logo
বৃহস্পতিবার, ০৯ এপ্রিল ২০২০, ২৬ চৈত্র ১৪২৫

  য় আইন ও বিচার ডেস্ক   ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০০:০০  

পিতৃত্বকালীন সর্বোচ্চ ছুটি দেয়া ১২ দেশ

পিতৃত্বকালীন সর্বোচ্চ ছুটি দেয়া ১২ দেশ
ফিনল্যান্ড সম্প্রতি নতুন বাবাদের বেতনসহ সাত মাসের ছুটি দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ওইসিডির ২০১৮ সালের তথ্যানুযায়ী পিতৃত্বকালীন সর্বোচ্চ ছুটি দেয়া দশটি হলো:

জাপান

নতুন বাবা হওয়া উপলক্ষে পুরো এক বছরের (৫২ সপ্তাহ) ছুটি পেতে পারেন জাপানের বাবারা। এই সময় তারা ৩০.৪ সপ্তাহ কাজের সমান বেতন পান। তবে ২০১৭ সালে মাত্র ছয় শতাংশের মতো নতুন বাবা এই সুযোগ নিয়েছিলেন। কারণ অফিসে পর্যাপ্ত কর্মীর অভাব, চাকরিদাতারা কর্মীদের এই সুযোগ অফার করেন না, এমনকি অনেকে ছুটি নিয়ে চাকরিদাতাদের মনঃক্ষুণ্ন হওয়ার কারণ হতে না চান না।

দক্ষিণ কোরিয়া

জাপানের চেয়ে এক সপ্তাহ বেশি অর্থাৎ ৫৩ সপ্তাহে ছুটি পেতে পারেন দক্ষিণ কোরিয়ার বাবারা। তবে এই সময় তারা ১৫.৪ সপ্তাহের কাজের সমান বেতন পান।

লুক্সেমবার্গ

ইউরোপের ছোট্ট এই দেশে নতুন বাবাদের জন্য পিতৃত্বকালীন ছুটি বরাদ্দ আছে ১৯.৩ সপ্তাহ। এই সময় তারা ১৩.৬ সপ্তাহের সমান বেতন পান।

পর্তুগাল

ছুটি পাওয়া যায় ২২.৩ সপ্তাহের। তবে বেতন পান সাড়ে ১২ সপ্তাহের সমান।

সুইডেন

স্ক্যান্ডিনেভিয়ার এই দেশে নতুন বাবাদের জন্য ছুটি বরাদ্দ ১৪.৩ সপ্তাহের। এই সময় তারা ১০.৮ সপ্তাহের সমান বেতন পান।

নরওয়ে

১০ সপ্তাহ ছুটি দিয়ে ৯.৪ সপ্তাহের সমান বেতন দেয়া হয় নতুন বাবাদের।

আইসল্যান্ড

১৩ সপ্তাহ ছুটি নিতে পারেন বাবারা। পান ৮.৯ সপ্তাহের বেতন।

অস্ট্রিয়া

ইউরোপের এই দেশটিতে নতুন বাবারা ৮.৭ সপ্তাহের ছুটি কাটিয়ে ৬.৬ সপ্তাহের সমান বেতন পান।

ফিনল্যান্ড

বর্তমানে ৯ সপ্তাহের ছুটির বিপরীতে ৫.৭ সপ্তাহের সমান বেতন দেয়া হয়। তবে সম্প্রতি নতুন বাবাদের বেতনসহ সাত মাস ছুটি দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

জার্মানি

৮.৭ সপ্তাহ ছুটি কাটিয়ে ৫.৭ সপ্তাহের সমান বেকন পান নতুন বাবারা।

ফ্রান্স

এই দেশটিতে ছুটি নেয়া যায় অনেকদিনের, ২৮ সপ্তাহ! তবে এর বিপরীতে বেতন দেয়া হয় মাত্র ৫.৪ সপ্তাহের সমান।

বেলজিয়াম

ফ্রান্সের মতো বেলজিয়ামেও ছুটি নেয়ার সুযোগ বেশি (১৯.৩ সপ্তাহ)। কিন্তু বেতন পাওয়া যায় মাত্র পাঁচ সপ্তাহের সমান।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে