হল ছাড়ছেন না জাবি শিক্ষার্থীরা

ছাত্রীরাও হলে অবস্থান করছেন
হল ছাড়ছেন না জাবি শিক্ষার্থীরা

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) প্রশাসনের নির্দেশ অমান্য করে হলেই অবস্থান করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। রবিবার রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার রহিমা কানিজ স্বাক্ষরিত এক জরুরী বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানানো হয়, সকাল ১০ টার মধ্যে নিজ উদ্যোগে শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগ করতে হবে। অন্যথায় বিশ^বিদ্যালয় প্রশাসন আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

সকালে সব হলের প্রভোস্ট হলে হলে গিয়ে শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলে তাদেরকে হল ত্যাগ করতে বললে তারা অস্বীকৃতি জানায়। শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে বলা হয়, ‘গেরুয়া গ্রামে এখনো শিক্ষার্থীরা ভালোভাবে চলাফেরা করতে পারছেনা। নিরাপত্তার স্বার্থে হলে থাকা ছাড়া আমাদের আর কোনো উপায় নেই।’

এদিকে, বন্ধ থাকা দেশের সব বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হল খুলবে ১৭ মে এবং ২৪ মে থেকে ক্লাস শুরু হবে বলে দুপুরে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ড. দীপু মনি।

শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্যকে সাধুবাদ জানালেও জাবি ক্যাম্পাসের বিশেষ পরিস্থিতির কারণে হল ছাড়বেনা বলে জানিয়েছে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থী শারমীন আক্তার সাথী বলেন, ‘জাহাঙ্গীরনগরের পরিস্থিতি অন্যান্য বিশ^দ্যিালয়ের মতো না। এখানকার অনেক শিক্ষার্থী ক্যাম্পাস সংলগ্ন বিভিন্ন স্থানে অবস্থান করছে যা মোটেই শিক্ষার্থীদের জন্য নিরাপদ না। এই ভিন্ন পরিস্থিতির কারণে আমরা আমাদের সিদ্ধান্তে অটল আছি।’

বিশ^বিদ্যালয় সংলগ্ন গেরুয়া গ্রামবাসীদের সাথে সংঘর্ষের জেরে গত শনিবার সবগুলো হলের তালা ভেঙে দেয় শিক্ষার্থীরা। ছেলেদের আটটি হলে শিক্ষার্থীরা অবস্থান করলেও ওইদিনই মেয়েদের আটটি হলে তালা লাগিয়ে দেয় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

সোমবার দুপুর ১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন চত্বর থেকে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলের দিকে একটি বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে এসে শিক্ষার্থীরা বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলের তালা ভেঙে হলে প্রবেশ করে।

বিকালে হলের প্রভোস্ট অধ্যাপক মুজিবুর রহমান হলের ছাত্রীদের সাথে কথা বলে তাদেরহ ল ছাড়ার আহ্বান জানালে ছাত্রীদের প্রতিনিধি দল জানান তারা হলে থাকবে।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে