শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ৯ মাঘ ১৪২৭

উপহারস্বরূপ বিভিন্ন দূতাবাসে সুগন্ধি চাল প্রেরণ

উপহারস্বরূপ বিভিন্ন দূতাবাসে সুগন্ধি চাল প্রেরণ

কালের বিবর্তনে প্রচলিত দেশি জাতের স্থলে এসেছে উচ্চফলনশীল সরু ও সুগন্ধি ধানের জাত। এখন শুধু পারিবারিক প্রয়োজনে নয়, দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বাণিজ্যিকভিত্তিতে সুগন্ধি ধান চাষ হচ্ছে। কারণ এই ধান চাষে সমান শ্রমে লাভ বেশি। সুগন্ধি চালের দাম অন্য যে কোনো চালের তুলনায় অনেক বেশি। এক কেজি সাধারণ চালের দাম যেখানে ৪৫-৬০ টাকা সেখানে এক কেজি সুগন্ধি চালের দাম ৮০-১২০ টাকা পর্যন্ত হয়। বাংলাদেশের সরু ও সুগন্ধি প্রিমিয়াম কোয়ালিটির এমন অনেক ধানের জাত রয়েছে যেগুলোর চাল দেশের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশেও রপ্তানি করা সম্ভব। বাংলাদেশি সুগন্ধি চালের রপ্তানি সম্ভাবনা বাড়াতে ব্রি ধান৩৪ ও ৫০'র চাল বিভিন্ন দূতবাসে উপহারস্বরূপ দেয়ার উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনিস্টিটিউট। গত রোববার মহাপরিচালক ড. মো. শাহজাহান কবীর ব্রি উদ্ভাবিত ওই ধরনের দুটি জাতের চালের (ব্রি ধান৩৪ ও ব্রি ধান৫০) কিছু নমুনা বাংলাদেশে অবস্থিত বিভিন্ন দূতাবাস ও হাইকমিশনে উপহারস্বরূপ প্রেরণের উদ্দেশ্যে পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেনের কাছে হস্তান্তর করেন। এ সময় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সার্ক ও বিমস্টেক উইংয়ের মহাপরিচালক এবং অতিরিক্ত সচিব মো. সামছুল হক, বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিলের নির্বাহী চেয়ারম্যান ড. শেখ মো. বখতিয়ার উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে