logo
মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ২০ জুন ২০১৯, ০০:০০  

বাংলাদেশকে পরীক্ষায় ফেলবে স্টার্কের ইয়র্কার

ক্রীড়া ডেস্ক

বিশ্বের অন্য যেকোনো বোলারের চেয়ে স্ট্যাম্প আক্রমণ করে বেশি বল করেন মিচেল স্টার্ক। বৃহস্পতিবার তার গতিময় বোলিংয়ের বিপক্ষে খেলবে বাংলাদেশ। ম্যাচে স্টার্কের ইয়র্কার টাইগারদের পরীক্ষায় ফেলবে বলে মনে করছে অস্ট্রেলিয়ানরা। বাংলাদেশ কেনো পরীক্ষার সম্মুখীন হবে হরেক পরিসংখ্যান দিয়ে সেটা তুলে ধরেছে অস্ট্রেলিয়ার দৈনিক পত্রিকা 'দ্য অস্ট্রেলিয়ান'।

২০০০-০৪ পর্যন্ত পেস বোলিংয়ের বিপক্ষে উইকেটপ্রতি বাংলাদেশের গড় ছিল ১৬.৯ শতাংশ। গত পাঁচ বছরে সেটা অনেক বেড়েছে। ২০১৫ থেকে এপর্যন্ত পেস বোলিংয়ের বিপক্ষে উইকেটপ্রতি বাংলাদেশের রান ৩২.২। অর্থাৎ দ্বিগুণ হয়েছে। তবে 'দ্য অস্ট্রেলিয়ান' বলছে, রান করার হার দ্বিগুণ হলেও স্টার্কের বোলিংয়ের বিপক্ষে ভুগতে হতে পারে বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের।

চলতি বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত ১৩ উইকেট নিয়েছেন স্টার্ক। ওয়ানডে ইতিহাসে তার স্ট্রাইকরেট কেবল স্বদেশি রায়ান হ্যারিসের চেয়ে চার কম। ওয়ানডেতে স্টার্কের স্ট্রাইকরেট যেখানে ২৫.৫, সেখানে হ্যারিসের ২৩.৪।

স্ট্রাইকরেটে স্টার্ক এগিয়ে আছেন অজন্তা মেন্ডিস (২৭.৩), ব্রেট লি (২৯.৪), ট্রেন্ট বোল্ট (২৯.৭), সাকলায়েন মুশতাক (৩০.৪) ও ওয়াকার ইউনুসের (৩০.৫) চেয়ে।

স্টার্কের সবচেয়ে বড় অস্ত্র ফুল-লেন্থ ডেলিভারি। ক্রিকেটের সবকিছুর হিসাব রাখা সর্বোচ্চ নতুন প্রযুক্তি ক্রিক-ভিজ ডাটাবেজে দেখা যাচ্ছে, বিশ্বের অন্য কোনো বোলারই স্টার্কের সমান বা বেশি ফুল-লেন্থ ডেলিভারি দেননি।

২০১০ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক স্টার্কের। তারও চার বছর আগে থেকে, অর্থাৎ ২০০৬ থেকে এপর্যন্ত যত বল করেছেন তিনি, তার ৪৯ শতাংশই ফুল-লেন্থ ডেলিভারি করেছেন। যে বলগুলো স্টাম্প থেকে ৬ মিটারের মধ্য পড়েছে।

'অতীতের চেয়ে আমার ইয়র্কার বেশি বেড়ে গেছে। সুতরাং ব্যাটসম্যানরাও জানে, সেটা আসছে। যতদিন আমি এটি কার্যকর করতে থাকব, আশা করি এটা আমার জন্য আরও ভালো হবে' বিশ্বকাপ চলাকালীনই এক সাক্ষাৎকারে এভাবে বলেছেন স্টার্ক।

স্টার্কেল ফুল-লেন্থ আক্রমণাত্মক ডেলিভারির হার লাসিথ মালিঙ্গার (৪৩%), শন টেইট (৪২%), ডোয়াইন ব্রাভো (৪১%), নাথান ব্রাকেন (৩৯%) ও ডেভিড উইলির (৩৬%) চেয়ে অনেক বেশি।

চলতি বিশ্বকাপে শ্রীলংকার বিপক্ষে শেষ ম্যাচেও চার উইকেটের দুটি নিয়েছেন ফুল-লেন্থ ডেলিভারিতে। ওই ম্যাচের পর স্টার্কের সতীর্থ এবং আরেক পেসার জেসন বেহরেনডোর্ফ বলেছেন, 'তিনি আমাদের শিখিয়েছেন ১৪৫-১৫০ কিলোমিটার বেগে বোলিং কতটা গুরুত্বপূর্ণ। তার পরিকল্পনা দুর্দান্ত এবং তিনি স্টাম্পে অনেক হিট করেন।'

বাংলাদেশের বিপক্ষে এপর্যন্ত একটি ওয়ানডে খেলেছেন স্টার্ক, সেটাও ইংল্যান্ডেই। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির সেই ম্যাচে ৮.৩ ওভার বল করে ২৯ রান দিয়ে ওপেনার তামিম ইকবালসহ চার উইকেট নিয়েছিলেন।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে