logo
বুধবার ১৭ জুলাই, ২০১৯, ২ শ্রাবণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ২০ জুন ২০১৯, ০০:০০  

সংবাদ সংক্ষেপ

রেস্টুরেন্টে আফগান ক্রিকেটারের হাতাহাতি!

ক্রীড়া ডেস্ক

মাঠের লড়াইয়ে সময়টা মোটেই ভালো যাচ্ছে না আফগানিস্তানের। চলতি বিশ্বকাপে পাঁচ ম্যাচ খেলে জয়ের দেখা না পেয়ে পয়েন্ট তালিকার তলানিতে এখন তারা। সবশেষ মঙ্গলবার তারা ১৫০ রানে ধরাশায়ী হয়েছে হট ফেভারিট ও স্বাগতিক ইংল্যান্ডের কাছে। তবে মাঠের বাইরেও বোধ হয় সময়টা ভালো যাচ্ছে না আফগানদের। ইংলিশদের বিপক্ষে মাঠে নামার আগের দিনের এক অঘটন তো তাই বলছে!

ম্যানচেস্টারের এক রেস্টুরেন্টে তুলকালাম বাধিয়ে দিয়ে ছিলেন কয়েকজন আফগান ক্রিকেটার! এ ঘটনার প্রভাবই কী পড়েছিল ইংলিশদের বিপক্ষে মাঠের লড়াইয়ে? প্রশ্নটা এখন ক্রিকেট অনুরাগীদের।

ক্রিকেটারদের পেয়ে রেস্টুরেন্টে আগত ক্রেতারা নাকি ছবি তুলতে থাকে। কিন্তু এতে সায় ছিল না আফগানিস্তানের ক্রিকেটারদের। এতেই বেধে যায় হট্টগোল। এমনকি এক ক্রিকেটার এক ক্রেতার সঙ্গে হাতাহাতিতেও জড়িয়ে পড়ে ছিলেন।

সোমবার ঘটনার পরপর ম্যানচেস্টারের আকবর রেস্টুরেন্টে হাজির হয় পুলিশ। তবে কেউ আহত বা গ্রেপ্তার হননি। ক্রিকেটারদের নাম এবং তারা সংখ্যায় কতজন ছিলেন তা জানা যায়নি। বৃহত্তর ম্যানচেস্টার পুলিশ শুধু জানিয়েছে, 'ঘটনা নিয়ে তারা তদন্ত চালিয়ে যাচ্ছে।'

আফগান অধিনায়ক গুলবাদিন নাইব এ নিয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি। শুধু জানিয়ে দেন ঘটনার সময় হোটেলে তিনি ছিলেন না। অভিযোগ অস্বীকার করেন টিম ম্যানেজার নওয়াব সায়েন, 'এমন কিছু ঘটেনি। ক্রিকেটাররা শুধু ডিনার করতে বেরিয়ে ছিল। কোনো ঝগড়া-বিবাদ হয়নি। এসব দাবি ভিত্তিহীন।'

জিজ্ঞাসাবাদ শেষে মুক্ত পস্নাতিনি

ক্রীড়া ডেস্ক

জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বুধবার সকালে পুলিশি হেফাজত থেকে ছাড়া পেয়েছেন মিশেল পস্নাতিনি। বেশ কয়েকটি মেজর ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজক স্বত্ব প্রদানে দুর্নীতির অভিযোগে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে ফরাসি পুলিশ। ২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপ. ২০২২ কাতার বিশ্বকাপ, ২০১৬ ফ্রান্স ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপ, উয়েফা, ফিফা ও প্যারিস সেন্ট জার্মেই (পিএসজি) নিয়েও পস্নাতিনিকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে পুলিশ।

২০২২ বিশ্বকাপের আয়োজক স্বত্ব প্রদানে দুর্নীতির অভিযোগের তদন্তের অংশ হিসেবে মঙ্গলবার প্যারিসের পশ্চিম শহরতলি থেকে আটক হন পস্নাতিনি। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য জুডিশিয়াল পুলিশের দুর্নীতি দমন অফিসে নিয়ে যাওয়া হয় উয়েফার সাবেক এ প্রেসিডেন্টকে।

ফরাসি ফুটবল কিংবদন্তি পস্নাতিনির বিরুদ্ধে অভিযোগ, বিশাল অঙ্কের অর্থের বিনিময়ে বিশ্বকাপের আয়োজক স্বত্ব পেতে কাতারকে সহায়তা করেন। কাতারের নাম চূড়ান্ত করার আগে পস্নাতিনি গোপনে সভা করেন সাবেক কাতার ফুটবল প্রশাসক ও তৎকালীন এএফসির প্রেসিডেন্ট মোহম্মদ বিন হাম্মামের সঙ্গে। সে কথা স্বীকারও করেন পস্নাতিনি। ফিফার সাবেক ভাইস-প্রেসিডেন্ট জ্যাক ওয়ার্নার দাবি করেন-ঘুষের বিনিময়ে কাতারকে বিশ্বকাপ আয়োজন করার সুযোগ করে দিয়েছেন পস্নাতিনি।

ফুটবলে দুর্নীতির কারণে ছয় বছরের জন্য নিষিদ্ধ হয়ে ২০১৫ সালে উয়েফার প্রেসিডেন্টের পদ থেকে সরে দাঁড়ান ৬৩ বছরের সাবেক এ ফুটবল কর্মকর্তা। পরে কোর্ট অব আর্বিট্রেশন ফর স্পোর্টে আপিল করলে নিষেধাজ্ঞা শাস্তি চার বছরে নেমে আসে। এ বছরের মার্চেই শেষ হয়েছে পস্নাতিনির সেই শাস্তির মেয়াদ।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে