logo
শনিবার ২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ২৫ আগস্ট ২০১৯, ০০:০০  

ভিন্ন স্বাদের রান্না

কোরবানি ঈদের মাংস-পরোটা আর পোলাও-বিরিয়ানি খেতে খেতে অনেকেরই মুখে রুচি চলে গেছে। মন চাইছে ভিন্ন কিছু স্বাদের। একটু ঝাল ঝাল মসলামাখা চিংড়ি আর মনোহর নানা সবজির জন্য এতক্ষণে হাহাকার উঠে গেছে পরিবারের হয়তো অনেকেরই। তাই আজ রয়েছে আপনাদের জন্য ভিন্ন রসনার রেসিপি। খুব সহজে অল্প সময়ে এই রেসিপিগুলো তৈরির উপায় বলে দিয়েছেন রন্ধনবিদ সালমা হক

ভিন্ন স্বাদের রান্না
মিক্সড সবজি

যে উপকরণ লাগবে

সবজি- ৬-৭ রকমের : পেঁপে, মিষ্টিকুমড়া, মটর, শিম, আলু, ফুলকপি, বেগুন, কাঁচা টমেটো, গাজর সব সবজি কিউব বা ছোট করে কাটা আর সমপরিমাণ করে নিতে হবে। এখানে ১ কাপ করে নেয়া), ছোলার ডাল-১/২ কাপ, পেঁয়াজ কুচি- ২-৩টি বড়, কাঁচামরিচ ফালি- ৮-১০টি, হলুদ+ধনে গুঁড়া- ১ চা চামচ, মরিচের গুঁড়া+জিরা গুঁড়া- ১/২ চা চামচ, ধনেপাতা কুচি- ১ মুঠো, লবণ- স্বাদমতো, তেল- রান্নার জন্য ২ টেবিল চামচ।

ফোড়নের জন্য লাগবে

থেতো করা রসুন- ৬-৭ কোয়া, শুকনামরিচ- ৩-৪টি, অল্প একটু গরম মসলা, তেজপাতা- ২-৩টি, আস্ত জিরা- দেড় চা-চামচ এবং তেল- পরিমাণমতো।

যেভাবে তৈরি করতে হবে

মিক্সড সবজি রান্না করতে হলে প্রথমে ছোলার ডাল ৩০ মিনিট আগে থেকে ভিজিয়ে রাখতে হবে। ডাল ফুলে উঠলে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে রাখতে হবে।

এবার হাঁড়িতে সব সবজি ও ডাল নিয়ে তাতে অর্ধেক পেঁয়াজ কুচি, কাঁচামরিচ, হলুদ-মরিচ-ধনিয়া-জিরা গুঁড়া, দুই টেবিল চামচ তেল ও লবণ দিয়ে খুব ভালোভাবে মাখিয়ে নিতে হবে। এমনভাবে মাখাতে হবে, যেন সবজির গায়ে মসলা বেশ ভালোভাবে লেগে যায়। সবজি মাখানো হলে হাত ধোয়া পানি দিয়ে দিতে হবে। বেশি পানি দেয়ার দরকার নেই। সবজি ও পানি সমান সমান থাকলেই হবে।

এইবার হাঁড়িটি ঢাকনা দিয়ে ঢেকে চুলার আঁচ বাড়িয়ে রান্না করতে হবে। এবার পানি ফুটে উঠলে আঁচ মাঝারি করে রান্না করতে হবে। মাঝেমধ্যে আলতো করে কাঠের খুন্তি দিয়ে নেড়ে দিতে হবে। পেঁপে আর আলু যখন সেদ্ধ হয়ে যাবে তখন ঢাকনা খুলে দিতে হবে। যদি দেখেন, সবজিতে পানি বেশি রয়ে গেছে তখন চুলার আঁচ বাড়িয়ে পানি টানিয়ে নিতে হবে।

পানি টেনে এলে ধনেপাতা মিশিয়ে হাঁড়িটি চুলা থেকে নামিয়ে ঢেকে রাখতে হবে অথবা এক চুলায় সবজির হাঁড়ি রেখে অন্য চুলায় ফোড়নের জন্য প্যান বসাতে হবে। প্যানে তেল গরম করে বাকি অর্ধেক পেঁয়াজ ও রসুন দিয়ে ভেজে নিতে হবে। পেঁয়াজ-রসুন হালকা বাদামি হলে তার মধ্যে আস্ত জিরা, শুকনো মরিচ আস্ত ৩-৪টি, অল্প গরম মসলার গুঁড়া ও তেজপাতা দিয়ে একসঙ্গে একটু নেড়ে, এই মিশ্রণটি সবজির ওপর ঢেলে সঙ্গে সঙ্গে ঢাকনা দিয়ে দিতে হবে। হয়ে গেল হোটেলের স্বাদে সবজি রেসিপিটি।

** সকালের নাশতায় রুটি-পরোটার সঙ্গে পরিবেশন করুন দারুণ মজার বাংলাদেশি হোটেল-স্টাইল মিক্সড সবজি। ভাতের সঙ্গেও পরিবেশন করতে পারেন।

টমেটো দিয়ে মজাদার চিংড়ি

উপকরণ: চিংড়ি মাছ ৪০০ গ্রাম, আদা বাটা ১ টেবিল চামচ, হলুদ গুঁড়া ১/২ চা চামচ, মরিচ গুঁড়া ১ চা চামচ, লবণ স্বাদমতো, পেঁয়াজ নিজের পছন্দমতো, টমেটো মাঝারি ১টি

কাঁচামরিচ ৩/৪টি, ধনেপাতা নিজের পছন্দমতো, তেল ৪ টেবিল চামচ।

প্রণালি

পেঁয়াজ, টমেটো, কাঁচামরিচ, ধনেপাতা তেল বাদে বাকি সব মসলা দিয়ে মাছগুলোকে ১ ঘণ্টার জন্য মাখিয়ে রাখুন। এরপর প্যানে তেল দিয়ে পেঁয়াজ দিয়ে বাদামি করে ভাজুন। বাদামি রং এলে মেরিনেট করা মাছ দিয়ে দিন সঙ্গে টমেটোসহ। এইবার ঢেকে রাখুন ১৫ মিনিটের জন্য মাঝারি আঁচে। যখন মসলার উপরে তেল উঠবে তখন ধনেপাতা এবং কাঁচা মরিচ দিয়ে নামিয়ে নিন।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে