logo
বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯, ২৯ কার্তিক ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ০৮ জুলাই ২০১৮, ০০:০০  

তেঁতুলের যত গুণ

নাহিদ বিন রফিক

তেঁতুলের নাম শুনতেই জিভে জল এসে যায়, বিশেষ করে নারীদের। তেঁতুল পছন্দ করে না এমন নারী খুঁজে পাওয়া মুশকিল। তাহলে ছেলেরা এ তালিকায় নেই? তাও কী করে বলি! খেতে বসলে দেখা যায়, কোনো কোনো পুরুষ মেয়েদেরও হার মানায়। আসলে এ ফলটি সবার কাছে অন্য এক আকষর্ণ। দক্ষিণ আফ্রিকায় মূল্যবান খাবারের মধ্যে তেঁতুলের স্থান অন্যতম। অথচ গ্রামাঞ্চলের কেউ কেউ মনে করেন, তেঁতুল খেলে রক্ত পানি হয়ে যায়; সেই সঙ্গে বুদ্ধিও কমে। এ জন্য বাচ্চাদের তেঁতুল খেতে বারণ করা হয়। এগুলো নিছক কুসংস্কার। বাস্তবে ঠিক উল্টো। তেঁতুল রক্ত পরিষ্কার করে। মস্তিষ্কে চিন্তা করার ক্ষমতা বাড়িয়ে দেয়। কঁাচা তেঁতুল খেতে টক, পাকা ফল টক-মিষ্টির এক ভিন্ন স্বাদ। তেঁতুল খাবারে স্বাদ বাড়ায়। এ জন্য মাংসের রোস্ট, পোলাও, খিচুরিতে ব্যবহার হয়। তেঁতুলের টক, ভতার্, ডাল অনেকের প্রিয়। এ ছাড়া তৈরি করা যায় আচার, সস, জ্যাম, চাটনিসহ আরও খাবার। আছে অনেক পুষ্টি। ভেষজগুণেও টইটম্বুর। এর বীজ নকশিশিল্পে ব্যবহার হয়। এসব কারণে তেঁতুলকে বলা হয় বিস্ময়কর ফল। তাই এর গুণাগুণ সম্পকের্ জেনে নেয়া দরকার।

পুষ্টিগুণ : তেঁতুলে আছে চোখ ধঁাধানো পুষ্টি। পুষ্টিবিজ্ঞানীদের মতে, এর প্রতি ১০০ গ্রাম কঁাচাফলে (আহারোপযোগী) ক্যালসিয়াম আছে ২৪ মিলিগ্রাম এবং পাকা ফলে রয়েছে ১৭০ মিলিগ্রাম। আয়রনের পরিমাণ কঁাচাফলে ১ মিলিগ্রাম এবং পাকাফলে আছে ১০.৯ মিলিগ্রাম করে। কঁাচাফলে অন্য পুষ্টি উপাদানগুলো হলোÑ১.১ গ্রাম আমিষ, ১৩.৯ গ্রাম শকর্রা, ০.২ গ্রাম চবির্, ০.০১ মিলিগ্রাম ভিটামিন বি১, ০.০২ মিলিগ্রাম ভিটামিন বি২, ৬ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি, ১.২ গ্রাম খনিজ লবণ এবং খাদ্যশক্তি আছে ৬২ কিলোক্যালরি। পাকা তেঁতুলে পুষ্টির পরিমাণ অনেক বেশি। এর প্রতি ফলে ৩.১ গ্রাম আমিষ, ৬৪.৪ গ্রাম শকর্রা, ০.১ গ্রাম চবির্, ০.০৭ মিলিগ্রাম ভিটামিন বি২, ৩ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি, ০.১ মিলিগ্রাম ভিটামিন ই, ১১৩ মিলিগ্রাম ফসফরাস, ২৮ মিলিগ্রাম সোডিয়াম, ৬২৮ মিলিগ্রাম পটাসিয়াম, ৯২ মিলিগ্রাম ম্যাগনেসিয়াম, ১.৩ মিলিগ্রাম সিলিনিয়াম, ০.১২ মিলিগ্রাম দস্তা, ০.৮৬ মিলিগ্রাম তামা এবং খাদ্যশক্তি আছে ২৮৩ কিলোক্যালরি।

তেঁতুলের ফল, বিচি, পাতা, ফুল, গাছের বাকল প্রতিটি মূল্যবান। এ ছাড়া গাছের গুঁড়ি মাংস কাটার ক্ষেত্রে ব্যবহার হয়। এর গুণের কথা উপলব্ধি করে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী অন্য ফলের পাশাপাশি তেঁতুলগাছ লাগানোর আহŸান জানান। তাই আসুন; প্রতিটি বসতবাড়িতে তেঁতুল গাছ রোপণ করি। ফল রপ্তানির মাধ্যমে অজর্ন করি বড় অঙ্কের অথর্।

লেখক : টেকনিক্যাল পাটিির্সপেন্ট, কৃষি তথ্য সাভির্স, বরিশাল।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে