করোনার প্রভাবে ব্যবসায় ধস প্রতিমা কারিগরদের

শিবগঞ্জে ৫৯ মন্ডপে পূজা কুষ্টিয়ায় দুর্বৃত্তদের হানা
করোনার প্রভাবে ব্যবসায় ধস প্রতিমা কারিগরদের

আগামী ১১ অক্টোবর থেকে সারাদেশে শুরু হচ্ছে বাঙালি হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রাণের উৎসব শারদীয় দুর্গোৎসব। আর এ উৎসবের বড় একটি অংশ জুড়ে রয়েছে প্রতিমা শিল্পীরা। তবে দাম না পাওয়ায় কুড়িগ্রামের রাজারহাটের প্রতিমার কারিগররা কষ্টে রয়েছেন। বগুড়ার শিবগঞ্জে এবাব ৫৯ মন্ডপে পূজা অনুষ্ঠিত হবে। এদিকে কুষ্টিয়ার একটি পূজা মন্ডপে দুর্বৃত্তদের হামলার খবর পাওয়া গেছে। প্রতিনিধিদের পাঠানো বিস্তারিত খবর-

রাজারহাট (কুড়িগ্রাম) : কুড়িগ্রামে শারদীয় দুর্গোৎসবকে ঘিরে এসব প্রতিমা শিল্পীর ব্যস্ততা বাড়লেও প্রতিমার সঠিক দাম না পাওয়া এবং করোনার প্রভাবে খুশি নন এই সম্প্রদায়ের কারিগররা। কুড়িগ্রাম জেলা শহরের বেশ কয়েকটি পালপাড়া আর কুমারপাড়ায় গিয়ে দেখা যায়, এবারের দুর্গোৎসবকে ঘিরে প্রতিমা কারিগররা পার করছেন ব্যস্ত সময়। একেকজন কারিগর ৮-১২টি করে প্রতিমার অর্ডার নিয়েছেন। যা বিগত বছরগুলোতে ছিল ১৫-২২টি। জেলার বাইরে থেকে প্রতিমার অর্ডার পেলেও গত বছর থেকে করোনার প্রভাবে সেটিও বন্ধ হয়ে গেছে। তবে লাভ কম হলেও উৎসব কমিটির পছন্দের চাহিদামতো তারা প্রতিমা গড়ছেন নিজ হাতের ছোঁয়ায়।

কাঁঠালবাড়ির প্রতিমা কারিগর শ্রী কালিকান্ত পাল বলেন, 'গত বছর করোনার কারণে জেলার বাইরের পুজোর প্রতিমার তেমন অর্ডার নিতে পারিনি, এ বছরও আশানুরূপ অর্ডার পাইনি' একই এলাকার আরেক প্রতিমা কারিগর শ্রী সুশীল পাল বলেন, 'প্রতিমার সরঞ্জামের দাম গত বছরের চেয়ে এ বছর আরও বেড়েছে, সেই তুলনায় প্রতিমার দাম তেমন পাচ্ছি না আমরা।'

শিবগঞ্জ (বগুড়া): বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলায় ১২টি ইউনিয়ন ১টি পৌরসভায় এবার ৫৯টি পূজা মন্ডপে বিপুল উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে শারদীয় দুর্গা পূজা পালনের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সুবির কুমার দত্ত জানান, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে গতবার সীমিত পরিসরে পূজা পালিত হয়েছে।

সাদুল্যাপুর গ্রামের প্রতিমা শিল্পী শ্রী হারাধন মহন্ত বলেন, 'গত বছর করোনাভাইরাসের কারণে অনেক মন্ডপে প্রতিমা গড়তে অনেক কম অর্থ বরাদ্দ রেখেছিলেন পূজা উদযাপন কমিটির নেতৃবৃন্দ। পক্ষান্তরে এবার করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব কমে আসায় এবার প্রতিমা গড়তে অনেক বেশি অর্থ বরাদ্দ রেখেছেন।' এ ব্যাপারে ইউএনও উম্মে কুলসুম শম্পা বলেন, 'হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের প্রধান ধর্মীয় উৎসব দুর্গা পূজা পালনে সরকার সব ধরনের সহযোগিতার নির্দেশনা প্রদান করেছেন।

কুষ্টিয়া : কুষ্টিয়ায় একটি পুজা মন্ডপে রাতের আঁধারে প্রতিমা ভাঙচুর করেছে দুর্বৃত্তরা। শহরের আড়ুয়াপাড়ার আইকা সংঘ পূজা মন্ডপে মঙ্গলবার দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে। কর্তৃপক্ষ বুধবার সকালে মন্ডপে গিয়ে প্রতিমা ভাঙার এ দৃশ্য দেখতে পান। এ ঘটনায় সনাতন ধর্ম্বাবলম্বীসহ স্থানীয় সচেতন মহলে তীব্র ক্ষোভ দেখা দিয়েছে।

কুষ্টিয়া সদর উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক নিলয় কুমার সরকার জানান, এ মন্ডপে হিন্দু মুসলিম একসঙ্গে পূজো করে। পূজা উদযাপনের জন্য মুসলমানরাও টাকা দেন এই মন্ডপে। স্থানীয়দের সম্প্রীতির বন্ধন নষ্ট করতে কোন দুর্বৃত্তরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে। জড়িতদের আইনের আওতায় আনতে প্রশাসনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন আইকা সংঘ মন্দিরের সভাপতি প্রদীপ কুমার সাহা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে