logo
বৃহস্পতিবার ১৭ অক্টোবর, ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ০৯ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০  

সংবাদ সংক্ষেপ

কর্মীদের বেতন নিয়ে

সংকটে জাতিসংঘ

যাযাদি ডেস্ক

অর্থ সংকটে পড়েছে জাতিসংঘ। সোমবার সংস্থাটির মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস জানিয়েছেন, ২৩ কোটি ডলার ঘাটতি রয়েছে জাতিসংঘে।

বিশ্বসংস্থার ৩৭ হাজার কর্মীকে উদ্দেশ্য করে লেখা চিঠিতে গুতেরেস বলেন, অক্টোবরের শেষ দিকেই তাদের তহবিল শেষ হয়ে যেতে পারে। তাই কর্মীদের বেতন দেয়ার ক্ষেত্রে অস্থায়ী বিকল্প পন্থা নিতে হবে জাতিসংঘকে।

তিনি লিখেছেন, '২০১৯ সালের বাজেট পরিচালনায় সদস্য দেশগুলো প্রয়োজনীয় অর্থের মাত্র ৭০ শতাংশ দিয়েছে। এতে করে সেপ্টেম্বরের শেষ নাগাদ পর্যন্ত ঘাটতি পড়বে ২৩ কোটি ডলার। ফলে আমরা রিজার্ভ তরল ঘাটতির ঝুঁকির মুখে পড়তে যাচ্ছি।'

খরচ কমাতে সম্মেলন ও বৈঠক স্থগিত করার কথাও বলেছেন গুতেরেস। একই সঙ্গে কর্মকর্তাদের ভ্রমণ কমিয়ে দেয়ার কথাও জানিয়েছেন তিনি।

অর্থ সংকট কাটাতে চলতি বছরের প্রথম দিকে সদস্য দেশগুলোকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছিলেন গুতেরেস। জাতিসংঘ মহাসচিব বলেন, 'আমাদের আর্থিক অবস্থা সদস্য রাষ্ট্রগুলোর ওপরই নির্ভর করছে।' তবে তার এই আহ্বানে সাড়া মেলেনি বলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন। সংবাদসূত্র : বিবিসি

পাঞ্জাব সীমান্তের কাছে

পাকিস্তানি ড্রোন

যাযাদি ডেস্ক

ভারতের পাঞ্জাব প্রদেশের এইচকে টাওয়ারের কাছে একটি পাকিস্তানি ড্রোন উড়তে দেখা গেছে। পাঞ্জাবের ফিরোজপুর হুসেনিওয়ালা সীমান্তের চেকপোস্ট সংলগ্ন এলাকায় ওই ড্রোনটি দেখার পরেই নজরদারি বাড়িয়েছে ভারতের সীমান্তরক্ষী

বাহিনী বিএসএফ।

মঙ্গলবার বিএসএফের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সোমবার রাতে এইচকে টাওয়ার চেকপোস্টসংলগ্ন এলাকায় নজরদারি চালাচ্ছিল কর্তব্যরত জওয়ানরা। সে সময় মোট পাঁচবার পাকিস্তানের একটি ড্রোনকে আকাশে উড়তে দেখে তারা।

এরপর মঙ্গলবার সকাল থেকেই ওই এলাকায় বিএসএফ এবং পুলিশের সঙ্গে অভিযান চালায় অন্যান্য গোয়েন্দা সংস্থা। বিএসএফের অভিযোগ, ড্রোনের সাহায্যে পাকিস্তানি জঙ্গিরা অস্ত্র পাঠানোর চেষ্টা চালাচ্ছে। সে কারণে ওই এলাকায় তলস্নাশি চালানো হচ্ছে। এক সপ্তাহ আগেও দুটি ড্রোন ব্যবহার করে সীমান্তে অস্ত্র পাচার করা হয়। তারা জানায়, তখন পাঞ্জাবে অন্তত ৮টি ড্রোন প্রবেশ করেছিল। এসব ড্রোনে ৮০ কেজি অস্ত্র পাকিস্তানভিত্তিক খালিস্তানি গোষ্ঠীর কাছে পাঠানো হয়

বলে দাবি ভারতের।

সংবাদসূত্র : এনটিটিভি

সেলফি তুলতে পানিতে

নেমে চারজনের মৃতু্য

যাযাদি ডেস্ক

ভারতের তামিলনাড়ুতে বাঁধের জলাধারে সেলফি তুলতে নেমে রোববার নববিবাহিত এক নারী ও তার পরিবারের তিন সদস্য ডুবে মারা গেছেন।

নিহত চারজনসহ ওই পরিবারের ছয় সদস্য পাম্বার বাঁধের কাছে ওই জলাধারে নেমে কোমর পানিতে একে অপরের হাত ধরে দাঁড়িয়ে ছিলেন; এদের মধ্যে একজন পা পিছলে পড়ে

গেলে অন্যরাও ডুবে যান।

নববিবাহিতার স্বামী কেবল বোনকে বাঁচাতে পারলেও বাকিরা ভেসে যান বলে পুলিশ ও স্থানীয়রা জানিয়েছে।

ভারতে সেলফি তুলতে গিয়ে মৃতের সংখ্যা বিশ্বের মধ্যে সর্বোচ্চ। মার্কিন 'ন্যাশনাল লাইব্রেরি অব মেডিসিন'র তথ্য অনুযায়ী, ২০১১ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত বিশ্বজুড়ে যে ২৫৯ জনের মৃতু্যর পেছনে নিজেই নিজের ছবি তোলা বা সেলফিকে দায়ী করা হয়, তার অর্ধেকই ঘটেছে ভারতে। এরপর রাশিয়া,

যুক্তরাষ্ট্র ও পাকিস্তানের অবস্থান।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বন্ধু ও অনুসারীদের 'চমকে' দিতে অনেকেই অপ্রয়োজনীয় ঝুঁকি নিয়ে ছবি তুলতে গিয়ে এ ধরনের দুর্ঘটনায় পড়েন।

চলতি বছরের মে মাসে হরিয়ানায় তিন কিশোর রেললাইনে সেলফি তুলতে গিয়ে ট্রেনের নিচে কাটা পড়েছিল।

সংবাদসূত্র : দ্য হিন্দু

তিনি খুন করেছেন

৯০ নারীকে

যাযাদি ডেস্ক

৯০ নারীকে খুন করার কথা স্বীকার করেছেন স্যামুয়েল লিটল নামে এক মার্কিন নাগরিক। সেই হিসাবে তাকে যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে ভয়াবহ 'সিরিয়াল কিলার' বলে বিবেচনা করা হচ্ছে।

গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআই জানিয়েছে, ২০১২ সাল থেকে কারাগারে আছেন স্যামুয়েল। গত বছর তিনি তদন্তকারীদের কাছে ১৯৭০ থেকে ২০০৫ সাল পর্যন্ত ৯০ নারীকে হত্যার কথা স্বীকার করেন।

কেন্দ্রীয় অপরাধ বিশ্লেষকরা লিটলের স্বীকারোক্তিকে সত্য বলেই মনে করছেন। এরই মধ্যে তারা ৫০টি

হত্যাকান্ডের স্বীকারোক্তি মিলিয়ে

দেখতে সক্ষম হয়েছেন।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত ৭৯ বছরের লিটল জানিয়েছেন, তিনি ৯৩ জনকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছেন। এদের প্রায় সবাই ছিলেন নারী। হত্যাকান্ডের শিকার অধিকাংশ নারীই ছিলেন সমাজের প্রান্তিক শ্রেণির। এদের অধিকাংশই ছিলেন কৃষ্ণাঙ্গ। সংবাদসূত্র : টেলিগ্রাফ
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে