মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

সংবাদ সংক্ষেপ

সংবাদ সংক্ষেপ

কংগ্রেস নেতা সোমেন

মিত্র মারা গেছেন

যাযাদি ডেস্ক

ভারতের বর্ষীয়ান কংগ্রেস নেতা তথা পশ্চিমবঙ্গ প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি সোমেন মিত্র মারা গেছেন। বুধবার গভীর রাতে দক্ষিণ কলকাতার বেলভিউ হাসপাতালে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। তার বয়স হয়েছিল ৭৮ বছর।

তার মৃতু্যতে বর্ণাঢ্য এক রাজনৈতিক জীবনের আবসান ঘটল। রাজনৈতিক জীবনে অনেক উত্থান-পতনের মাঝেও পশ্চিমবঙ্গের মানুষের কাছে 'ছোড়দা' হিসেবে পরিচিত ছিলেন সোমেন মিত্র। এদিন রাতে তার মৃতু্যর খবরে গভীর শোকের ছায়া নেমে আসে প্রদেশ কংগ্রেসসহ সব রাজনৈতিক মহলে।

দীর্ঘদিন ধরেই হৃদযন্ত্রের সমস্যায় ভুগছিলেন সোমেন মিত্র। গত ২১ জুলাই বাড়িতে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়লে পারিবারিক চিকিৎসকের পরামর্শে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রক্তে ক্রিয়েটিনিনের মাত্রা বেড়ে যাওয়ায় আইসিইউতে স্থানান্তর করতে হয় তাকে। জ্বর-সর্দি থাকায় করোনা পরীক্ষাও করা হয় তার। যদিও রিপোর্ট নেগেটিভ আসে।

এরই মাঝে শনিবার থেকে সোমেন মিত্রর অবস্থার আরও অবনতি ঘটে। তার কিডনি কাজ করছিল না, হৃদস্পন্দনের মাত্রাও কমে যায়। বুধবার বিকালে তার অবস্থার আরও অবনতি ঘটলে তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়।

১৯৪১ সালে জন্মগ্রহণ করেন সোমেন্দ্রনাথ মিত্র। ১৯৭২ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত প্রতিবারই শিয়ালদহ বিধানসভা নির্বাচন কেন্দ্র থেকে জয়লাভ করেন বর্ষীয়ান এই কংগ্রেস নেতা। ১৯৯২ থেকে ১৯৯৮ সাল পর্যন্ত প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি ছিলেন তিনি। কিন্তু ২০০৮ সালে কংগ্রেস ছেড়ে দিয়ে 'প্রগতিশীল ইন্দিরা কংগ্রেস' নামে নতুন একটি দল গঠন করেন। ২০০৯ সালে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আহ্বানে তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দেন। সংবাদসূত্র :হিন্দুস্তান টাইমস

মাস্ক না পরলে কংগ্রেসে

ঢুকতে দেওয়া হবে না

যাযাদি ডেস্ক

মাস্ক না পরলে মার্কিন কংগ্রেসের নিম্নকক্ষে কাউকে ঢুকতে দেওয়া হবে না। টেক্সাস থেকে নির্বাচিত রিপাবলিকান লুই গোমার্টের দেহে গত বুধবার করোনাভাইরাস শনাক্তের কয়েক ঘণ্টা পর হাউস স্পিকার ন্যান্সি পেলসি নিম্নকক্ষের ভেতরে প্রত্যেক সদস্য ও কর্মীদের মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক ঘোষণা করেন। নিম্নকক্ষের 'চেম্বারে' বক্তব্য দেওয়ার সময় কেবল মাস্ক খুলতে পারবেন সদস্যরা। অধিবেশনে অংশ নেওয়া প্রত্যেককে মাস্ক পরতে হবে। এমনকি সেখানে কর্মরত সব কর্মীকেও মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। নিম্নকক্ষে উপস্থিত অন্য সবার স্বাস্থ্য নিরাপত্তার কথা ভেবে মাস্ক পরার নিয়মকে সম্মান করতে হবে বলেছেন পেলসি। হাউস ফ্লোরে পেলসি বলেন, 'নিম্নকক্ষের ভেতরে নির্বাচিত সদস্য ও কর্মীদের মাস্ক পরতেই হবে।' যারা তা মানবেন না তারা নিম্নকক্ষের মর্যাদা ক্ষুণ করেছেন ভেবে নেওয়া হবে। তিনি বলেন, 'মাস্ক পরতে ব্যর্থ হলে তা গুরুতর শৃঙ্খলাভঙ্গ হিসেবে দেখা হবে। সেই অনুযায়ী তাকে কক্ষ থেকে বের করে দেওয়ার ক্ষমতা আছে স্পিকারের।' সংবাদসূত্র : বিবিসি

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

Copyright JaiJaiDin ©2020

Design and developed by Orangebd


উপরে