logo
  • Thu, 15 Nov, 2018

  অনলাইন ডেস্ক    ১১ জুলাই ২০১৮, ০০:০০  

মিজার্ ফখরুলের অভিযোগ

বিকালে ইসি-সচিব যান বিশেষ দলের বিশেষ কাযার্লয়ে

বিকালে ইসি-সচিব যান বিশেষ দলের বিশেষ কাযার্লয়ে
মঙ্গলবার জাতীয় প্রেসক্লাবে ‘৯০-এর ডাকসু ও সবর্দলীয় ছাত্রঐক্য নেতাদের আয়োজিত সমাবেশে বক্তৃতা করেন বিএনপির মহাসচিব মিজার্ ফখরুল ইসলাম আলমগীর Ñযাযাদি

যাযাদি রিপোটর্ বিএনপির মহাসচিব মিজার্ ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিযোগ করেছেন, একজন সচিবকে দিয়ে সরকার নিবার্চন কমিশন চালায়। তিনি হলেন হেলালুদ্দীন আহমেদ। তিনি বিকাল চারটা পযর্ন্ত নিজের অফিস করেন। এরপর চলে যান একটি বিশেষ দলের বিশেষ কাযার্লয়ে। মঙ্গলবার জাতীয় প্রেসক্লাবে ‘৯০-এর ডাকসু ও সবর্দলীয় ছাত্র ঐক্য নেতাদের আয়োজিত এক সমাবেশে তিনি এ অভিযোগ করেন। ফখরুল বলেন, সচিব যে কাযার্লয়ে যান সেখানে দলটির নিবার্চনের পরিকল্পনা তৈরি হয়, যার প্রধান হলেন এইচ টি ইমাম। এইচ টি ইমাম যেকোনো নিবার্চনের আগে নিবার্চন কমিশনে যান। সেখানে গিয়ে কথা বলেন। তিনি নিজেও স্বীকার করেছেন যে ২০১৪ সালের নিবার্চন তিনি নিজেই করিয়েছেন সরকারি কমর্কতাের্দর দিয়ে। সমাবেশে সরকারের উদ্দেশে বিএনপির মহাসচিব মিজার্ ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ‘একদিনের জন্য ক্ষমতা ছেড়ে দিয়ে দেখুন, দেশের কী অবস্থা হয়। এই সরকার এমন জায়গায় গেছে, যেখান থেকে ফিরতে পারবে না। সরকার যেখানে গেছে, সেখানে জনগণের কোনো স্থান নেই। সরকার সম্পূণর্ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে।’ তিনি বলেন, ‘সরকার রাষ্ট্রযন্ত্রকে ব্যবহার করে বন্দুক-পিস্তলের ওপর নিভর্র করে হুকুমের বলে রাষ্ট্র পরিচালনা করছে। একটি দিনের জন্য ক্ষমতা ছেড়ে দেন না, ক্ষমতা ছেড়ে দিয়ে দেখুন কী অবস্থা হয় দেশের।’ বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার পরিবেশ নেই অভিযোগ করে মিজার্ ফখরুল বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়গুলো ছাত্রলীগ দখল করে নিয়েছে। এখন স্বাস্থ্যসেবা বলতে কিছু নেই। স্বাস্থ্যসেবার ক্ষেত্রে নৈরাজ্য চলছে-চিকিৎসকরা হাসপাতাল বন্ধ করে দিচ্ছেন, রোগীদের বের করে দিচ্ছেন। মিজার্ ফখরুল বলেন, সরকার খালেদা জিয়াকে বেশি দিন জেলে রাখতে পারবে না। ইতিহাস তা বলে না। ইতিহাস বলে, এ দেশের মানুষ সবসময় নিপীড়িত ও নিযাির্তত মানুষের পক্ষে। ইতিহাস বলে, এ দেশে সবসময় যাকে কারারুদ্ধ করে নিযার্তন করা হয়, তার পক্ষে মানুষ দঁাড়িয়েছে। তিনি আরও বলেন, খালেদা জিয়াকে এ দেশের মানুষ কারাগার থেকে মুক্ত করে আনবে। কারাগার ভেঙেই তঁাকে নিয়ে আসবে। মানুষকে একত্রিত করতে হবে। সময় এবং সুযোগের অপেক্ষা করতে হবে। বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আমানউল্লাহ আমান, ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, যুগ্ম-মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন প্রমুখ সমাবেশে বক্তব্য দেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে