logo
বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ১২ নভেম্বর ২০১৯, ০০:০০  

চবিতে দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীকে ছাত্রলীগ কর্মীর মারধর

চবিতে দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীকে ছাত্রলীগ কর্মীর মারধর
হাসপাতালে চিকিৎসাধীন মো. শুক্কুর আলম

চবি প্রতিনিধি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) এক দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীকে মারধরের ঘটনা ঘটেছে। প্রতিবাদে বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া অন্য দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের সোহরাওয়ার্দী হল মোড়ে অবস্থান করে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে। অভিযুক্ত ব্যক্তি ছাত্রলীগকর্মী বলে জানা গেছে। গত রোববার (১০ নভেম্বর) রাতে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সোহরাওয়ার্দী হল মোড়ে এ ঘটনা ঘটে। উক্ত ঘটনার প্রেক্ষিতে সোমবার (১১ নভেম্বর) অভিযুক্তকে শোকজ (কারণ দর্শানো) নোটিশ দিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। নোটিশে বলা হয়েছে, একজন দৃষ্টিপ্রতিবন্ধীকে বিনা অপরাধে হাত ও লাঠি দিয়ে মাথায় ও চোখে গুরুতর আঘাত করার ফলে সে বিশ্ববিদ্যালয়ে চিকিৎসা কেন্দ্রে চিকিৎসা নিতে বাধ্য হয়। তিন দিনের মধ্যে অফিস চলাকালীন সময়ে অভিযোগ সম্পর্কে বক্তব্য শুনানিসহ লিখিতভাবে জবাব প্রদানের জন্য নির্দেশ দেওয়া হয় অভিযুক্তকে। অন্যথায় আত্মপক্ষ সমর্থনে কোনো বক্তব্য নাই বিবেচনায় তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, গত রোববার রাত আটটার দিকে ভুক্তভোগী মো. শুক্কুর আলম দোকানে খাবার কিনতে গেলে তার হাতের কনুই অভিযুক্ত মোরশেদুল আলম রিফাতের গায়ে লাগলে রিফাত তাকে সোজা হয়ে দাঁড়াতে বলেন। এ সময়ে শুক্কুর বলেন, 'কীভাবে সোজা হয়ে দাঁড়াতে হয়ে আমি তো জানি না।' প্রত্যুত্তরে রিফাত বলেন, 'সিনিয়রদের সাথে বেয়াদবের মতো কথা বলিস এবং পেছন থেকে লাথি ও গালি দেয়। শুক্কুর বিষয়টা প্রক্টর স্যারকে জানানোর কথা বললে রিফাত তাকে কিল ঘুষি মারতে থাকে।' কিছুক্ষণ পর তার ব্যথা না কমলে তার সহপাঠীরা তাকে অ্যাম্বুলেন্স করে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টারে প্রেরণ করে। পরবর্তীতে, অন্য দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীরা একত্রিত হয়ে হামলাকারীর বিচারের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের সোহরাওয়ার্দী হল মোড়ে অবস্থান নেন। জানা যায়, আহত শিক্ষার্থী মো. শুক্কুর আলম বিশ্ববিদ্যালয়ের দর্শন বিভাগের ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের ছাত্র। আঘাতকারী শিক্ষার্থী মোরশেদুল আলম রিফাত ব্যবস্থাপনা বিভাগের ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের ছাত্র। সে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের বিজয় গ্রম্নপের কর্মী। এ সময় আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের মধ্যে গোলাম কিবরিয়া বলেন, 'পূর্বে আমাদের ওপর হাত দ্বারা আঘাত করেছে, আজ লাঠি দ্বারা আঘাত করেছে, আগামীতে অস্ত্র দ্বারা আঘাত করবে, আমরা হামলার তাৎক্ষণিক বিচার চাচ্ছি। তাকে গ্রেপ্তার করতে হবে। নইলে আমরা ঘরে ফিরে যাব না।' এ বিষয়ে আরেক দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী মাজেদুল হক মুন্না বলেন, 'যারা দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদেরকে হেয়প্রতিপন্ন করে এবং ভাবে যে ওরা শুধু আমাদের করুণার পাত্র তাদের ধারণা সম্পূর্ণ ভুল। তোমরা যেভাবে এখানে এসেছ আমরা সেভাবে মেধার লড়াই করেই এসেছি। কাজেই আমরা আমাদের অধিকার ফিরে পেতে চাই।' এ সময় তারা 'আমাদের নিরাপত্তা চাই', 'আবাসনের নিরাপত্তা চাই', 'চলাচলের নিরাপত্তা চাই'সহ বিভিন্ন স্স্নোগান দেয়।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে