গৌরীপুরে মাওহা পল্লীর সড়কে তালের বীজ রোপন

গৌরীপুরে মাওহা পল্লীর সড়কে তালের বীজ রোপন

বর্ষায় প্রধান আতংকের নাম বজ্রপাত। বজ্রপাতে প্রতিনিয়ত মারা যাচ্ছে মানুষ। প্রাকৃতিক এই দূর্যোগের নেই কোন প্রতিরোধ ব্যবস্থা। জীবনের তাগিদে ঘর থেকে বের হয়ে অপমৃত্যুর শিকার হচ্ছেন শত শত মানুষ। বিশেষজ্ঞদের মতে প্রাকৃতিক এই বিপর্যয় থেকে মানুষকে রক্ষা করতে পারে তালগাছ। অনেক উচু হওয়ার কারণে তালগাছ বজ্রপাত প্রতিরোধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। যে কারণে বিগত সময়ে সরকারি উদ্যোগেও সারাদেশে সড়কের পাশে তালবীজ বপন করা হয়েছিল। রক্ষণাবেক্ষণের অভাবে যার সিংহভাগই আলোর মুখ দেখেনি।

বজ্রপাত ও প্রাকৃতিক দূর্যোগ মোকাবিলার প্রস্তুতি হিসেবে ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলা মাওহা ইউনিয়নের নয়ানগর গ্রামের যুবকেরা বিভিন্ন বাড়ি থেকে তালের বীজ সংগ্রহ করে তা সড়কের পাশে রোপন করেছেন।

জানা যায়, সুরিয়া নদীর কোলঘেষা নয়ানগর থেকে বাউশালী পাড়া ও নিজমাওহা গ্রামের ১ কিলোমিটার সড়কে পাঁচ শত তাল বীজ রোপন করেছেন গ্রামের যুবকেরা।

কাজটির উদ্যোক্তা আজহারুল করিম জানান- বজ্রপাতে প্রায়ই গ্রামের কৃষকেরা মারা যান, আহতও হয়েছেন অনেকে। তালগাছ বজ্রপাত প্রতিরোধে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। তাই বিগত একমাস যাবত তাঁরা বিভিন্ন বাড়ি থেকে তাল বীজ সংগ্রহ করেছেন। শনিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকে তারা এ তাল বীজ সড়কের পাশে রোপন করেন। একাজে সহযোগিতা করেন সোহেল রানা, শাকিল মিয়া, ইকবাল হাসান, শিপু মিয়াসহ আরও অনেকেই।

গৌরীপুর প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. সোহেল রানা বলেন- তালগাছ বজ্রপাত ও প্রাকৃতিক দূর্যোগ মোকাবিলা করতে সক্ষম। ইতিপূর্বে সরকারিভাবে গ্রামীণ সড়কে তালবীজ বপন করা হয়েছিল। এমন একটি মহতি কাজের জন্য তিনি নয়ানগর গ্রামের যুবকদের ধন্যবাদ জানান।

গৌরীপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা লুৎফুন্নাহার বলেন- দেশে তালগাছের সংখ্যা এখন অনেক কমে গেছে। যেকারণে বজ্রপাত ও প্রাকৃতিক দূর্যোগ বৃদ্ধি পেয়েছে। তিনি এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানান।

যাযাদি/এসএইচ

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

সকল ফিচার

রঙ বেরঙ
উনিশ বিশ
জেজেডি ফ্রেন্ডস ফোরাম
নন্দিনী
আইন ও বিচার
ক্যাম্পাস
হাট্টি মা টিম টিম
তারার মেলা
সাহিত্য
সুস্বাস্থ্য
কৃষি ও সম্ভাবনা
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে