কলির স্বপ্ন

কলির স্বপ্ন

ছোট্ট একটা ফুটফুটে মিষ্টি মেয়ে কলি। বয়স আর কত হবে? চার কিংবা পাঁচ। শাহবাগের পরিবাগে তার বসবাস। দুনিয়াতে মা ছাড়া কেউ নেই মেয়েটার। জন্মের পরে কোনো দিন বাবার মুখ দেখেনি। তবে মাঝে মাঝে স্বপ্নে সে বাবাকে দেখে আর মায়ের কাছে বাবার গল্প শোনে।

কলি ও তার মা সারাদিন ফুল বিক্রি করে। যা টাকা পায় তাই দিয়েই দুজনের চলে যায় কোনোমতে।

কখনো গুলিস্তান, কখনো পল্টন, কখনো বাংলামোটর সবখানেই ঘোরা হয় কলি ও তার মায়ের। নানান রকম মানুষের দেখা মিলে তাদের। কেউ স্কুলে, কেউ কলেজে, কেউ অফিসে, কেউ হসপিটালে ছুটে। প্রয়োজনের তাগিদেই সবাই ছুটাছুটি করে।

কলির অবশ্য সারাদিন ঘুরে ঘুরে ফুল বিক্রি করতে বেশ ভালোই লাগে। মা, মেয়ে ফুল বিক্রি করে আর গল্প করে। বিশেষ করে কাঁধে ব্যাগ নিয়ে স্কুলে যাওয়া বাচ্চাগুলো কলিকে বেশি আকর্ষণ করে। স্কুলে যাওয়া বাচ্চা দেখলে কলি মুগ্ধ হয়ে শুধু চেয়ে থাকে। তারও ওদের মতো কাঁধে ব্যাগ নিয়ে স্কুলে যেতে মন চায়। কিন্তু মাকে বলতে পারে না। তবে তার মা ঠিক-ই সব বুঝতে পারে। বুঝতে পারে ছোট্ট কলির ব্যাকুল মনের চাওয়াটা। কিন্তু কিছুই করার নেই। মা যে নিরুপায়। সড়ক দুর্ঘটনায় স্বামী মারা যাওয়ার পরে বহুকষ্টে মেয়েটাকে নিয়ে খেয়ে না খেয়ে দিন পার করে। ফুল বিক্রির টাকা দিয়ে কোনোমতো দ'ুবেলা খেতে পারে, তিন বেলা আর খাওয়া জোটে না। তাহলে সে কেমনে কলির চাওয়া পূরণ করবে? কীভাবে তাকে স্কুলে পাঠাবে?

মেহেরুন ইসলাম

সিনিয়র স্টাফ নার্স

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে