logo
মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০  

অস্ট্রেলিয়াকে রুখে দিতে প্রস্তুত মারিয়ারা

অস্ট্রেলিয়াকে রুখে দিতে প্রস্তুত মারিয়ারা
এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ নারী ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম খেলায় জাপানের কাছে বড় ব্যবধানে হেরেছে বাংলাদেশ। এবার অস্ট্রেলিয়াকে রুখে দেয়ার স্বপ্ন দেখছেন মারিয়ারা -বাফুফে
ক্রীড়া প্রতিবেদক

'এএফসি অনূর্ধ্ব ১৬ নারী চ্যাম্পিয়নশিপে' পর পর দুটি হারে এখন আর কোনো স্বপ্ন নেই বাংলাদেশের মেয়েদের। আজ আইপিই চনবুরি স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় দুপুর তিনটায় অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে নিয়ম রক্ষার ম্যাচে মাঠে নামবে মারিয়া-তহুরারা। বাংলাদেশের প্রাপ্তির কিছু না থাকলেও অস্ট্রেলিয়ার জন্য গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচটি। তবে নিজেদের সর্বোচ্চটা দিয়ে কঠিন প্রতিপক্ষকে আটকে দিতে চান গোলাম রব্বানী ছোটনের শিষ্যরা।

২০১৭ সালে গ্রম্নপ পর্বে অস্টেলিয়াকে পেয়েছিল বাংলাদেশ দল। যেখানে তারা হেরে যায় ৩-২ গোলের ব্যবধানে। হারলেও কিন্তু ওই ম্যাচে কিছুটা সুখস্মৃতি ছিল তাদের। কারণ অস্ট্রেলিয়া প্রথমে এগিয়ে গেলেও দুই গোল করে ম্যাচের ৭৭ মিনিট পর্যন্ত লিডে ছিল ছোটন শিষ্যরা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত আরও দুই গোল করে বাংলাদেশকে হারিয়ে দেয় অস্ট্রেলিয়ার মেয়েরা। তবে দু' বছর আগের স্মৃতি আর মনে রাখতে চান না কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন, 'আগের পরিসংখ্যান মনে করে লাভ নেই। দুই বছরে অনেক কিছুই পরিবর্তন হয়েছে। এখন নতুন ম্যাচ, সব কিছু্‌ই নতুন।' বাংলাদেশের জন্য ম্যাচটি নিয়মরক্ষার হলেও অস্ট্রেলিয়ার জন্য গ্রম্নপ সেরা ও রানার্সআপ হওয়ার লড়াই। দুই ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার চার পয়েন্ট। সমান পয়েন্ট জাপানেরও। তবে গোল গড়ে এগিয়ে জাপান।

দু'দলেরই গ্রম্নপের শেষ ম্যাচ আজ। জাপান আজ স্বাগতিক থাইল্যান্ডকে ও অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশকে হারালে দুই দলেরই পয়েন্ট সমান সাত হবে। সে ক্ষেত্রে গোল ব্যবধানে গ্রম্নপসেরা নির্ধারণ হবে। অস্ট্রেলিয়া স্বাভাবিকভাবেই চাইবে বাংলাদেশকে বেশি গোল দিয়ে গ্রম্নপ সেরা হতে।

তবে প্রতিপক্ষ কঠিন হলেও শেষটা ভালোভাবে করতে চায় বাংলাদেশ দল। এ প্রসঙ্গে ছোটন বলেছেন, 'আমাদের গ্রম্নপে চার দলের মধ্যে অস্ট্রেলিয়ার ফুটবলাররা ফিটনেসে অন্য সবার চেয়ে এগিয়ে। এমন শক্তিধর দলের বিপক্ষে পয়েন্ট পাওয়া অবশ্যই কঠিন। আমরা শেষটা ভালোভাবে করতে চাই।' জাপানের ম্যাচের উদাহরণ টেনে তিনি বলেন, 'জাপান ম্যাচ নিয়ে অনেক পরিকল্পনা ছিল। মাঠে সেগুলো খেলোয়াড়রা বাস্তবায়ন করতে পারেনি। এজন্য ফলাফল এমন হয়েছে। অস্ট্রেলিয়া ম্যাচের আগে খেলোয়াড়দের যার যার দায়িত্ব বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে বিশেষভাবে।'

জাপানের বিপক্ষে ৯-০ গোলের হারে স্বাভাবিকভাবেই খেলোয়াড়রা মানসিকভাবে কিছুটা ভেঙ্গে পড়েছে। তাদের মানসিকভাবে চাঙ্গা করে তুলতে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন বাংলাদেশের কোচিং স্টাফরা। সেই সঙ্গে বাংলাদেশের একাদশেও আসছে পার্থক্য। তবে কোনো পজিশনে কয়জনকে পরিবর্তন করা হবে ম্যাচের স্বার্থে সেটি এখনই জানাতে চান না কোচ।

অস্ট্রেলিয়ার নারী কোচ রায়দোয়ের চোখ রাখছেন সেমিতেই। যে কারণে বাংলাদেশের বিপক্ষে জয়ের বিকল্প ভাবছেন না। আজকের ম্যাচ প্রসঙ্গে এই নারী কোচ বলেছেন,'বাংলাদেশ দুই ম্যাচ হারলেও তাদের ভালো খেলার সামর্থ্য আছে। আমরা ভালোমতো জিতে সেমিফাইনালে যেতে চাই।'
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে