​টুইটার অ্যাকাউন্ট স্থগিত কঙ্গনার

​টুইটার অ্যাকাউন্ট স্থগিত কঙ্গনার

বলিউডের ‘বিতর্কিত কুইন’ কঙ্গনা রানাউত। দেশের যেকোনও ইস্যুতে তার বেফাঁস মন্তব্য সমালোচনা তৈরি করেছেন বহুবার। আর সকল বিতর্কের শুরু হয় অভিনেত্রীর টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে।

তাই এবার কঙ্গনার টুইটার অ্যাকাউন্ট স্থগিত করা হলো। অভিযোগ উঠেছে, তার করা কয়েকটি পোস্ট মাইক্রো ব্লগিং সাইট সংস্থার নীতি লঙ্ঘন করেছে। এজন্যই অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

সম্প্রতি পশ্চিমবঙ্গে তৃতীয়বারের মতো মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচিত হলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপরই তাকে নিয়ে আপত্তিজনক মন্তব্য করেন কঙ্গনা। তৃণমূলের বিরুদ্ধে তীব্র সমালোচনা করেছেন এই বলিউড অভিনেত্রী।

কঙ্গনা টুইটে লিখেছিলেন, ‘বাংলাদেশ আর রোহিঙ্গারা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সবচেয়ে বড় শক্তি। যা ট্রেন্ড দেখছি তাতে বাংলায় আর হিন্দুরা সংখ্যাগরিষ্ঠ নেই এবং তথ্য অনুযায়ী পুরো ভারতের অন্য এলাকার তুলনায় বাংলার মুসলিমরা সবচেয়ে গরীব আর বঞ্চিত। ভালো আরেকটা কাশ্মীর তৈরি হচ্ছে।’

অন্যদিকে তৃণমূলের জয়ে শুভেচ্ছাও জানিয়ে টুইট করেন কঙ্গনা। কিন্তু সেখানেও ছিল ব্যঙ্গ মন্তব্য। তিনি লেখেন, ‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একজন বাঘিনীর মতোই লড়াই করেছেন। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হেলিকপ্টার নামতে দেয়নি। সিএএ, এনআরসিকে আটকেছেন। মোদিকে খেলায় আহ্বান করেছেন। একেবারে খোলাখুলি শরণার্থীদের আশ্রয় দিয়েছেন, তাদের ভোটার কার্ড দিয়েছেন। গণতন্ত্র এখানে রসিকতা।’

যাযাদি/এসআই

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে