অভিবাসীদের ফেরত পাঠানোর প্রতিবাদে জাতিসংঘে হাইতি দূতের পদত্যাগ

অভিবাসীদের ফেরত পাঠানোর প্রতিবাদে জাতিসংঘে হাইতি দূতের পদত্যাগ

হাইতির অভিবাসীদের দেশে ফেরত পাঠানোর প্রতিবাদে পদত্যাগ করেছেন দেশটির জাতিসংঘে নিযুক্ত বিশেষ দূত। হাইতির সিনিয়র কূটনীতিক এর নিন্দা জানিয়ে একটি বিবৃতিতে বলেছেন, ভূমিকম্পে বিধ্বস্ত এবং রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতায় পালিয়ে যাওয়া অভিবাসীদের প্রত্যাবর্তনের সিদ্ধান্ত অমানবিক। যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস সীমান্ত শহরের একটি ব্রিজের নিচে কমপক্ষে ১৩ হাজার হাইতির অভিবাসী আশ্রয় নিয়েছিলেন গত সপ্তাহে। তাদেরকে যুক্তরাষ্ট্র থেকে বিমানযোগে ফেরত পাঠানো হয়েছে হাইতিতে।

এর আগে তারা ওই সেতুর নিচে ৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় তাঁবুতে অবস্থান করছিলেন। স্থানীয় কর্মকর্তারা তাদেরকে খাদ্য এবং পর্যাপ্ত পানি নিষ্কাশন ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে একরকম লড়াই চালিয়ে যান। রোববার থেকে টেক্সাসের ক্যাম্প থেকে কমপক্ষে ১৪০১ জন অভিবাসীকে হাইতিতে ফেরত পাঠিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। এর প্রতিবাদে জাতিসংঘে নিযুক্ত দেশটির বিশেষ প্রতিনিধি পদত্যাগ করেছেন।

পদত্যাগপত্রে বলেছেন, এসব অভিবাসীকে খাদ্য এবং অন্যান্য মৌলিক চাহিদা পূরণে সক্ষম নয় হাইতি। এর ফলে দেখা দেবে এক ভয়াবহ মানবিক বিপর্যয়। তিনি এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, হাইতির বিশেষ প্রতিনিধির জন্য দেশের এই অবস্থা জাতিসংঘে তুলে ধরার জন্য যথেষ্ঠ সুযোগ ছিল। কিন্তু তিনি তা করেননি। বিবৃতিতে বলেছেন, সীমান্ত অঞ্চলে যে ভয়াবহ দৃশ্য দেখা গেছে তা মর্মান্তিক। সেখানে অভিবাসীদের ঘেরাও করে রাখা জাতিসংঘের অশ্বারোহী বাহিনী ওই অঞ্চলে আর তদারকি করবে না। কিন্তু বার্তা সংস্থা এএফপির ফটোসাংবাদিক যে চিত্র ধারণ করেছেন এ সপ্তাহের শুরুতে, তাতে ওই শিবিরের অভিবাসীদের অবর্ণনীয় দুর্দশার কথা ফুটে উঠেছে।

যাযাদি/এসআই

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে