• বৃহস্পতিবার, ২৮ জানুয়ারি ২০২১, ১৩ মাঘ ১৪২৭

আব্দুল কাদের মির্জার দাবি

শেখ হাসিনা না চাইলে 'সত্যবচন' চালিয়ে যেতে পারতেন না

শেখ হাসিনা না চাইলে 'সত্যবচন' চালিয়ে যেতে পারতেন না
আব্দুল কাদের মির্জা

দলীয় সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা না চাইলে নিজের 'সত্যবচন' চালিয়ে যেতে পারতেন না বলে মন্তব্য করেছেন নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মেয়রপ্রার্থী আব্দুল কাদের মির্জা। এসব 'সত্যবচনে' বড় ভাই আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের সমর্থন রয়েছে বলে মনে করেন তিনি।

বুধবার বিকালে বসুরহাট পৌরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ডে অনুষ্ঠিত নির্বাচনী কর্মিসভা শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে গত কয়েকদিন থেকে নিজ দল, প্রশাসন ও নির্বাচন কমিশন নিয়ে দেশব্যাপী আলাচিত-সমালোচিত আব্দুল কাদের মির্জা বলেন, 'উনার কাছে নিশ্চয়ই খবর আছে। উনি না চাইলে আমার পক্ষে সম্ভব নাকি এটা। আমার নেত্রী না চাইলে প্রথমে তো আমার নৌকা প্রতীকই নিয়ে যেত। নৌকা প্রতীক নিয়া যাইব না? যে তোমার নৌকা প্রতীক নিয়া গেলাম। তো এরপরে আমি আর আছিনি? এটা তো

\হউনি সেখানে বসে বললেই চলে। উনি এখানে ডান্ডা ঘুরানও লাইগতো ন (লাগবে না), পুলিশও লাইগতো ন (লাগবে না)।'

নিজের বড় ভাই আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের দলের বড় দায়িত্বে

থাকায় অনেক সত্য বলতে না পারলেও তার 'সত্যবচনে' ভাইয়ের সমর্থন রয়েছে বলে মনে করেন আব্দুল কাদের মির্জা। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, 'আমি তো সত্য কথা বলতেছি। উনি তো ন্যায়-নীতিসম্পন্ন লোক। উনি ন্যায়-নীতির পক্ষে আছেন। উনি হয়তো বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সেক্রেটারি থাকার কারণে অনেক সত্য কথা বলতে পারছেন না। উনি তো নীতি-নৈতিকতা নিয়ে রাজনীতি করেন। উনি আমার বিরুদ্ধে নাই। আমাকে এ ধরনের চাপ সৃষ্টি করে নাই যে, তুমি এটা বলতে পারবা না। উনি বইলছে যে, তুমি তোমার ভোটটা করো। এইটুকু বইলছে। আমার সাথে আর এর বাইরে কথা হয় নাই।'

সুষ্ঠু নির্বাচনের বিষয়ে ভাই ওবায়দুল কাদের ও নির্বাচন কমিশনার শাহাদাত হোসনেকে গত দুইদিন বিভিন্ন বক্তব্যে সতর্কবার্তা দেওয়ার প্রসঙ্গে আব্দুল কাদের মির্জা বলেন, 'এইটা কৌশলগত কারণে করতে হয়। বুঝেন তো।'

নোয়াখালী ও ফেনী জেলায় দলে অপরাজনীতি চলছে মন্তব্য করে এ বিষয়ে নিজের প্রস্তাবনা তুলে ধরে আব্দুল কাদের মির্জা জানান, ১৬ জানুয়ারি নির্বাচনের পর দলীয় সভানেত্রীর সঙ্গে সাক্ষাতের চেষ্টা করে এ বিষয়ে আরও কিছু কথা বলার চেষ্টা করবেন তিনি। তা সম্ভব না হলে জাতীয় প্রেসক্লাবে সাংবাদিক সম্মেলন করে গণমাধ্যমে সব খুলে বলবেন।

এর আগে পৌরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ডে কর্মিসভায় আব্দুল কাদের মির্জা নোয়াখালী ও ফেনীর কিছু আওয়ামী লীগ নেতার বিরুদ্ধে 'নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্রে' লিপ্ত থাকার অভিযোগ তোলেন। এ সময় তিনি নির্বাচন কমিশন ও স্থানীয় প্রশাসনের সমালোচনা করে ভোট চুরি ঠেকাতে লাঠিসোটা নিয়ে নেতাকর্মীদের প্রস্তুত থাকার আহ্বান জানান। মির্জা কাদের শ্লোগান দেন- 'বাঁশের লাঠি তৈয়ার করো, ভোটচোর খতম করো।'

এ সময় আব্দুল কাদের মির্জা বলেন, 'নির্বাচন নিয়ে ষড়যন্ত্র-চক্রান্ত বিভিন্ন দিক থেকে হচ্ছে। নির্বাচন কমিশনার শাহাদাত সাহেব গতকাল (পরশু) আসার কথা ছিল, কিন্তু অদৃশ্য কারণে আসেননি। এটা একটা ষড়যন্ত্র, এটা একটা চক্রান্তের অংশ।'

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে