শিমুর প্রত্যাবর্তন

শিমুর প্রত্যাবর্তন

সুমাইয়া শিমু- একাধারে তিনি বাংলাদেশের অভিনেত্রী, মডেল ও গবেষক। ১৯৯৯ সাল থেকে তিনি ছোট পর্দায় অভিনয় করছেন। কিন্তু শুরু থেকেই অন্যদের তুলনায় খুব কম কাজ করে আসছেন এক সময়ের জনপ্রিয় এ অভিনেত্রী। কিন্তু যেসব কাজ করেছেন, তার বেশির ভাগই প্রশংসা পেয়েছে দর্শক ও সুধীমহলে। তার অভিনীত অসংখ্য নাটক দর্শকের মনে দাগ কেটে আছে। কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ পেয়েছেন একাধিক সম্মাননাও। ক্যারিয়ারের মধ্যগগনে ২০১৫ সালে বিয়ে করে সংসারী হন শিমু। বিয়ের পর সংসার ও নানা কারণে আচমকা অভিনয় কমিয়ে দিতে থাকেন তিনি। ধীরে ধীরে একসময় নিজেকে পুরোপুরি গুটিয়ে নেন অভিনয় থেকে। শুধু তাই নয়, শোবিজের মানুষের কাছ থেকেও দূরে সরিয়ে রাখেন নিজেকে। যদিও শখের অভিনয় থেকে দূরে থাকা অনেক কষ্টের বলে মন্তব্য করেছেন তিনি। তারপরও নানা কারণে অভিনয়কে দূরেই রাখতে হয়েছে তাকে।

তবে নতুন খবর হলো, দেরিতে হলেও বিরতি ভাঙলেন তিনি। তবে দীর্ঘ বিরতির পর সম্প্রতি আবার তিনি ফিরেছেন। আসন্ন ঈদের একটি নাটকের মাধ্যমে অভিনয়ে প্রত্যাবর্তন করছেন সুমাইয়া শিমু। সম্প্রতি 'লাইফ লাইন' নামের ঈদের বিশেষ একটি নাটকে অভিনয় করেছেন তিনি। মুহাম্মদ মোস্তফা কামাল রাজ পরিচালিত এ নাটকে শিমুর বিপরীতে দেখা যাবে অভিনেতা মুশফিক আর ফারহানকে।

দীর্ঘদিন পর ক্যামেরার সামনে দাঁড়ানোর অভিজ্ঞতা জানিয়ে সুমাইয়া শিমু বলেন, ''ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়ে একবারও মনে হয়নি দীর্ঘদিন বিরতিতে ছিলাম। অভিনয়ের চেনা ভুবনে পা রেখে ভীষণ ভালো লাগছে। মনে হয়েছে, নিজের জায়গায় এসেছি। ভালো একটি কাজের মধ্য দিয়ে বিরতি ভাঙতে পেরেছি বলে এই ভালো লাগা আরও বেড়ে গেছে। এর আগে যেসব প্রেমের গল্পে অভিনয় করেছি, সেসব নাটক থেকে 'লাইফ লাইন' কিছুটা ভিন্ন ধাঁচের। গল্প, চরিত্র, নির্মাণ পরিকল্পনা- সবকিছু মিলিয়ে ভালো অভিজ্ঞতা নিয়ে কাজটি শেষ করেছি। এখন লকডাউন চলছে। আর ঈদেরও খুব বেশি দিন বাকি নেই। তাই জানি না এই নাটক ছাড়া আর কোনো কাজ করতে পারব কিনা।''

হঠাৎ করে কেন আবার অভিনয়ে ফিরলেন? এমন প্রশ্নের জবাবে সুমাইয়া শিমু জানান, ব্যক্তিগত কারণে মাঝে কিছু দিন হয়তো অভিনয়ে বিরতি ছিল। যারা আমার অভিনয় পছন্দ করেন, তারা চাইছিলেন আমি যেন অভিনয়ে ফিরি। কাজ করি না বলে অনেকেই ভেবেছেন, আমি বিদেশে থাকি। এ প্রজন্মের অনেক পরিচালককে চিনি না। সবার সঙ্গে আমার দূরত্ব তৈরি হয়ে গিয়েছিল। সামাজিক মাধ্যমে কোনো পোস্ট করলে প্রতিদিনই অসংখ্য ভক্তের মন্তব্য আসে- 'আমি কেন অভিনয় করছি না'? তারা আমাকে মিস করছেন। এসব মন্তব্যে আমারও মন খারাপ হয়। যে জন্য সবকিছু মিলিয়ে নতুন করে ভাবলাম, যে কাজটা আমি করতে পছন্দ করি কেন সেটা করছি না। সেই চিন্তা থেকেই অভিনয়ে ফেরা। আমি অভিনয়ের মানুষ। দীর্ঘদিন অভিনয় করছি। যে জন্য অভিনয় থেকে দূরে থাকা কঠিন।

সুমাইয়া শিমু আরও জানান, অভিনয়ে ফিরলেও আগের মতো তেমন বেশি কাজ আর করবেন না তিনি। কিন্তু ভেতরের অভিনয়ের ক্ষুধা মেটাতে চেষ্টা করবেন কম হলেও নিয়মিত কাজের ভেতরে থাকতে।

শুধু ছোট পর্দায়ই নয়, বড় পর্দায়ও কাজ করার ইচ্ছার কথা জানালেন এ অভিনেত্রী। ক্যারিয়ারে নানা সময়ে বেশ কিছু সিনেমার প্রস্তাব পেয়েছেন সুমাইয়া শিমু। কিন্তু গল্প ও চরিত্র মনের মতো না হওয়ায় বিনয়ের সঙ্গে সেসব প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছেন তিনি। শিমু বলেন, 'তবে বেশ কয়েক বছর ধরে গল্পপ্রধান চলচ্চিত্র নির্মিত হচ্ছে। এটি আশার কথা। এ ধরনের চলচ্চিত্রে যদি অভিনয়ের প্রস্তাব পাই, তাহলে অবশ্যই চলচ্চিত্রে কাজ করব।'

এছাড়া ওটিটি পস্ন্যাটফর্মের জন্য ভালো কাজের প্রস্তাব পেলে সেখানেও কাজে ইচ্ছে প্রকাশ করে শিমু বলেন, 'ওটিটি পস্ন্যাটফর্ম নতুন একটি মাধ্যম। আমাদের অভিনয় শিল্পীরাই এখানে কাজ করছেন। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে নিজেদের তাল মেলাতে হবে। সে ক্ষেত্রে প্রতিযোগিতা মনে না করে এটাকে সাদরে গ্রহণ করা উচিত। নতুন কিছুর ওপর সবারই আগ্রহ থাকে। তার কিছু ভালো দিকও থাকে। সে জন্য সবারই ওটিটি পস্ন্যাটফর্মে কাজ করার এক ধরনের আগ্রহ আছে।'

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে