logo
  • Wed, 14 Nov, 2018

  ইমরান হোসাইন, পাথরঘাটা   ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০  

হারিয়ে যাচ্ছে ঐতিহ্যবাহী ‘ঢেঁকি’

গ্রামবাংলার ঘরে ঘরে একসময় ঢেঁকিতে ধান ভানার দৃশ্য চোখে পড়ত। ঢেঁকি নিয়ে একসময় জনপ্রিয় গান ও প্রবাদ বাক্য রচিত হয়েছিল। গ্রামবাংলার ঐতিহ্য ঢেঁকি নিয়ে গান ও প্রবাদ প্রচলিত থাকলেও ঐতিহ্যবাহী সেই ঢেঁকি এখন প্রায় বিলুপ্তির পথে।

কালের বিবতের্ন যান্ত্রিক আবিভাের্বর জন্য শোনা যায় না ঢেঁকির ধুপধাপ শব্দ। শহরে তো বটেই, আজকাল গ্রামের ছেলেমেয়েরাও ঢেঁকি শব্দটির কথা জানলেও বাস্তবে দেখেনি। অনেকেই কৌত‚হল কেমন করে মেশিন ছাড়া ধান থেকে চাল বের করা হতো। আসলে ধানের তুষ ছাড়িয়ে চাল বানানোই ছিল ঢেঁকির কাজ।

ঢেঁকি হচ্ছে কাঠের তৈরি দÐ বিশেষ। প্রায় ৬ ফুট লম্বা ও ৯ ইঞ্চি ব্যাস বিশিষ্ট একটি ধড় থাকে ঢেঁকিতে। মেঝে থেকে ১৮ ইঞ্চি উচ্চতায় ধড়ের একেবারে সামনে দুফুট লম্বা একটি গোলকাঠ থাকে। এটাকে মৌনা বলা হয়। দুটি বড় কাঠের দÐের ভেতর দিয়ে একটি ছোট হুকরা হিসেবে কল কাঠের গোলাকার খিল থাকে। এভাবেই তৈরি ঢেঁকি দিয়ে একসময় ধান ভাঙ্গানোর কাজ করা হতো ব্যাপকভাবে। ঢেঁকি দিয়ে শুধু ধান থেকে চালই নয়, পিঠে-পুলি তৈরির জন্য চালের গুঁড়াও তৈরি করা হতো। একসময় গ্রামে গ্রামে অগ্রহায়ণ মাসে নতুন ফসল ঘরে তোলার পর এবং পৌষ সংক্রান্তিতে ঢেঁকির শব্দে মুখরিত হয়ে উঠত গ্রামের অধিকাংশ বাড়ি।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে