logo
  • Thu, 15 Nov, 2018

  ক্রীড়া ডেস্ক   ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০  

ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন কলিংউড

ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন কলিংউড
পল কলিংউড
সাত বছর আগেই আন্তজাির্তক ক্রিকেটকে বিদায় বলেছেন। এবার চিরতরে ব্যাট-প্যাড তুলে রাখার ঘোষণা দিলেন ইংল্যান্ডের সাবেক অধিনায়ক পল কলিংউড।

মনে আছে ২০১০ টি২০ বিশ্বকাপের কথা? কলিংউডের নেতৃত্বে সেবার ট্রফিতে চুমু খাওয়ার সৌভাগ্য হয়েছিল ইংল্যান্ডের। বৈশ্বিক আসরে এখন অবধি ওটাই ক্রিকেটের জনকদের প্রথম এবং একমাত্র সাফল্য। এই কারণেই কলিংউডের নামটি চির ভাস্বর হয়ে থাকবে। ২০০১ সালে ইংল্যান্ডের জাতীয় দলে অভিষেক হয় কলিংউডের। এরপর দেশের হয়ে সব ফরমেট মিলিয়ে প্রায় ৯০০টি আন্তজাির্তক ম্যাচ খেলেছেন তিনি। ইংল্যান্ডের টেস্ট দলের নিয়মিত সদস্য ছিলেন এই অলরাউন্ডার। জিতেছেন তিনটি অ্যাশেজ সিরিজ। দলকে ওয়ানডে আর টি২০তে নেতৃত্বও দিয়েছেন। গত বছরের সেপ্টেম্বরে পাকিস্তানের বিপক্ষে বিশ্ব একাদশের হয়ে টি২০ খেলেন কলিংউড। তবে আন্তজাির্তক ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়েছেন সেই ২০১১ সালে।

এরপর থেকে ঘরোয়া ক্রিকেটে নিজ শহরের ক্লাব ডারহামের প্রতিনিধিত্ব করে যাচ্ছেন কলিংউড। ৩০৪টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচে ১৬ হাজার ৮৯১ রানের সঙ্গে ১৬৪ উইকেট কলিংউডের নামের পাশে। ডারহামের হয়ে ২০০৮, ২০০৯ আর ২০১৩ সালে কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপও জিতেছেন। বিদায়ের সিদ্ধান্ত নিয়ে তিনি বলেন, ‘অনেক ভাবনাচিন্তার পর, আমি এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। সিদ্ধান্ত নিয়েছি এই মৌসুমের পরই সব ফরমেটের ক্রিকেট থেকে অবসর নেব।’

১৯৯৬ সালে নিজ শহরের কাউন্টি ক্লাব ডারহামে অভিষেক হয়েছিল কলিংউডের। তাকে ডারহামের ‘সবর্কালের সেরা স্কোরার ও সবচেয়ে উজ্জ্বল খেলোয়াড়’ আখ্যা দেয়া হয়। এই ক্লাবের হয়েই কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপের মিডলসেক্সের বিপক্ষে শেষবার ব্যাট হাতে নেবেন ৪২ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার। ভবিষ্যতের নতুন অধ্যায় নিয়ে বেশ রোমাঞ্চিত তিনি, ‘আমার ভবিষ্যৎ কী সেটা নিয়ে আমি রোমাঞ্চিত। নতুন চ্যালেঞ্জের জন্য দারুণভাবে মুখিয়ে আছি আমি।’
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
অাইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে