logo
বৃহস্পতিবার ২০ জুন, ২০১৯, ৬ আষাঢ় ১৪২৬

  তারার মেলা রিপোটর্   ১০ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০  

আবেদনময়ী জেসিকা

জেসিকা অ্যালবা শুধু একজন জনপ্রিয় অভিনেত্রীই নন, একজন সফল ব্যবসায়ী হিসেবেও নিজেকে অনন্য এক উচ্চতায় প্রতিষ্ঠিত করেছেন ইতোমধ্যে। তার নিজের প্রতিষ্ঠিত ব্যবসা প্রতিষ্ঠান অনেস্ট কোম্পানির বতর্মান মূল্য ১ দশমিক ৭ বিলিয়ন ডলারে গিয়ে পৌঁছেছে...

আবেদনময়ী জেসিকা
জেসিকা অ্যালবা
হলিউডে অতি অল্প সময়ে যে ক’জন নিজের অবস্থান শক্ত করে ক্যারিয়ারকে আলোকিত করেছেন, তারমধ্যে অন্যতম জেসিকা অ্যালবা। আকষর্ণীয় শারীরিক সৌন্দযর্, মায়াবী চোখ, অদ্ভুত চাহনি আর নজরকাড়া অভিনয়Ñ সবকিছু দিয়েই তিনি জয় করে নিয়েছেন কোটি কোটি দশের্কর মন। গত বছর তৃতীয় সন্তানের মা হয়েছেন এই তারকা। এ কারণে খুব একটা অভিনয় করতে না দেখা গেলেও নানান কারণেই আলোচনায় ছিলেন ৩৬ বয়সী এই অভিনেত্রী।

যদিও জেসিকা অ্যালবাকে নিয়ে হলিউডে সব সময় জমজমাট থাকে আলোচনা। গত বছরের প্রথম দিকে সুপার ন্যাচারাল হরর মুভি দ্য ডেইল’-এ ভিন্নধমীর্ এক চরিত্রের মাধ্যম নতুন করে দ্যুতি ছড়ান তিনি। সেখানে তাকে ম্যাগি প্রাইজ চরিত্রে দেখা গেছে। জেসিকা অ্যালবা নিয়মিত দশর্কদের সামনে হাজির হচ্ছেন। হলিউডের ব্যস্ততম অভিনেত্রীদের কাতারে দারুণ এক অবস্থানে রয়েছেন তিনি। গত ২২ বছরের ক্যারিয়ারে তিল তিল করে নিজেকে গড়েছেন অ্যালবা নিজেকে নিয়ে গেছেন সেরা জনপ্রিয় অভিনেত্রীদের কাতারে। মাত্র ১৩ বছর বয়সে শোবিজে পা রেখেছিলেন। টেলিভিশনে এবং বড়পদার্য় সমান তালে কাজ করেছেন। ১৯৯৪ সালে তাকে দেখা যায় ‘ক্যাম্প নোহোয়ার’ এবং ‘দ্য সিক্রেট ওয়াল্ডর্ অব অ্যালেক্স ন্যাক্স’ সিরিজে। দুই জায়গাতেই তার উপস্থিতি দশর্কদের নজর কেড়েছিল। তবে সবচেয়ে বড় খ্যাতি ও পরিচিতি আসে জেমস ক্যামেরনের টিভি সিরিজ ডাকর্ অ্যাঞ্জেলের সুবাদে। তখন তার বয়স ১৯। ওই বয়সেই ছোটপদার্র প্রিয় মুখে পরিণত হয়েছিলেন। নানা টিভি সিরিজে কাজ করেছেন অ্যালবা। এর মধ্যে ফ্লিপার বেভারলি ফিল্ম ৯০২১০, দ্য অফিস ‘দ্য স্পয়েলস অব ব্যাবিলন’ প্রভৃতির কথা উল্লেখ করা যায়।

হলিউডে বড়পদার্য় পথচলা শুরু ১৯৯৪ থেকে। দীঘর্ ২২ বছরের ক্যারিয়ারে নেভার বিন কিসড হানি, প্যারানয়েড দ্য সিøপিং ডিকশনারি, সিন সিটি, ফ্যান্টাস্টিক ফোর, ইন টু দ্য বøু দ্য টেন, দ্য আই, মিট বিল দ্য লাভ গুরু ভ্যালেন্টাইনস ডে, গুড লাক চাক, ডিয়ার ইলিয়নার সাম কাইন্ড অব বিউটিফুল, স্ট্রেচ, বেয়ারলি লিথাল এনারেজ’-এর মতো সাড়া জাগানো ছবিতে প্রধান নারী চরিত্রে অভিনয় করেছেন। তবে সাম্প্রতিক ছবি মেকালিক: রিমারবেশন’ জেসিকা অ্যালবার অভিনয় জীবনে কিছুটা ভিন্ন চমক নিয়ে আসছে। এমন শ্বাসরুদ্ধকর অ্যাকশন থ্রিলার মুভিতে তাতে আগে দেখা যায়নি।

তিনি কন্যার জননী হলেও তাকে দেখে এখনো দুদার্ন্ত যৌবনা মনে হয়। দশর্কদের আবিষ্ট করে রাখার মতো আবেদনময় ফিগার ও শারীরিক সৌন্দযর্ অদ্ভুত নিপুণতায় ধরে রেখেছেন তিনি। অনেকবার হলিউডের সুন্দরী আবেদনময়ী নারীদের তালিকায় শীষের্ ঠঁাই হয়েছে তার। সম্প্রতি মাল্টি মিলিয়নার এই পুরস্কার জয়ী অভিনেত্রী তার নিজের প্রতিষ্ঠিত ব্যবসা প্রতিষ্ঠান অনেস্ট কোম্পানির চতুথর্ বষর্পূতির্ অনুষ্ঠান সেরেছেন বেশ ঘটা করেই। নিজের ব্যবসায়িক কমর্কাÐে চমৎকার নৈপুণ্য দেখাতে সক্ষম হয়েছেন অ্যালবা। পারিবারিক জীবনেও দারুণ সুখী তিনি। নিজের কোম্পানির একটি সৌন্দযর্ বধর্ক সামগ্রীর প্রচারণায় নেমেছিলেন জেসিকা অ্যালবা। নিজের দুদার্ন্ত আকষর্ণীয় ফিগার দিয়ে সবাইকে চমকিত করেছেন। সাম্প্রতিক এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, একজন নারী উদ্যোক্তা ব্যবসায়ী হিসেবে সব সময় ভালো ভালো সব চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে পছন্দ করি। এটা আমাকে উদ্যমী-উদ্যোগী রাখে সব সময়। শরীর, মন, সৃজনশীলতাÑসব কিছুকেই আমি কাজে লাগাতে সচেষ্ট থাকি। যা আমাকে সমৃদ্ধি এনে দেয়। আমি আমার ভুল স্বীকারে ভয় পাই না কোনো সময়। আমার চেয়ে চৌকস, মেধাবী মানুষের সঙ্গে শিখতে পছন্দ করি। এভাবে নিজেকে আরও উন্নত এবং বিকশিত করার সুযোগ পাই আমি।

জেসিকা অ্যালবা শুধু একজন জনপ্রিয় অভিনেত্রীই নন, একজন সফল ব্যবসায়ী হিসেবেও নিজেকে অনন্য এক উচ্চতায় প্রতিষ্ঠিত করেছেন ইতোমধ্যে। তার নিজের প্রতিষ্ঠিত ব্যবসা প্রতিষ্ঠান অনেস্ট কোম্পানির বতর্মান মূল্য ১ দশমিক ৭ বিলিয়ন ডলারে গিয়ে পৌঁছেছে। ক্যালিফোনির্য়ার শান্তা মনিকায় তার কোম্পানির সুবিশাল হেড অফিসে গিয়ে তাকে বসতে হয়। ব্যবসা দেখভাল করতে হয়। গত ৫ বছর ধরে তার কোম্পানির তৈরি কনজিউমার প্রোডাক্ট বিক্রির ক্ষেত্রে একের পর এক নতুন রেকডর্ সৃষ্টি করে চলেছে। অভিনয়ের তুমুল ব্যস্ততার পর জেসিকা অ্যালবা কীভাবে ব্যবসা-বাণিজ্যে সময় দেন, দিনে দিনে তর তর করে এগিয়ে নিয়ে যান নিজের চালু করা ব্যবসা-প্রতিষ্ঠানটিকেÑ সেটা অনেকের জন্যই বিস্ময়ের ব্যাপার বৈকি। ৩৫ বছর বয়সী জেসিকা অ্যালবা এ কারণে এখন হলিউডে এক চমৎকার রোল মডেল। অভিনয়ে মেধা ও যোগ্যতার পরিচয় দিয়েছেন অনেকবার। এর জন্য বেশ কিছু পুরস্কার নিজের ঝুলিতে পুরেছেন, আবার অসংখ্য পুরস্কারের জন্য মনোনয়নও লাভ করেছেন সেটাও কম কৃতিত্বের নয়। একজন নারী উদ্যোক্তা এবং একজন সফল অভিনেত্রীর জন্য আর কী চাই!
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে