তারা, মিনিট আটেক বাদেই মার্কো লিভাজার গোলে সমতায় ফেরে লাস পালমাস।
এরপর ৬১ মিনিটে অ্যাঞ্জেল কোরেয়ার লক্ষ্যভেদে আবারও লিড নেয় অ্যাটলেটিকো। ম্যাচটা জিততে পারত তারাই। কিন্তু ৮৯ মিনিটে লিভাজার দ্বিতীয় আর অতিরিক্ত সময়ে (৯০+৩) মাতেও গার্সিয়া গোলে সমীকরণটা পুরোপুরি পাল্টে দিয়েছে লাস পালমাস। কোপা ইতালিয়ার শেষ ষোলোতে (ইতালিয়ান লিগ কাপ) স্পেজিয়াকে ৩-১ ব্যবধানে উড়িয়ে দিয়েছে নাপোলি। আর ফরাসি কাপের কোয়ার্টার ফাইনালে সোচস্কের বিপক্ষে নির্ধারিত সময়ে ১-১ গোলে সমতার পর পেনাল্টিতে ৪-৩ ব্যবধানে জিতেছে মোনাকো।
 
এই প্রতিবেদন সম্পর্কে আপনার মতামত দিতে এখানে ক্লিক করুন
monobhubon
অনলাইন জরিপ
অনলাইন জরিপআজকের প্রশ্নজঙ্গিবাদ নিয়ে মন্ত্রীদের প্রচারে আস্থাহীনতার সৃষ্টি হয়েছে_ বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান রিপনের এই বক্তব্য সমর্থন করেন কি?হ্যাঁনাজরিপের ফলাফল
আজকের ভিউ
পুরোনো সংখ্যা
2015 The Jaijaidin