চকরিয়ায় মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর ঘর পেল ৮০ ভুমিহীন পরিবার

চকরিয়ায় মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর ঘর পেল ৮০ ভুমিহীন পরিবার

মুজিবশতবর্ষ উপলক্ষ্যে গৃহহীনদের জন্য জমি ও ঘর নির্মানের অংশ হিসাবে প্রথম দাপে ৮০টি পরিবারের মাঝে জমির দলিল ও ঘরের কাগজ পত্র হস্তান্তার করা হয়। শনিবার সকালে কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলা পরিষদ মোহনা মিলনায়তনে ভিডিও কনফারেন্সের এই হস্তান্তার অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

হস্তান্তার অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কক্সবাজার ১(চকরিয়া- পেকুয়া) আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ¦ জাফর আলম, চকরিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফজলুল কবির সাঈদী , উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দ শামসুল তাবরীজ , ভাইস চেয়ারম্যান মকছুদুল হক ছোট্টু, নারী ভাইস চেয়ারম্যান জেসমিন হক জেসি চৌধুরী , উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভুমি) মো, তানভীর হোসেন, চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের , চকরিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সভাপতি জােেহদুল ইসলাম লিটু প্রমূখ। এছাড়া ৮০টি ঘরের মালিক ও বিভিন্ন শ্রেনীপেশার ৩শতাধিক প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনের পর পরই তাঁর নির্দেশে চকরিয়া উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে নির্মিত প্রথমদাপে ৮০টি ঘরের মালিকদের নিকট জমির দলিল ও ঘরের কাগজ পত্র হস্তান্তর করা হয় । কক্সবাজার ১(চকরিয়া- পেকুয়া) আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ¦ জাফর আলম ও উপস্থিত অতিথিরা আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘরের মালিকদের নিকট জমির দলিল ও অন্যান্য কাগজ পত্রসহ একটি করে ফাইল উপকারভোগীর হাতে হস্তান্তর করেন।

চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দ শামসুল তাবরীজ বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী তথা মুজিবশতবর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের অর্থবরাদ্দের আলোকে চকরিয়া উপজেলায় প্রথমধাপে ৮০ভুমিহীন পরিবারের মাঝে নতুন ঘর হস্তান্তর করা হয়েছে। হস্তান্তর অনুষ্ঠানে এদিন প্রত্যেক পরিবারের কাছে চাবি হস্তান্তর, কবুলিয়ত দলিল, নামজারী খতিয়ানসহ অন্যান্য কাগজপত্র উপকারভোগীর হাতে তুলে দেওয়া হয়। তিনি আরও বলেন, পরবর্তীতে ২য় দাপে উপজেলার ১৮টি ইউনিয়নে ১০০টি ও একইসঙ্গে উপজেলার নৃতাত্ত্বিক জনগোষ্ঠিও পাবে নতুন ২০টি সেমি পাকা ঘর।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে