logo
বৃহস্পতিবার, ২১ নভেম্বর ২০১৯, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

  মো. ফখরুল ইসলাম   ০৫ জুলাই ২০১৯, ০০:০০  

লর্ডসে ভাগ্য গড়ে দিতে পারেন যারা

বাংলাদেশ-পাকিস্তান দুই দলই বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেছে। তাই আজ ক্রিকেটের তীর্থভূমি লর্ডসে ম্যাচটি শুধুই আনুষ্ঠানিকতার। তবে বাংলাদেশের জন্য এটি মর্যাদার লড়াইও বটে। সাম্প্রতিক সময়ে পাকিস্তানের ওপর বাংলাদেশের ছড়ি ঘোরানো পারফরমেন্স সেই ইঙ্গিতই দিচ্ছে। আসুন জেনে নেয়া যাক আজ লর্ডসে ভাগ্য গড়ে দিতে পারেন কারা।

সুপারম্যান সাকিব

এক বিশ্বকাপে পাঁচ শ'র বেশি রান ও দশ উইকেটের রেকর্ডটি ক্রিকেটের ইতিহাসে একজন খেলোয়াড়েরই আছে। আর তিনিই হলেন আমাদের সাকিব আল হাসান। ব্যাট-বলের অনবদ্য পারফরম্যান্সে বিশ্বকাপটাকে নিজের করে নিয়েছেন এই বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। পাঁচ ম্যাচে পঞ্চাশোর্ধ্ব ইনিংস এবং পরপর দুই ম্যাচে সেঞ্চুরি সবকিছুই যেন নতুন করে সাকিবের সক্ষমতারই নজির। এখন পর্যন্ত ব্যাট হাতে দ্বিতীয় সেরা। বল হাতেও তুলে নিয়েছেন ১১ উইকেট। অভিজ্ঞতা ও হালের পারফরম্যান্স- দুই বিবেচনাতেই সাকিব সন্দেহাতীতভাবে বর্তমান ক্রিকেটের অন্যতম শীর্ষ তারকা।

গর্জে ওঠা হারিস

বিশ্বকাপ স্কোয়াডে সুযোগ পেলেও প্রথম পাঁচ ম্যাচে একাদশের বাইরে ছিলেন হারিস সোহেল। তবে তার ভাগ্যের শিকে ছিঁড়েছে শোয়েব মালিকের আসরজুড়ে ব্যর্থতা। পাঁচ ম্যাচ পর পাকিস্তানের সামনে যখন নতুন করে শেষ চারের সম্ভাবনা জেগে ওঠে তখনি দলে ডাক পড়ে হারিস সোহেলের। এসেই বাজিমাত। এর থেকে ভালো প্রত্যাবর্তন হয় না কি! দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে বাঁচা-মরার ম্যাচে শুরুতে ব্যাটিংয়ে নেমে হারিস সোহেলের ব্যাটে ভর করেই লড়াকু পুঁজি পায় পাকিস্তান। দুর্দান্ত ছন্দে থাকা হারিস এ ম্যাচেও জ্বলে উঠতে চাইবেন।

ফিজের ফেরা

আসরজুড়ে বাংলাদেশের প্রধান বোলিং ভরসা মোস্তাফিজুর রহমানের কাছ থেকে প্রত্যাশা মতো পারফরম্যান্স দেখা যায়নি। তবে গত ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে বল হাতে যেভাবে ছড়ি ঘুরিয়েছেন তাতে বলাই যায়, হয়তো তার সেরা ফর্মটা ফিরে পাওয়ার পথে আছেন। গত বিশ্বকাপের পরপর দেশের ক্রিকেটকে উদ্ভাসিত করে, ক্রিকেট বিশ্বকে বিস্ময় উপহার দিয়ে আবির্ভাব তার। রেকর্ড গড়া সাফল্যে রাঙিয়েছেন শুরুর সময়টা, চোট-অস্ত্রোপচারের বাস্তবতার ধাক্কাও সয়েছেন। পিছু না ছাড়া চোটের ধাক্কায় শুরুর বিধ্বংসী চেহারাটা এখন দেখা যায় না প্রায়ই। আজকের ম্যাচে বড় ভূমিকা থাকবে তার পারফরম্যান্সের ওপর।

আমিরের ইয়র্কার

দশ বছর আগে সতেরো বছরের মোহাম্মদ আমির আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রেখেই সমর্থকদের মধ্যে যে আশা জাগিয়েছিলেন, এখনো তা পূরণ করে চলেছেন। এই বিশ্বকাপে তিনি নতুন করে জ্বলে উঠেছেন। ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের জন্য পাকিস্তানের প্রাথমিক ১৫ সদস্যের স্কোয়াডে প্রথমে সুযোগ না পাওয়া মোহাম্মদ আমিরই এখন সরফরাজদের মূল অস্ত্র। তাকে ঘিরেই স্বপ্ন দেখছে সবাই। স্বপ্ন দেখবে নাইবা কেন? একের পর এক বোলাররা যখন রানের বন্যা বইয়ে দিচ্ছেন তখন রানের জোয়ারে বাঁধ দিয়েছেন এই আমিরই। এখন পর্যন্ত টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ উইকেট শিকারিদের তালিকায় আছেন তিনি।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে