logo
সোমবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ০২ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০  

সাক্ষাৎকার

গল্পই হচ্ছে নাটকের প্রধান সংকট

লাক্স তারকা ঈশানা । বলা চলে, টিভি খুললেই দেখা মেলে তার। বিভিন্ন চ্যানেলে তার অভিনীত একাধিক ধারাবাহিক প্রচারের পাশাপাশি চ্যানেল আইয়ের একটি নাচের রিয়েলিটি শোতে অংশগ্রহণ করছেন তিনি। অভিনয়, নাচ ও সমসাময়িক বিষয়ে কথা হয় তার সঙ্গে...

গল্পই হচ্ছে নাটকের প্রধান সংকট
ঈশানা
অভিনয়ে সময়...

খÐ ও ধারাবাহিক দুটো নিয়েই ব্যস্ত আছি। এই মুহ‚তের্ একটি ধারাবাহিকের শুটিংয়ে আছি। নাটকের নাম ‘হাজার রকম ভালোবাসা’। ইসমত আরা শান্তির পরিচালনায় এতে আমার সহশিল্পী শাহেদ শরীফ। এটি এনটিভিতে প্রচারিত হবে। এ ছাড়া কিছু খÐনাটকের কাজ হাতে রয়েছে। প্রতিদিনই শুটিং আছে। শিডিউল খাতা না দেখে সঠিকভাবে এগুলোর নাম বলতে পারছি না।

প্রচার চলতি ধারাবাহিক...

বিভিন্ন চ্যানেলে আমার একাধিক ধারাবাহিক প্রচার হচ্ছে। এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য ধারাবাহিকগুলো হলোÑ সৈয়দ শাকিলের ‘উল্টো স্রোত’, দেওয়ান নাজমুলের ‘সুয়োরানী দুয়োরানী’, মীর সাব্বিরের ‘নোয়াশাল’, এফ জামান তাপসের ‘নিউটনের তৃতীয় সূত্র’, রহমতুল্লাহ তুহীনের ‘নিউ ইয়কর্ থেকে বলছি’। সম্প্রতি নাগরিক টিভিতে প্রচার শুরু হয়েছে ‘এক পা দুপা’ শিরোনামের একটি ধারাবাহিক। এটির রচনা ও পরিচালনা করেছেন ফেরদৌস হাসান।

নাটকের চলমান সংকট...

প্রধান সংকট হলো গল্প। বেশিরভাগ ধারাবাহিক নাটকেই দেখা যায়, শুরুটা বেশ জমজমাট হয়, তারপর ধীরে ধীরে গল্পটি ঝুলে যায়। গল্প আর সামনে টানে না। পাশের দেশের সিরিয়ালের প্রতি আমাদের দেশের দশের্কর দিন-দিন আগ্রহ বাড়ছে। অথচ আমাদের এত শিল্পী-নিমার্তা থাকতেও দশর্কদের ভালো কিছু দিতে পারছি না। এটি আমাদের ব্যথর্তা। তবে এসবের পেছনে কিছু সমস্যাও রয়েছে। একদিকে আমাদের বাজেট সংকট। আরেক দিকে ভালো চিত্রনাট্যের অভাব রয়েছে। তবে আমাদের অনেক মেধাবী চিত্রনাট্যকার, নিমার্তা ও অভিনয়শিল্পী আছেন। বাজেটসহ বিভিন্ন সমস্যার কারণে তাদের কাজে লাগানো সম্ভব হচ্ছে না। এসব সমাধানে সংশ্লিষ্ঠদের এগিয়ে আসতে হবে।

চরিত্র বাছাই...

অভিনয় করার আগে নাটকের স্ক্রিপ্ট ও চরিত্রের গুরুত্ব দিই। সত্যি বলতে, আমি চ্যালেঞ্জিং চরিত্র খুঁজি। গতানুগতিক চরিত্রের বাইরে কাজ করতে চাই। এটি আমার নিজের জন্য করতে চাই। যে কাজটি দেখে দশর্ক আমাকে নতুনভাবে আবিষ্কার করবে।

‘বাজলো ঝুমুর তারার নূপুর’...

নাগরিক টিভিতে সপ্তাহের প্রতি সোম, মঙ্গল, বুধ এবং বৃহস্পতিবার দুই বাংলার শিল্পীদের নিয়ে ‘বাজলো ঝুমুর তারার নূপুর’ শিরোনামের একটি নাচের রিয়েলিটি শো প্রচার হচ্ছে। অনুষ্ঠানটির জন্য অনেক কষ্ট করতে হয়েছে। কারণ এতে দুই বাংলার যারা অংশ নিয়েছেন প্রত্যেকেই অনেক ভালো। সেই কারণে প্রতিযোগিতাটা বেশ কঠিন ছিল বলতে পারি। তবে আমাদের পরিশ্রম স্বাথর্ক হয়েছে। অনুষ্ঠানটি প্রচারে আসার পর দশের্কর মধ্যে দারুণ সাড়া ফেলেছে। এই ধরনের অনুষ্ঠান আমাদের আরো বেশি প্রয়াজন বলে আমি মনে করি। আমাদের টিভি চ্যানেলগুলো ইচ্ছে করলেই গতানুগতিকের বাইরে এমন নতুন নতুন অনুষ্ঠানের উদ্যোগ নিতে পারে। দশর্ক সব সময় নতুন কিছু দেখেতে চায়।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে