তালার কামরুল হাসান ইউটিউব দেখে শখের বসে আরবের খেজুর চাষ

তালার কামরুল হাসান ইউটিউব দেখে শখের বসে আরবের খেজুর চাষ

সৌদি আরবের আজোয়া ও মরিয়ম জাতের খেজুর চাষ করে আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন তালা উপজেলার মিঠাবাড়ি গ্রামের কামরুল। শখের বসে ইউটিউব থেকে ভিডিও দেখে তিনি সৌদির খেজুর চাষে উদ্বুদ্ধ হন। নিজের ১৫ কাঠা জমিতে খেজুর চাষ শুরু করেন।

সাতক্ষীরা জেলার তালা উপজেলার নগরঘাটা মিঠাবাড়ি গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য হায়দার আলীর ছেলে ও বল্লী আদর্শ মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক (কৃষি) কামরুল হাসান মিলন (৪৫)। শিক্ষকতার পাশাপাশি তিনি নিজ জমিতে কৃষিকাজ করেন।

কামরুল হাসান লিমন জানান, শখের বসে আরবের খেজুর চাষ করার জন্য ঢাকা গাজীপুরে যোগাযোগ করেন খেজুরের চারা ক্রয়ের জন্য। কিন্তু প্রতি পিস চারা ১০ থেকে ১৫ হাজার টাকা মূল্য চাওয়ায় তিনি হতাশ হন। পরবর্তীতে তার বাবা হজের উদ্দেশ্যে সৌদি আরবে গেলে তিনি চাষের জন্য বীজ ক্রয় করে আনান।

বাংলাদেশি ২৫ টাকা মূল্যে তিনি প্রতি পিস বীজ ক্রয় করে ১শ ৫০টা বীজ রোপণ করেন। আজ তার জমিতে দেড়শটি খেজুরের চারা দিনে দিনে বেড়ে উঠছে। তিন থেকে পাঁচ বছরের মাথায় ফল ধরার নিয়ম থাকলেও তার খেজুর গাছে এক বছরের মাথায় ফল ধরা শুরু হয়েছে। খেজুর চাষের পাশাপাশি তিনি একই জমিতে স্বল্পহারে করেছেন ড্রাগন চাষ।

তিনি আরও বলেন, এই জাতের খেজুর গাছের শতকরা ৮০টি গাছ পুরুষ জাতের হয়ে থাকে। পুরুষ ফুলের পরাগ মেয়ে গাছের ফুলে পরাগায়ন করলে ফলের ধরন অনেক ভালো হয় বলে তিনি মনে করেন। তবে এই খেজুর গাছ চাষের পদ্ধতি ও পরিচর্যা সম্পর্কে জানতে নিজ জেলা ও জেলার বাইরে সরকারি কৃষি দপ্তরে যোগাযোগ করে তিনি কোনো সুফল পাননি বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। সরকারিভাবে এই সৌদি খেজুর চাষের ওপর কৃষকদের ট্রেনিংয়ের ব্যবস্থা করলে দেশের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশে রপ্তানি করা সম্ভব বলে তিনি মনে করেন।

এ বিষয়ে জানতে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তার ফোন নম্বরে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলে ফোন নম্বরটি রিসিভ করেননি।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে