বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

ব্রহ্মাস্ত্র :খরার মাঝে বৃষ্টির ছটা

ম জাহাঙ্গীর বিপস্নব
  ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০০:০০
'ব্রহ্মাস্ত্র' সিনেমায় রণবীর কাপুর
মহামারি করোনাভাইরাসের আগে থেকেই বলিউডের বক্স অফিস অনেকটা মুখ থুবড়ে পড়েছে। বিশেষ করে দক্ষিণী সিনেমার দাপট কোণঠাসা করে দিয়েছে বলিউডের বাজার। আগে যেখানে দক্ষিণী সিনেমার কলাকুশলীরা মুখিয়ে থাকতেন বলিউডের সিনেমা মুক্তির অপেক্ষায়, এখন তারাই রাজত্ব করছে ভারতীয় চলচ্চিত্র শিল্পে। এমনকি উল্টো বলিউডের তারকারাই সুযোগ খুঁজছেন তামিল, তেলেগু সিনেমায় অভিনয়ের। যার সুবাদে চলতি বছরের শুরু থেকেই আরও বেশি মন্দাভাব বিরাজ করছে বিশ্বের দ্বিতীয় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি বলিউড। ধস নেমেছে 'খান' সাম্রাজ্যেও। বলিউড দাপিয়ে বেড়ানো আমির খান, শাহরুখ খানের মতো সুপারস্টারের ছবিও বক্স অফিসে মুখ থুবড়ে পড়ছে। তার মধ্যে কাল হয়ে দাঁড়িয়েছে বলিউডের একের পর এক সিনেমাকে বয়কটের দাবি। সব মিলিয়ে কঠিন সময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে বলিউড ইন্ডাস্ট্রি। ধারণা করা হচ্ছে হিন্দি সিনেমার সাম্প্রতিক হালচাল খারাপ হওয়ার পেছনে পুরনো হিন্দি, দক্ষিণ ভারতীয় এবং হলিউড ছবির রিমেক। হিন্দি ইন্ডাস্ট্রির বর্তমান অবস্থা দেখে একাধিক অভিজ্ঞ পরিচালক, অভিনেতা এমনটাই দাবি করেছেন। কিন্তু তবুও বলিউডের টনক নড়ছে না। এখন পর্যন্ত রিমেক ছবিতেই ভরসা রাখছেন পরিচালক, প্রযোজক, অভিনেতারা। জানা গেছে, শাহরুখ খানের মতো গোবিন্দার একটি সুপারহিট ছবির রিমেক বানাতে চলেছেন। বলিউডের অন্দরে গুঞ্জন, রিমেক সংস্কৃতিতে সাম্প্রতিক সংযোজন হতে চলেছে গোবিন্দা এবং রাভিনা ট্যান্ডন অভিনীত নব্বইয়ের দশকের সুপারহিট সিনেমা 'দুলহে রাজা'র রিমেক বানাতে চলেছে শাহরুখের প্রযোজনা সংস্থা রেড চিলিস প্রোডাকশনস। এরই মধ্যে সিনেমার রিমেকের জন্য নাকি স্বত্বও কিনেছেন বলিউড বাদশা শাহরুখ খান। এছাড়া বায়োপিক নির্মাণের জোয়ারও বলিউড শিল্পে ধস নামার আরও একটি বড় কারণ বলে মনে করছেন সিনেমা বোদ্ধারা। কিন্তু এসব বাদেও বড় বাজেটের অনেক সিনেমাই ফ্লপের তালিকায় পড়ছে একের পর এক। সে তালিকায় আছে রণবীরের শেষ ছবি 'শমশেরা'। মুক্তির আগে ছবিটি নিয়ে আশার কথা শুনিয়ে রণবীর বলেছিলেন, 'অনেক অনেক দিন হয়ে গেল ছবিটি শেষ করতে...জানি না কেন এত সময় লাগল। এত দিন সময় লাগায় আমরাও বিব্রত, কেউ জানতে চাইলে 'ব্রহ্মাস্ত্র'র কথা বলতাম না। বলতাম অন্য সিনেমার শুটিংয়ে ব্যস্ত আছি।' আর সেই 'ব্রহ্মাস্ত্র'ই মোড় ঘুরিয়ে দিচ্ছে বলিউডের। রণবীর কাপুর ও আলিয়া ভাট দম্পতির হাত ধরে ফের লক্ষ্ণীলাভ বক্স অফিসের। বলা চলে খরার মাঝে দু'পশলা বৃষ্টি নামিয়েছে বহুল প্রতীক্ষিত বিগ বাজেটের এই সিনেমাটি। গত শুক্রবার মুক্তি পেয়েছে ৪০০ কোটিরও বেশি বাজেটের 'ব্রহ্মাস্ত্র'। অনেকেই বলছেন সর্বকালের সবচেয়ে ব্যয়বহুল হিন্দি সিনেমা এটি। ট্রেইলার প্রকাশের পরই 'ব্রহ্মাস্ত্র' তাক করে রণবীর কাপুর দক্ষিণী সিনে ইন্ডাস্ট্রির উদ্দেশে হুঙ্কার ছুড়েছিলেন, 'ওদের দেখিয়ে দেব...।' এবার প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতেই কাপুর-নন্দনের সেই কথা যেন একেবারে অক্ষরে অক্ষরে ফলে গেল। মহামারি করোনার পর 'জজজ', 'পুষ্পা', 'কেজিএফ চ্যাপ্টার-২' এর মতো দক্ষিণী সিনেমাগুলো যে হারে ব্যবসা করেছে, সেখানে বলিউড ধোপে টিকতে পারেনি। তবে সবার হয়ে এবার জবাব দিল 'ব্রহ্মাস্ত্র'। সিনেমাটি বিশ্বব্যাপী আট হাজারের বেশি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে। বেশির ভাগ সমালোচকই অবশ্য ছবিটি পছন্দ করেননি। 'ব্রহ্মাস্ত্র' নিয়ে তাদের রিভিউ সবচেয়ে ভালোভাবে বোঝানো যায় এই প্রবাদ দিয়ে, 'পর্বতের মূষিক প্রসব'। যদিও বক্স অফিস সূত্র বলছে, ছবিটি ভালোই ব্যবসা করেছে। তাদের দাবি, ভারতজুড়ে সপ্তাহান্তে ১২১ কোটি রুপি ব্যবসা করার পর চতুর্থ দিন অর্থাৎ সোমবারও এই সিনেমা 'ফুল মার্কস' পেয়েছে। চতুর্থ দিন ১৬.২৫ কোটি রুপি ব্যবসা করেছে। তার মধ্যে হিন্দি বাজার থেকে ১৪.২৫ কোটি রুপি এবং বাকি ভাষা থেকে ২ কোটি রুপি ব্যবসা করেছে সিনেমাটি। অর্থাৎ এখনো পর্যন্ত এই ছবি ভারতীয় বাজারে ১৩৫ কোটি রুপি ব্যবসা করে ফেলেছে। অনুমান করা হচ্ছে আসছে রোববারের মধ্যে ২০০ কোটির ক্লাবে প্রবেশ করবে সিনেমাটি। সোমবার, 'ধর্মা প্রোডাকশন'-এর তরফ থেকে জানানো হয়েছে সপ্তাহান্তে বিশ্বজুড়ে ২২৫ কোটি রুপি ব্যবসা করেছে 'ব্রহ্মাস্ত্র'। তবে সেই নিয়ে বিতর্কও তৈরি হয়েছে। চলতি সপ্তাহে 'ব্রহ্মাস্ত্র' গেস্নাবাল বক্স অফিসের তালিকার শীর্ষে ছিল। এই প্রথম কোনো এশিয়ান সিনেমা গোটা বিশ্বের বক্স অফিস চার্টেরও শীর্ষে পৌঁছেছে। তালিকায় প্রথম স্থান অর্জন করল। ভারতীয় সিনেমা হিসেবে 'ব্রহ্মাস্ত্র' তৃতীয়, এর আগে তালিকার শীর্ষে পৌঁছেছিল 'মাস্টার' ও 'আরআরআর'। প্রত্যেকটিই গত দুই বছরে পরপর তালিকার ১ নম্বরে স্থান পেল। অথচ মুক্তির আগেই 'ব্রহ্মাস্ত্র' বয়কটের ডাক দিয়েছিল নেটিজেনের একাংশ। তাছাড়া, নেটপাড়ার বড় একটা অংশ ভবিষ্যদ্বাণী করেছিল, এই সিনেমা দু'দিনও টিকবে না। তবে মুক্তির পরে পুরো চিত্রই পাল্টে গেছে। বরং, সব সিনেমাকে টেক্কা দিয়ে কালো ঘোড়ার মতো দৌঁড়াচ্ছে 'ব্রহ্মাস্ত্র'। ২০১৪ সালে পরিচালক অয়ন মুখার্জি 'ব্রহ্মাস্ত্র' ছবির ঘোষণা দেন। তখন থেকেই বিভিন্ন গণমাধ্যমে খবর- করণ জোহর প্রযোজিত বড় বাজেটের সিনেমাটিতে দেখা যাবে প্রথম সারির বলিউড তারকাদের। এরপর বছরের পর বছর যায়, 'ব্রহ্মাস্ত্র' পেছাতে থাকে। সব জটিলতা কাটিয়ে ২০১৮ সালের ফেব্রম্নয়ারিতে শুরু হয় শুটিং। সেই বছরের ২৪ মার্চ বুলগেরিয়ায় সিনেমার প্রথম কিস্তির শুটিং ভালোভাবেই শেষ হয়। তবে তখন কে জানত ছবি মুক্তি পেতে পেতে আরও চার বছর লেগে যাবে। কোভিড, তারকার অন্য ছবির শিডিউলসহ বিভিন্ন কারণে বারবার শুটিং পেছায়। অবশেষে চলতি বছরের ২৯ মার্চ বেনারসে শেষ হয় আলোচিত সিনেমাটির শুটিং। অবশেষে গত ৯ সেপ্টেম্বর মুক্তি পায় বহুল প্রতীক্ষিত 'ব্রহ্মাস্ত্র'।
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

উপরে