প্রেস ক্লাবের সামনে ছাত্রদল-পুলিশ সংঘর্ষ, টিয়ারশেল লাঠিচার্জ

প্রেস ক্লাবের সামনে ছাত্রদল-পুলিশ সংঘর্ষ, টিয়ারশেল লাঠিচার্জ

জাতীয় প্রেসক্লাবে ছাত্রদলের পূর্বঘোষিত কর্মসূচি ঘিরে ওই এলাকায় পুলিশের সঙ্গে ব্যাপক সংঘর্ষ চলছে। রোববার (২৮ ফেব্রুয়ারি) বেলা সোয়া ১১টার দিকে এই সংঘর্ষ শুরু হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীদের ভাষ্য, কর্মসূচি ঘিরে সকাল ১০টার দিক থেকে ছাত্রদল ও বিএনপির নেতা-কর্মীরা জাতীয় প্রেসক্লাব এলাকায় জড়ো হতে থাকেন। বেলা সোয়া ১১টার দিকে তাঁরা রাস্তায় নামেন। তখন তাঁদের বাধা দেয় পুলিশ। একপর্যায়ে পুলিশ লাঠিপেটা শুরু করে। পুলিশের লাঠিপেটায় নেতা-কর্মীরা ছত্রভঙ্গ হয়ে যান। তারপর নেতা-কর্মীরা পুলিশকে লক্ষ করে ইটপাটকেল ছুড়তে থাকেন। ভাঙচুর করেন আশপাশে। তখন তাঁদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ ফাঁকা গুলি ও কাঁদানে গ্যাসের শেল নিক্ষেপ করে। নেতা-কর্মীদের যাকে সামনে পায়, তাকে লাঠিপেটা করে। চলে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া।

তবে ছাত্রদলের এই কর্মসূচির পূর্ব অনুমতি ছিল না বলে অভিযোগ পুলিশের। ছাত্রদলের নেতাদের সঙ্গে পুলিশ কথা বলতে প্রেসক্লাবের ভেতরে গেলেও সেখান থেকে কোনো সমাধান আসেনি। তখনও প্রেসক্লাবের প্রধান ফটক বন্ধ ছিল।

এরপর বেলা ১১টার কিছু পর ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা প্রেসক্লাবের ভেতর থেকে বাইরে বেরিয়ে এসে সড়কে অবস্থান নেয়। তখন পুলিশ তাদের সড়ক থেকে উঠে যাওযার কথা বললেও তারা যেতে রাজি হননি। এরপরই পুলিশ তাদের ধাওয়া দিয়ে তুলে দেওয়ার চেষ্টা করলে মূলত সংঘর্ষের সূত্রপাত।

পুলিশের রমনা বিভাগের উপকমিশনার মো. সাজ্জাদুর রহমান রহমান সাংবাদিকদের বলেন, ছাত্রদলের এ কর্মসূচির বিষয়ে কোনো অনুমতি নেওয়া ছিল না। সেজন্য আমরা তাদের চলে যেতে বলি।

যাযাদি/এসএইচ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে