logo
  • Tue, 25 Sep, 2018

  মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) সংবাদদাতা   ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০  

মাথায় অস্ত্র ঠেকিয়ে সই নিলেন পুলিশ!

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া থানার উপ-পরিদশর্ক জাহিদ ও আবু জাফরের বিরুদ্ধে ঘর তল্লাসির সময় পুতুল বেগম (২০) নামে এক নারীর মাথায় পিস্তল ঠেকিয়ে সাদা কাগজে স্বাক্ষর নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত ১০ সেপ্টেম্বর সোমবার গভীর রাতে উপজেলার তেঁতুলবাড়িয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

উক্ত পুতুল বেগম বুধবার এ ঘটনায় পিরোজপুর পুলিশ সুপার বরাবরে ডাকযোগে লিখিত অভিযোগ পাঠান। পুতুল বেগম দেবীপুর গ্রামের আ. সালাম হাওলাদারের মেয়ে।

জানা যায়, পুতুল বেগম চাচাত ভাই তেঁতুলবাড়িয়া গ্রামের বাসিন্দা মৃত. মুজিবর রহমান হাওলাদারের ছেলে সুমন হাওলাদারের বাড়িতে কোন লোক না থাকায় গত সোমবার রাতে পুতুলকে বাড়ি পাহাড়া দেয়ার জন্য অনুরোধ করে সুমন। তার অনুরোধে পুতুল বেগম, তার মা ও ভাইবোন মোট চারজন সুমনের ঘর পাহাড়া দিতে আসেন। রাত ১২টার দিকে ঘরের প্রতিটি দরজায় আঘাতের শব্দ শুনে তারা ঘুম থেকে জেগে ওঠে। এ সময় তারা বৈদ্যুতিক লাইট জ¦ালিয়ে ও জানালা খুলে বাহিরে দেখতে পায় মঠবাড়িয়া থানার উপ-পরিদশর্ক জাহিদ ও আবু জাফরসহ ৭-৮ জন পুলিশ দঁাড়িয়ে আছে। পুলিশের কথামতো তার ঘরের দরজা খুলে দিলে পুলিশ ঘরে প্রবেশ করে সুমনের কথা জিজ্ঞাসা করে। সুমন ঘরে নেই বলে পুতুল জানান।

এ সময় পুলিশ সদস্যরা ঘর তল্লাসির নামে ব্যাপক ভাঙচুর ও তাÐব চালায় এবং দুটি স্থানে থাকা ২৪ হাজার ৮০০ টাকা, স্বণার্লংকার, টচর্লাইট ও মোবাইল সেটসহ বিভিন্ন মালামাল নিয়ে যায়।

এ ঘটনার প্রতিবাদ করে পুলিশের কাছে জানতে চায়, সুমনের নামে কোনো মামলা আছে কিনা? এ সময় উপ-পরিদশর্ক আবু জাফর ক্ষিপ্ত ভাষায় মামলা নেই বলে তাকে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করেন। পরে তারা পুতুলের মাথায় পিস্তল ঠেকিয়ে সাদা কাগজে সই নেয়।

এদিকে মঠবাড়িয়া থানার উপ-পরিদশর্ক জাহিদ সব অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, সুমনের স্ত্রী শারমীনের মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে তার বাড়ি তল্লাসি করা হয়েছে। বিষয়টি ওসি স্যার ও এসপি স্যারকে অবহিত করা হয়েছে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

উপরে