এক দিনে আরও ১৬৩ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

এক দিনে আরও ১৬৩ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

দেশে এডিস মশাবাহিত ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১৬৩ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এদের মধ্যে ১৪০ জন রাজধানী ও বাইরে ২৩ জন ভর্তি হয়েছেন। এ নিয়ে সারাদেশের হাসপাতালে ভর্তি মোট ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ১৯১ জনে। এর মধ্যে ঢাকার হাসপাতালে ৯৮৮ ও বাইরের বিভিন্ন বিভাগে ২০৩ জন ভর্তি রয়েছেন।

শুক্রবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমারজেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুমের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ডা. মো. কামরুল কিবরিয়া স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

১ জানুয়ারি থেকে ১৬ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত দেশে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি রোগীর সংখ্যা ১৫ হাজার ২২৮ জন। তাদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১৩ হাজার ৯৮০ জন। ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৫৭ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে ভর্তি ১৬৩ জনের মধ্যে ঢাকায় সরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত হাসপাতালে ৩৬ জন ও বেসরকারি হাসপাতাল এবং ক্লিনিকে ১০৪ জন ভর্তি হন। এছাড়া ঢাকার বাইরে বিভিন্ন বিভাগে ২৩ জন ভর্তি হন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সরকারি হাসপাতালগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি স্যার সলিমুলস্নাহ (মিডফোর্ট) হাসপাতালে ২১ জন, সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ১০ জন, মুগদা মেডিকেল কলেজে ৩ জন, কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে ১ জন ও শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে ১ জন করে রাজধানীর সরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত ১২টি হাসপাতালে ৩৬ ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী ভর্তি হয়েছেন।

এর বাইরে গত এক দিনে ঢাকার বেসরকারি প্রতিষ্ঠান উত্তরা আধুনিক মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১১ জন, ইবনে সিনা হাসপাতালে (ধানমন্ডি) ১১ জন, বারডেম হাসপাতালে ৯ জন, সেন্ট্রাল হাসপাতাল (ধানমন্ডি) ৮ জন, আজগর আলী হাসপাতালে ৮ জন, ইসলামী ব্যাংক সেন্ট্রাল হাসপাতালে (কাকরাইল) ৬ জন ও আদ্বদীন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৬ জন ডেঙ্গু ফিবারের রোগী ভর্তি হয়েছেন। বাকিরা অন্যান্য হাসপাতাল-ক্লিনিকে ভর্তি হয়েছেন। গত এক দিনে রাজধানীর বেসরকারি চিকিৎসা কেন্দ্রে ১৪০ জন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি হয়েছেন।

চলতি বছর এডিস মশাবাহিত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মোট হাসপাতালে ভর্তি ১৫ হাজার ২২৮ জনের মধ্যে জানুয়ারিতে ৩২ জন, ফেব্রম্নয়ারিতে ৯, মার্চে ১৩, এপ্রিলে তিন, মে মাসে ৪৩, জুনে ২৭২ এবং জুলাইয়ে ২ হাজার ২৮৬, আগস্টে ৭ হাজার ৬৯৮ এবং ১৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ৪ হাজার ৮৭২ জন রোগী ভর্তি হন।

মোট ভর্তি রোগীর মধ্যে ৫৭ জনের মৃতু্য হয়েছে। এর মধ্যে ১২ জন জুলাইয়ে, ৩৪ জন আগস্টে ও ১৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ১১ জন মারা গেছেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে