logo
বৃহস্পতিবার ২১ মার্চ, ২০১৯, ৭ চৈত্র ১৪২৫

  যাযাদি ডেস্ক   ১৩ জানুয়ারি ২০১৯, ০০:০০  

দেশে উচ্চশিক্ষার পাঠ নিচ্ছেন ১৯ লাখ শিক্ষাথীর্

বাংলাদেশে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে ৪৯টি। বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সংখ্যা ১০৪টি। মোট ১৯ লাখ শিক্ষাথীর্ এখন উচ্চশিক্ষার পাঠ নিচ্ছেন।

চিটাগং ইন্ডিপেন্ডেন্ট ইউনিভাসিির্টর (সিআইইউ) ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবদুল মান্নান এ তথ্য দেন।

শনিবার সকালে নগরের জামালখান সিআইইউ ক্যাম্পাসের অডিটোরিয়ামে ২০১৯ সালের স্প্রিং সেমিস্টারে ভতির্ হওয়া শিক্ষাথীের্দর জন্য এই ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠান আয়োজন করে কতৃর্পক্ষ।

অধ্যাপক আবদুল মান্নান বলেন, চট্টগ্রামে গুণগত শিক্ষা ছড়িয়ে দেয়ার মতো বিশ্ববিদ্যালয়ের সংখ্যা হাতেগোনা। যারা সিআইইউতে ভতির্ হয়েছে তারা ঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এখানকার প্রতিটি শিক্ষাথীর্ দেশকে আন্তজাির্তক পযাের্য় তুলে ধরবেÑএমনটাই চাওয়া আমার।

ওরিয়েন্টেশন অনুষ্ঠানে নবীন শিক্ষাথীর্ ছাড়াও তাদের অভিভাবক, বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক ও ঊধ্বর্তন কমর্কতার্রা উপস্থিত ছিলেন।

ইউজিসি চেয়ারম্যান তরুণদের দেশ গড়ার চালিকাশক্তি উল্লেখ করে বলেন, দেশের প্রতি ভালোবাসা কিংবা দায়িত্ববোধ বাড়াতে হলে মহান মুক্তিযুদ্ধ থেকে শিক্ষা নিতে হবে।

‘বিশ্ববিদ্যালয়ের চার বছরের শিক্ষা দিয়ে একজন শিক্ষাথীর্ কখনই ভালো চাকরি পাবে না। তাই ক্যারিয়ারের কথা চিন্তা করলে অবশ্যই নিজেকে আলাদাভাবে প্রস্তুত করতে হবে। জ্ঞানের দুয়ার খুলে দিয়ে ডানা মেলে উড়তে হবে শেখার রাজ্যে।’

সিআইইউ’র শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ দেখে সন্তোষ প্রকাশ করে অধ্যাপক আবদুল মান্নান বলেন, এই বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক কাযর্ক্রম অত্যন্ত চমৎকার। প্রশাসনিক শাখাতেও রয়েছে গতিশীলতা। শিক্ষাথীর্রা যাতে মাদক ও জঙ্গিবাদ থেকে দূরে থাকে, সেদিকে নজর দিতে উপাচাযের্ক অনুরোধ জানান তিনি।

অনুষ্ঠানে শিক্ষাথীের্দর পড়ালেখার পাশাপাশি তথ্য-বিজ্ঞান-প্রযুক্তি ও কম্পিউটার জ্ঞানে সমৃদ্ধ হওয়ার পরামশর্ দেন ইউজিসি চেয়ারম্যান।

সভাপতির বক্তব্যে সিআইইউর উপাচাযর্ অধ্যাপক ড. মাহফুজুল হক চৌধুরী বলেন, উচ্চশিক্ষায় একটি আদশর্ বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে নানামুখী পরিকল্পনা নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান।

অত্যাধুনিক ল্যাব স্থাপন, বইয়ে ঠাসা লাইব্রেরি, মনোরম পরিবেশসহ একাধিক সুযোগসুবিধা নিশ্চিত করার মাধ্যমে নতুন ধারার শিক্ষা ছড়িয়ে দিতে সিআইইউ বদ্ধপরিকর বলে বক্তব্যে উল্লেখ করেন তিনি।

ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার আনজুমান বানু লিমার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন স্কুল অব সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ডিন অধ্যাপক ড. মো. রেজাউল হক খান, স্কুল অব লিবারেল আটর্স অ্যান্ড সোশ্যাল সায়েন্সের ডিন অধ্যাপক কাজী মোস্তাইন বিল্লাহ, স্কুল অব ল’র উপদেষ্টা অধ্যাপক মো. জাকির হোসেন, সিআইইউর বিজনেস স্কুলের ডিন ড. মোহাম্মদ নাঈম আব্দুল্লাহ, প্রক্টর অধ্যাপক ড. এম এম নুরুল আবসার নাহিদ প্রমুখ।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে