logo
মঙ্গলবার ১৬ জুলাই, ২০১৯, ১ শ্রাবণ ১৪২৬

  চকরিয়া (কক্সবাজার) সংবাদদাতা   ২৩ এপ্রিল ২০১৯, ০০:০০  

ছয় গ্রামবাসীর পারাপারে ভরসা নৌকা

কক্সবাজারের চকরিয়ায় মাতামুহুরী নদীর ওপর একটি পাকা সেতুর অভাবে কয়েক যুগ ধরে চকরিয়া পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের পাঁচটি গ্রামের ছয় হাজার মানুষের দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

কক্সবাজার জেলা পরিষদ সূত্র জানায়, দুই যুগ ধরে অন্তত ১২০ মিটার দৈর্ঘ্যের বাঁশঘাট-হাজিয়ান নৌঘাটটি জেলা পরিষদ ঘাট গুদির অন্তর্ভুক্ত করে টেন্ডারের মাধ্যমে ইজারা দিয়ে আসছে। ১৪২৫ বাংলা সনের জন্যও ঘাটটি টেন্ডার করা হয়। প্রতিজন একবার পার হতে তিন টাকা করে ঘাট ভাড়া (নৌকা ভাড়া) দিতে হয়। ঘাট ডাককারী ও পৌরসভার পার্শ্ববর্তী ফাঁসিয়াখালী ইউপি সাবেক সদস্য এনামুল হক বলেন, প্রতিদিন অন্তত সাড়ে চার শত থেকে ছয় শত নারী-পুরুষ-শিশু নৌকা পার হচ্ছেন। সেখানে তার ওয়ার্ডের লোকজনও রয়েছেন'।

কোচ পাড়ার বাসিন্দা রবি শীল (৫৫) জানিয়েছেন, মাতামুহুরী নদীর উপর হাজিয়ান-বাঁশঘাটে একটি পাকা সেতুর অভাবে আমাদের এলাকায় সড়ক যোগাযোগের সুযোগ নেই। একটি সেতু নির্মিত হলে গাড়ি নিয়ে সরাসরি আমাদের এলাকায় যাওয়া যেত। চকরিয়া পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মুজিবুল হক জানান, তার ওয়ার্ডের একটি অংশ পড়েছে মাতামুহুরী নদীর ওপারে। বাঁশঘাট ও হাজিয়ান গ্রামের মধ্যবর্তী নদীর উপর একটি সেতু না থাকায় অন্তত ছয় গ্রামের সাড়ে ছয় হাজার মানুষ চরম দুর্ভোগ পোহাচ্ছে। তিনি আরও বলেন, একটি পাকা সেতু নির্মাণ করতে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়সহ সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেও কোনো ফল পাওয়া যাচ্ছে না।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে