logo
বুধবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৪ ফাল্গুন ১৪২৬

  যাযাদি রিপোর্ট   ১৯ জানুয়ারি ২০২০, ০০:০০  

অপকৌশল গণজোয়ারে ভেসে যাবে: ইশরাক

অপকৌশল গণজোয়ারে ভেসে যাবে: ইশরাক
ঢাকা দক্ষিণ সিটি নির্বাচনে বিএনপির মেয়রপ্রার্থী ইশরাক হোসেন শনিবার কোতোয়ালি থানার বাংলাবাজার চৌরাস্তা মোড়ে গণসংযোগ করেন -ফোকাস বাংলা
ভোটারেরা দলবেঁধে ভোটকেন্দ্রে গেলে সরকারের সব অপকৌশল গণজোয়ারে ভেসে যাবে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটির মেয়র পদে বিএনপির প্রার্থী ইশরাক হোসেন।

শনিবার কোতোয়ালি থানাধীন বাংলাবাজার চৌরাস্তা মোড় থেকে গণসংযোগ শুরুর আগে সংক্ষিপ্ত পথসভায় ইশরাক হোসেন এ মন্তব্য করেন।

অবিভক্ত ঢাকা সিটি করপোরেশনের প্রয়াত মেয়র সাদেক হোসেন খোকার ছেলে ইশরাক হোসেন বলেন, 'আমি আপনাদের ভোটে নির্বাচিত হলে জনগণের গণতান্ত্রিক অধিকার ফিরিয়ে দেওয়াসহ ঢাকাকে ঢেলে সাজানোর উদ্যোগ নেব।

পরে দুপুর পৌনে ১টার দিকে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশে কলেজিয়েট স্কুলের সামনে থেকে কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেন তিনি। সেখানে তিনি বলেন, 'রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে এতটাই ময়লা-আবর্জনার স্তূপ যেখান থেকে মশা, পোকা-মাকড়ের বিস্তার ঘটছে। এ ময়লা থেকে নানা ধরনের রোগজীবাণু তৈরি হচ্ছে। আমি ইশরাক হোসেন বলতে চাই, আমি যদি আপনাদের ভোটে নির্বাচিত হই, তাহলে একদিকে আপনাদের অধিকারের আন্দোলন চালিয়ে যাব, অন্যদিকে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার আন্দোলনও চালাব। আমাদের দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির মাধ্যমে আমাদের কাজ সম্পন্ন হবে।'

ইশরাক হোসেন বলেন, 'প্রিয় ঢাকা শহরকে একটি বাসযোগ্য নগরী হিসেবে গড়ে তুলব। এখানে আমরা পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখব। নিয়মিত রাস্তাঘাট পরিষ্কার করব। নিরাপদ পানির ব্যবস্থা করব। এজন্য নিরাপদ সঞ্চালন লাইনেরও ব্যবস্থা করব।'

ইশরাক আরও বলেন, 'আমাকে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া, ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান এবং বিএনপির সকল নেতৃবৃন্দ সর্বসম্মতিক্রমে মেয়র পদে মনোনয়ন দিয়েছেন। তারা আমাকে একটি গুরুদায়িত্ব দিয়েছেন। জনগণের অধিকার জনগণকে ফিরিয়ে দেয়ার, মানুষের ভোটের অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার এবং গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠার যে আন্দোলন-সংগ্রামে আমরা রয়েছি আমি সেখানে যেন বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখতে পারি।'

বিএনপির এ মেয়রপ্রার্থী বলেন, 'আপনারা জানেন, বিশ্বের দূষিত নগরীর যতগুলো সূচক রয়েছে সবগুলোতেই ঢাকা এক নম্বরে। সব নেগেটিভ বিষয়গুলোতে আমরা এক নম্বরে রয়েছি। বায়ু দূষণে আমরা এক নম্বরে, অগোছালো নগর হিসেবে আমরা এক নম্বরে এবং নারী ও শিশুদের অনিরাপদ শহর হিসেবে আমরা এক নম্বরে আছি। এই যে ভয়াবহ একটা পরিস্থিতির মধ্যে আমরা বসবাস করছি, এগুলো নিরসনে আমরা কার্যকর কোনো পদক্ষেপ দেখতে পাই না। কারণ এ সরকার যেহেতু সরাসরি জনগণের ভোটে নির্বাচিত হয়ে আসেনি তাই তাদের জনগণের প্রতি, এ শহরের প্রতি কোনো দায়বদ্ধতা নেই। অতীতে যারা মেয়র পদে দায়িত্ব পালন করেছেন তাদের বেলায়ও একই কথা প্রযোজ্য।'

নির্বাচনী প্রচারণায় ইশরাকের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সভাপতি হাবিব-উন নবী খান সোহেল, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, বিএনপি নেতা মীর সরাফত আলী সপু, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সাধারণ সম্পাদক কাজী আবুল বাশার, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু প্রমুখ।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে