logo
বৃহস্পতিবার ২৩ মে, ২০১৯, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ১২ মে ২০১৯, ০০:০০  

সংবাদ সংক্ষেপ

ইপিএস বেড়েছে রিপাবলিক

ইন্সু্যরেন্সের

যাযাদি রিপোর্ট

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত রিপাবলিক ইন্সু্যরেন্স প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি-মার্চ '১৯) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। কোম্পানি সূত্রে এ তথ্য জানা যায়। আলোচ্য সময়ে কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৫৪ পয়সা। আগের বছর একই সময়ে ইপিএস ছিল ৪৫ পয়সা। ৩১ মার্চ, ১৯ শেষে কোম্পানির শেয়ার প্রতি প্রকৃত সম্পদ মূল্য (এনএভি) হয়েছে ১৫ টাকা ৩৫ পয়সা।

সেন্ট্রাল ইন্সু্যরেন্স প্রান্তিক

প্রকাশ করবে

যাযাদি রিপোর্ট

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত সেন্ট্রাল ইন্সু্যরেন্স পরিচালনা পর্ষদ সভা করার তারিখ ঘোষণা করেছে। আগামী ১৪ মে দুপুর ২ টা ৩০ মিনিটে কোম্পানির প্রথম প্রান্তিকের পর্ষদ সভা অনুষ্ঠিত হবে। কোম্পানিটি ৩১ মার্চ, ২০১৯ সমাপ্ত প্রথম প্রান্তিকের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করা হবে। একই সঙ্গে তা প্রকাশ করা হবে।

আয় বেড়েছে লাফার্জ হোলসিমের

যাযাদি রিপোর্ট

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত লাফার্জ হোলসিম প্রথম প্রান্তিকের (জানুয়ারি-মার্চ '১৯) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। কোম্পানি সূত্রে এ তথ্য জানা যায়। আলোচ্য সময়ে কোম্পানির শেয়ার প্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৩১ পয়সা (বেসিক)। আগের বছর একই সময়ে ইপিএস ছিল ২০ পয়সা। ৩১ মার্চ, ১৯ শেষে কোম্পানির শেয়ার প্রতি প্রকৃত সম্পদ মূল্য (এনএভি) হয়েছে ১৩ টাকা ৭৫ পয়সা।

পৌনে দুই লাখ অ্যাকাউন্ট

বন্ধ করেছে টুইটার

যাযাদি ডেস্ক

২০১৮ সালের দ্বিতীয়ার্ধে নিজেদের পস্ন্যাটফর্ম থেকে ১ লাখ ৬৬ হাজার ১৫৩টি অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছে মাইক্রোবস্নগিং সাইট টুইটার। সন্ত্রাসবাদে যোগসাজশ থাকায় এসব অ্যাকাউন্ট বন্ধ করা হয়েছে বলে জানিয়েছে টুইটার কর্তৃপক্ষ। খবর রয়টার্স।

টুইটার গত বছরের প্রথমার্ধে একই ধরনের অভিযোগে মোট যে পরিমাণ অ্যাকাউন্ট বন্ধ করেছে, দ্বিতীয়ার্ধে তার এক-পঞ্চমাংশ বন্ধ করা হয়েছে।

টুইটার, ফেসবুক ও গুগল তাদের পস্ন্যাটফর্মের মাধ্যমে সন্ত্রাসবাদ ছড়িয়ে পড়া নিয়ে বৈশ্বিক চাপে রয়েছে। এ পরিস্থিতিতে সন্ত্রাসবাদ বিষয়ে ছাড় দিতে নারাজ টুইটার।

বিবৃতিতে টুইটার জানায়, গত বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে যত সংখ্যক অ্যাকাউন্ট বন্ধ করা হয়েছে, তার অন্তত ৯১ শতাংশ স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে শনাক্ত করা হয়। ফেক অ্যাকাউন্ট শনাক্তের এ প্রযুক্তি টুইটারের নিজস্ব উন্নয়ন করা।

বিবৃতি অনুযায়ী, বিশ্বের কোনো না কোনো দেশের সরকারের অনুরোধে অ্যাকাউন্টগুলো বন্ধ করা হয়। গত বছরের দ্বিতীয়ার্ধে বিশ্বের ৮০টি দেশ থেকে অ্যাকাউন্ট বন্ধের অনুরোধ পেয়েছে টুইটার। এর মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে বেশি অনুরোধ ছিল।

বাজেটে কর প্রত্যাহারের

দাবি তামাক চাষি সমিতির

যাযাদি রিপোর্ট

'শিল্প বাঁচাও, তামাক চাষি বাঁচাও'- শিরোনামে বিড়ি শিল্পের ওপর কর প্রত্যাহার ও তামাক চাষিদের সুরক্ষার দাবিতে গতকাল শনিবার নীলফামারী প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলন করে বাংলাদেশ তামাক চাষি ও ব্যবসায়ী সমিতি, নীলফামারী শাখা।

সংবাদ সম্মেলনে বহুজাতিক কোম্পানির সিগারেটের ওপর অতিরিক্ত করারোপ, তামাক চাষিদের ন্যায্যমূল্য প্রদান এবং তাদের সুরক্ষার জন্য সরকারি নীতিমালা প্রণয়নের দাবি জানান সমিতির সভাপতি হামিদুল হক চেয়ারম্যান এবং সাধারণ সম্পাদক মাসুম ফকির। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন সমিতির সহ-সভাপতি শফিকুল্‌ ইসলাম তুহিন, ব্যবসায়ী নেতা আয়ুব হোসেন, কৃষক নেতা সালাউদ্দিন প্রমুখ।

সভাপতি হামিদুল হক চেয়ারম্যান বলেন, দেশের উত্তরবঙ্গ বিশেষ করে বৃহত্তর রংপুরে তামাক ছাড়া অন্য কোনো ফসল ভালো হয় না। তামাক চাষ করেই চাষিদের জীবিকা নির্বাহ করতে হয়। আর এ তামাক ব্যবহার হয়ে থাকে বিড়ি শিল্পের কাঁচামাল হিসেবে। বিড়ির ওপর সাম্প্রতিক সময়ে মাত্রা অতিরিক্ত করারোপের ফলে কারখানাগুলো বন্ধ হয়ে যাচ্ছে উৎপাদিত তামাক বিক্রি হচ্ছে না। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে হাজার হাজার তামাক চাষি। রংপুর অঞ্চলের যা মারাত্মক আর্থিক সংকট তৈরি করছে। অর্থনীতিতেও বিরূপ প্রভাব দেখা দিচ্ছে।

সাধারণ সম্পাদক মাসুম ফকির বলেন, বিড়ি একটি কুটির ও শ্রম ঘন শিল্প। এর সঙ্গে লাখ লাখ মানুষ জড়িত। প্রতিবেশী দেশ ভারতে যেখানে বিড়িকে কুটির শিল্প হিসেবে ঘোষণা দিয়ে সুরক্ষা দেয়া হচ্ছে, সেখানে বাংলাদেশে বিড়ির ওপর অতিরিক্ত করারোপ করে

এই শিল্পকে ধ্বংসের দিকে ঠেলে দেয়া হচ্ছে। ভারতে যে সব কারখানায় ২০ লাখ স্টিকের নিচে বিড়ি তৈরি হয় সে সব

\হকারখানাকে কোনো শুল্ক দিতে হয় না। অথচ বাংলাদেশে সব ধরনের কারখানাকে শুল্ক দিতে হয়।

ভারতের চেয়ে বাংলাদেশে শুল্ক ১৮ গুণ বেশি। ভারতে এক

হাজার বিড়িতে শুল্ক মাত্র

১৪ টাকা। বাংলাদেশে

২৫২ টাকা ৫০ পয়সা।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে