logo
শনিবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ২৮ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০  

সাক্ষাৎকার

অ্যালবাম প্রকাশের দিন হারিয়ে যাচ্ছে

তরুণ প্রজন্মের কণ্ঠশিল্পী ঝিলিক। চ্যানেল আই সেরা কণ্ঠ হিসেবেই পরিচিত তিনি। নিয়মিত স্টেজশোর পাশাপাশি বতর্মানে তিনি ব্যস্ত রয়েছেন টিভি প্রোগ্রাম ও প্লেব্যাকে। সব বিষয়েই অল্প স্বল্প গল্প হলো তার সঙ্গে...

অ্যালবাম প্রকাশের দিন হারিয়ে যাচ্ছে
কণ্ঠশিল্পী ঝিলিক
গানে গানে সময়...

এখন স্টেজ প্রোগ্রামের মৌসুম। তাই কনসাটর্ নিয়েই এখন বেশি ব্যস্ততা যাচ্ছে। ঢাকা ও ঢাকার বাইরে অনেক কনসাটর্ করতে হচ্ছে। আজ (গতকাল) গুলশানে একটি কনসাটের্ গান করব। আগামী পহেলা নভেম্বরে রাজধানীর ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়াসর্ ইন্সটিটিউটে, ৫ নভেম্বর মোহাম্মদপুরে কনসাটের্ গাইব। এছাড়া বিভিন্ন চ্যানেলেও লাইভ করছি। গত ২৫ অক্টোবর লাইভে গান করলাম চ্যানেল আইতে, ৩১ অক্টোবর লাইভে গান করব নাগরিক টিভিতে।

স্বাচ্ছন্দ্যের জায়গা...

টিভিতে লাইভ প্রোগ্রামে গাইতে গেলে ফোনে অনেকের অনুরোধ আসে। দেশের বিভিন্ন স্থান হতে এসব অনুরোধ আসে। কেউ কেউ তাদের কিছু আবেগ, ভালোলাগা ও মনের কথা শেয়ার করেন। অন্যদিকে স্টেজের প্রাণোচ্ছল পরিবেশটা নিজের চোখে দেখা যায়। দশের্কর প্রতিক্রিয়া সরাসরি দেখা যায়। গানের এক লাইন গাইতে না গাইতেই পরের লাইন দশর্ক নিজেরাই গাইতে শুরু করেন। স্টেজ ও টিভি লাইভ দুটো দুই ধরনের হলেও কনসাটর্ই আমার কাছে বেশি ভালো লাগে।

প্লেব্যাক...

প্রথম প্লেব্যাক করি ‘সূচনা রেখার দিকে’ চলচ্চিত্রে। সবের্শষ প্লেব্যাক করেছিলাম নায়ক আলমগীর পরিচালিত ‘একটি সিনেমার গল্প’ চলচ্চিত্রে। গাজী মাজহারুল আনোয়ারের কথায় গানটি গেয়ে সত্যিই অনেক ভালো লেগেছে। ক্যারিয়ারে এ পযর্ন্ত ২০টির মতো চলচ্চিত্রে গান করলেও এটিই আমার সবচেয়ে বেশি ভালো লাগার এবং অনেক বড় প্রাপ্তি।

ইউটিউব-মিউজিক ভিডিও...

সময়ের চাহিদানুযায়ী ইউটিউবের বাজার শুরু হলেও আমি এখনো ইউটিউবের জন্য গান করিনি। অনেকের মতো সামনে হয়তো আমারও নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেল খোলা হবে। এজন্য নিজের কিছু প্রস্তুতিরও দরকার আছে। তবে আমার তিনটি গানের মিউজিক ভিডিও হয়েছে। ২০১২ সালে ‘নীলাকাশ’, ২০১৫ সালে ইমরানের সঙ্গে ‘বেসামাল’ ও ২০১৬ সালে বেলালের সঙ্গে একটি মিক্সড অ্যালবামের গান।

নতুন গান...

২০১৪ সালে তৃতীয় অ্যালবাম প্রকাশের পর নতুন কোনো অ্যালবাম প্রকাশ করতে পারছি না। পরিকল্পনা থাকলেও তা সম্ভব হয়ে উঠছে না। কারণ এখন অ্যালবাম প্রকাশের যুগ নেই। এই যুগ প্রায় হারিয়ে যাচ্ছে। ভিন্ন কায়দায় এখন গান প্রকাশ হচ্ছে। তাই অ্যালবাম করতে না পেরে বাধ্য হয়ে সিঙ্গেল ট্রাকে আমাকে এগোতে হচ্ছে। এজন্য তাড়াহুড়ো না করে কাজটা আমি যতœ নিয়ে, ভালো কিছু প্রকাশ করতে চাই।

গানের চলমান পরিবেশ...

অসংখ্য গান হলেও তা স্থায়িত্ব হচ্ছে না। দু-একটি ছাড়া প্রায় গানই হারিয়ে যাচ্ছে খুব সহজে। এর মধ্যে অনেকেই চেষ্টা করছে ভালো করার। অনেক প্রতিভাবানরাও আছে। কিন্তু সঠিক পৃষ্ঠপোষকতার অভাব রয়ে গেছে। যারা সত্যিই ভালোবেসে গান করতে চান, তাদের জন্য পৃষ্ঠপোষকদের এগিয়ে আসা জরুরি।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে