logo
রোববার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ ৫ আশ্বিন ১৪২৭

  ক্রীড়া ডেস্ক   ২৮ ডিসেম্বর ২০১৯, ০০:০০  

ঘরের মাঠে চেলসির লজ্জার হার

রেকর্ড ৩৫ ম্যাচে অপরাজিত লিভারপুল

রেকর্ড ৩৫ ম্যাচে অপরাজিত লিভারপুল
বৃহস্পতিবার রাতে লেস্টার সিটির মাঠে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের খেলায় ইয়ুর্গেন ক্লপের দলের বিপক্ষে উড়ন্ত জয় তুলে নিয়েছে লিভারপুল। জয়ের পর অলরেডদের উচ্ছ্বাস -ওয়েবসাইট
স্বপ্নের ফুটবল খেলছে লিভারপুল। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে দারুণ দাপটে এগিয়ে যাচ্ছে অলরেডরা। বৃহস্পতিবার রাতে লেস্টার সিটির মাঠ থেকেও উড়ন্ত জয় নিয়ে ফিরেছে তারা। বড়দিনের ছুটি শেষে ৪-০ গোলে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে ইয়ুর্গেন ক্লপের দল। এবারের ইংলিশ লিগের একমাত্র অপরাজিত দল লিভারপুল। এনিয়ে টানা নবম জয় তুলে নিয়েছে দলটি। সব মিলিয়ে ক্লাব রেকর্ডটাকে আরও সমৃদ্ধ করেছে লিভারপুল। টানা ৩৫ ম্যাচ অপরাজিত আছে তারা। শিরোপার জয় তাদের জন্য যেন সময়ের ব্যাপার মাত্র।

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের অঘটনের শিকার হয়েছে জায়ান্ট চেলসি। বৃহস্পতিবার রাতে ঘরের মাঠে দুর্বল দল সাউদাম্পটনের কাছে ০-২ হেরে গেছে ফ্রাঙ্ক ল্যাম্পার্ডের শিষ্যরা। বৃহস্পতিবার রাতে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের অন্য ম্যাচে দুর্দান্ত জয় পেয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ওল্ড ট্রাফোর্ডে নিউক্যাসল ইউনাইটেডকে ৪-১ গোলে হারিয়েছে ওলে গানার সোল্‌জকায়ারের শিষ্যরা। বোর্নমাউথ আটকে (১-১) দিয়েছে আর্সেনালকে।

লেস্টারের মাঠে ম্যাচে ৩১তম মিনিটে এগিয়ে যায় লিভারপুল। গোলদাতা ব্রাজিলিয়ান রিক্রুট ফিরমিনো। ৭১তম মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন জেমস মিলনার। ২ মিনিট না যেতেই নিজের দ্বিতীয় গোলটি তুলে নেন ফিরমিনো। ম্যাচের ৭৮তম মিনিটে চেম্বারলেইনের গোল বড় ব্যবধানে জয় নিশ্চিত করে লিভারপুলের।

ওল্ড ট্রাফোর্ডে ম্যাচের শুরু থেকেই আধিপত্য বিস্তার করে খেলতে থাকে ম্যানইউ। তবে ওল্ড ট্রাফোর্ডকে স্তব্ধ করে স্রোতের বিপরীতে লিড নিয়ে নেয় নিউক্যাসল। ম্যাচের ১৭ মিনিটে জোয়েলিন্টনের অ্যাসিস্টে গোল করেন ম্যাথিউ লংস্ট্যাফ। তবে অতিথিদের স্বস্তি খুব বেশিক্ষণ স্থায়ী হতে দেননি অ্যান্থনি মার্শিয়াল। আন্দ্রেস পেরেইরার বাড়ানো বল থেকে স্কোরকার্ডে নাম তোলেন মার্শিয়াল। প্রথমার্ধেই ব্যবধান ৩-১ করেন ম্যাসন গ্রিনউড ও মার্কাস রাশফোর্ড। ৩৬ মিনিটে গ্রিনউডের পর ৪১ মিনিটে ব্যবধান বাড়ান রাশফোর্ড। বিরতি থেকে ফিরেই নিউক্যাসলের জালে আবারো বল জড়ায় রেড ডেভিলরা। ৫১ মিনিটের মাথায় দলের চতুর্থ ও নিজের দ্বিতীয় গোলটি করেন অ্যান্থনি মার্শিয়াল।

স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে ম্যাচের শুরু থেকেই যেন নিজেদের ছায়া হয়ে খেলতে থাকে চেলসি। প্রথমার্ধেই লিড নিয়ে নেয় অতিথিরা। ৩১তম মিনিটে প্রায় ৩০ গজ দূরে বল পেয়ে দ্রম্নত ডি-বক্সে ঢুকে বাঁ পায়ের কোনোকুনি শটে লক্ষ্যভেদ করেন আইরিশ ফুটবলার মাইকেল ওবাফেমি।

পিছিয়ে পড়ার পর আক্রমণের গতি বাড়ায় দ্য বস্নুজ। কিন্তু প্রথমার্ধে গোলের দেখা পায়নি। দ্বিতীয়ার্ধেও বল দখলের লড়াইয়ে এগিয়ে থাকে তারা। তবে ফরোয়ার্ডদের ব্যর্থতা ও প্রতিপক্ষের রক্ষণের দৃঢ়তায় ম্যাচে ফিরতে পারেনি স্বাগতিকরা। ৭৩ মিনিটে দলীয় আক্রমণ থেকে ব্যবধান দ্বিগুণ করে সাউদাম্পটন। দলের জয়সূচক গোলটি করেন নাথান রেডমন্ড। চলতি মৌসুমে চেলসির সপ্তম হার এটি। আর ঘরের মাঠে শেষ চার ম্যাচের তিনটিতেই হারলো তারা।

এ অবস্থায় ১৮ ম্যাচে ১৭ জয়ে ৫২ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে লিভারপুল। ৩৯ পয়েন্ট নিয়ে এরপরই লেস্টার সিটি। ১৮ ম্যাচে ৩৮ পয়েন্ট নিয়ে তিনে ম্যানচেস্টার সিটি। ১৯ ম্যাচে ২৮ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার সাতে উঠে গেল ম্যানইউ। সমান ম্যাচে ২৫ পয়েন্ট নিয়ে দশে নিউক্যাসল। ১৯ ম্যাচে ৩২ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের চার নম্বরে আছে চেলসি। ১৪ নম্বরে উঠে এলো সাউদাম্পটন।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
close

উপরে