logo
রোববার ২১ জুলাই, ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ১৩ জুলাই ২০১৯, ০০:০০  

সংবাদ সংক্ষেপ

চূড়ান্ত হলো ফাইনালের আম্পায়ার

ক্রীড়া ডেস্ক

পর্দা নামতে যাচ্ছে দ্বাদশ বিশ্বকাপ আসরের। আগামী রোববার লর্ডসে হবে শিরোপার লড়াই, যেখানে প্রথমবার চ্যাম্পিয়ন হওয়ার লক্ষ্যে মুখোমুখি হবে নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ড। আর এই শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচের জন্য শুক্রবার চূড়ান্ত হলো আম্পায়ারদের নাম। ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার দ্বিতীয় সেমিফাইনালে দায়িত্ব পালন করা দুই অন-ফিল্ড আম্পায়ারই থাকবেন লর্ডসে। শ্রীলংকার কুমার ধর্মসেনা ও দক্ষিণ আফ্রিকার মারাইস এরাসমুস সামলাবেন মাঠ।

অস্ট্রেলিয়ার রড টাকার বসবেন থার্ড আম্পায়ারের চেয়ারে। চতুর্থ আম্পায়ারের দায়িত্বে থাকবেন পাকিস্তানের আলিম দার। দ্বিতীয় সেমিফাইনালের মতো শিরোপা নির্ধারণী লড়াইয়েরও ম্যাচ রেফারি দায়িত্ব পালন করবেন শ্রীলংকার রঞ্জন মাদুগালে। ফাইনালে চূড়ান্ত হওয়া অফিসিয়ালদের সবাই দুই সেমিফাইনালের একটির দায়িত্বে ছিলেন।

জেসন রয়কে জরিমানা

ক্রীড়া ডেস্ক

ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার দ্বিতীয় সেমিফাইনালে আইসিসির আচরণবিধি ভাঙায় জরিমানা গুণতে হচ্ছে জেসন রয়কে। ম্যাচ ফির ৩০ শতাংশ জরিমানা দিতে হবে ইংলিশ এই ওপেনারকে। আন্তর্জাতিক ম্যাচে আম্পায়ারের সিদ্ধান্তে দ্বিমত পোষণ করায় আইসিসির আচরণবিধির ২.৮ অনুচ্ছেদ ভেঙেছেন জেসন রয়। ৩০ শতাংশ জরিমানার পাশাপাশি তার ডিসিপিস্ননারি রেকর্ডে দুটি ডিমেরিট পয়েন্ট যুক্ত হচ্ছে।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৮ উইকেটের দাপুটে জয়ে জনি বেয়ারস্টোর সঙ্গে ১২৪ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়েন জেসন।

এরপর জো রুটের সঙ্গে ২৩ রানের জুটি গড়ে বিদায় নেন তিনি। ১৯তম ওভারে অস্ট্রেলিয়ান পেসার প্যাট কামিন্সের বলে পেছনে অ্যালেক্স ক্যারির হাতে ক্যাচ দিয়ে আউট হয়ে যান। রিভিউ না থাকায় আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত পাল্টাতে পারেননি ৮৫ রান করা জেসন। তবে মারাইস এরাসমুসের সঙ্গে তর্ক করতে দেখা যায় তাকে। পরে অবশ্য দোষ স্বীকার করেছেন জেসন এবং ম্যাচ রেফারি রঞ্জন মাদুগালের আরোপিত শাস্তিও মেনে নিয়েছেন। তাতে শুনানির আর প্রয়োজন হয়নি।

নিজের উন্নতিতে খুশি জেসুস

ক্রীড়া ডেস্ক

ব্রাজিলের জন্য দেশের মাটিতে কোপা আমেরিকা জয়টা খুব গুরুত্বপূর্ণ ছিল বলে মনে করেন দলটির ফরোয়ার্ড গ্যাব্রিয়েল জেসুস। আর জাতীয় দলের হয়ে এই চাপের মধ্যে খেলাটা তাকে খেলোয়াড় হিসেবে উন্নতি করতে সাহায্য করবে বলে বিশ্বাস তরুণ এই ফুটবলারের। যদিও এবারের কোপা আমেরিকায় শুরুতে চেনা ছন্দে ছিলেন না জেসুস।

ভুগছিলেন গোল খরায়। তাতে সমালোচনার মুখেও পড়েন তিনি। তবে সেমিফাইনালে আর্জেন্টিনার বিপক্ষে গোল করার পর ফাইনালে আলো ছড়ান ২২ বছর বয়সী এ ফুটবলার।

আফগানিস্তানের নতুন অধিনায়ক রশিদ খান

ক্রীড়া ডেস্ক

বিশ্বকাপের আগে হুট করেই নিয়মিত অধিনায়ক আসগর আফগানকে সরিয়ে বিতর্কের জন্ম দিয়েছিল আফগান ক্রিকেট বোর্ড। বোর্ডের এমন সিদ্ধান্তে সরাসরি সমালোচনা করেছিলেন দলের সিনিয়র খেলোয়াড়রা। এমনও হুমকি দিয়েছিলেন, বিশ্বকাপে না খেলার।

আসগরকে সরিয়ে অধিনায়কের দায়িত্ব দেয়া হয় পেসার গুলবাদীন নাইবকে। তার নেতৃত্বে বিশ্বকাপে খেলতে আসে আফগানিস্তান। তাতে চরম ভরাডুবি হয়েছে দলটির। একটা ম্যাচও জিততে পারেনি তারা।

কয়েকটা ম্যাচে জয়ের অবস্থানে গেলেও শেষ মুহূর্তে হেরে যায় গুলবাদীনের দল। তার নেতৃত্ব নিয়েও প্রশ্ন ওঠে। বিশেষ করে পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটি নিয়ে কম কথা ওঠেনি। উঠেছিল ফিক্সিংয়ের সন্দেহও।

বোর্ড হয়তো এসবে বেঁকে বসেছে গুলবাদীনের ওপর। বিশ্বকাপ শেষ করে দল দেশে যেতে না যেতেই পরিবর্তন করে দিল অধিনায়ক।

গত কয়েক বছর ধরেই রশিদ খান রয়েছেন ফর্মের তুঙ্গে। দলকেও এনে দিয়েছেন সাফল্য। সেসব কথা ভেবে তার কাঁধেই ভার তুলে দিল গোটা দলের।

ওয়ানডে, টেস্ট আর টি২০ সব ফরম্যাটের জন্যই অধিনায়ক করা হয়েছে রশিদ খানকে। তার সহ-অধিনায়ক করা হয়েছে সাবেক অধিনায়ক আসগর আফগানকে।

অ্যাশেজের ঝাঁজ আনলেন রুট

ক্রীড়া ডেস্ক

দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী। অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ড। বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ধ্রম্নপদী লড়াইয়ের প্রত্যাশায় ছিলেন ক্রিকেটপ্রেমীরা। কিন্তু মাঠের লড়াইয়ে অস্ট্রেলিয়াকে খটুজে পাওয়া যায়নি। অ্যারন ফিঞ্চের দলকে ৮ উইকেটের বড় ব্যবধানে হারিয়ে ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছে ইংলিশরা। আর এই দুর্দান্ত জয়ের পর বলার থাকতে পারে অনেককিছুই। কিন্তু স্বাগতিক ব্যাটসম্যান জো রুট সেই বলাটা বিশ্বকাপ ডিঙিয়ে নিয়ে গেলেন আসন্ন অ্যাশেজ পর্যন্ত। ছাইভস্মের সিরিজ নিয়ে কথার লড়াই শুরু করে দিয়েছেন ইংল্যান্ডের টেস্ট অধিনায়ক।

শিরোপার মঞ্চে পা রেখে দারুণ উচ্ছ্বসিত রুট বলেন, 'এখানকার পরিবেশ ছিল চমৎকার। এখানে অনেক ইংল্যান্ড সমর্থক ছিলেন। স্ট্যান্ডগুলো ছিল দারুণ। শেষদিকে হইচই করতে দেখা গেছে তাদের। এটি আপনাকে দারুণ অনুভূতি দেবে। কেননা, অ্যাশেজের প্রথম টেস্টের কয়েক সপ্তাহ বাকি আছে।'

এজবাস্টনে বৃহস্পতিবার সেমিতে অস্ট্রেলিয়াকে দাঁড়াতেই দেয়নি ইংল্যান্ড। প্রথমে ব্যাট করা অজিদের ২২৩ রানে আটকে ফেলে স্বাগতিকরা। পরে ১০৭ বল ও ৮ উইকেট হাতে রেখেই জয়ের বন্দরে নোঙর করে ইয়ন মরগানের দল। সেমিফাইনালে বিধ্বস্ত হলেও অ্যাশেজে যে অস্ট্রেলিয়ার পুরানো রূপ দেখা যাবে সেটিও ভালো করে জানা আছে রুটেরও। তাই সাবধানীই থাকছেন ইংলিশ এই ডানহাতি ব্যাটসম্যান, 'অস্ট্রেলিয়া এই ম্যাচ নিয়ে বেশি মাথা ঘামাবে না।'
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে