logo
বৃহস্পতিবার, ০৯ এপ্রিল ২০২০, ২৬ চৈত্র ১৪২৫

  আইন ও বিচার ডেস্ক   ১৭ মার্চ ২০২০, ০০:০০  

শিশুদের যৌন হয়রানির অভিযোগে ফরাসি ডাক্তারের বিচার শুরু

শিশুদের যৌন হয়রানির অভিযোগে ফরাসি ডাক্তারের বিচার শুরু
ইন্টারনেট অবলম্বনে
শত শত শিশুকে যৌন হয়রানি করার অভিযোগে বিচার শুরু হয়েছে ফরাসি এক ডাক্তারের। এ সব শিশুর মধ্যে তার নিজের ভাইয়ের মেয়েসহ অনেক রোগীও রয়েছে। অবসরপ্রাপ্ত ফরাসি সার্জন জোয়েল ল্য স্কোয়ারনেক তিন দশক ধরে এ নির্যাতন চালিয়ে আসছিলেন।

অন্তত ৩৪৯ জন শিশুকে হয়রানি করার অভিযোগ পাওয়া গেছে তার বিরুদ্ধে। এ সব শিশুর কারও কারও বয়স কেবল চার বছর। দেশটির ইতিহাসের সবচেয়ে বড় শিশু নির্যাতনের ঘটনা হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে এটিকে।

যে সব অভিযোগে তার বিচার শুরু হয়েছে তার মধ্যে ১৯৮৯ থেকে ১৯৯৯ সালের মধ্যে নিজের ভাইয়ের দুই মেয়ে, হাসপাতালের চার বছর বয়সি এক রোগী এবং ছয় বছর বয়সি এক প্রতিবেশীকে হয়রানির অভিযোগ রয়েছে।

এ সব অভিযোগের মধ্যে প্রতিবেশীর অভিযোগটি সবার আগে সামনে আসে ২০১৭ সালে। এরপর তদন্তে নেমে এমন শত শত শিশুকে নির্যাতনের অভিযোগ গোয়েন্দাদের সামনে আসে।

তদন্তকারীরা বলছেন, শিশুরা চিকিৎসার জন্য তার চেম্বারে আসার পর তাদের একা পেলেই যৌন হয়রানির চেষ্টা করতেন চিকিৎসক। কিছু যাতে মনে না থাকে এজন্য একেবারে অল্প বয়সের শিশুদের তিনি বেছে নিতেন বলেও জানিয়েছেন তদন্তকারীরা।

স্কোয়ারনেকের বাসায় তলস্নাশি চালিয়ে শিশু পর্নোগ্রাফির তিন লাখেরও বেশি ছবি পাওয়া গেছে। তদন্ত কর্মকর্তা এসব বিশ্লেষণ করেছেন যা আদালতে সাক্ষ্য হিসেবেও উপস্থাপন করা হতে পারে। একই সঙ্গে নিজের নোটবইয়ে ১৯৮৯ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত নিজের করা শিশু নির্যাতনের বিস্তারিত লিখেও রেখেছেন তিনি। বিচারের সময় এই নোটবই গুরুত্বপূর্ণ দলিল হিসাবে কাজ করবেন বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।

নোটবুকে নাম পাওয়া ২২৯ জনের সঙ্গে কথা বলেছে পুলিশ। এর মধ্যে ২০০ জন লিখিত অভিযোগ দায়ের করলে জানা যায়, ঘটনার সময় এদের ১৮১ জনই ছিল অপ্রাপ্তবয়স্ক। এখন পর্যন্ত ৩৪৯টি মামলা নিবন্ধিত হয়েছে চিকিৎসকের বিরুদ্ধে।

এর আগে গত বছরের নভেম্বর মাসে ৬৮ বছর বয়সি এই অবসরপ্রাপ্ত শৈল্য চিকিৎসকের বিরুদ্ধে শিশুর ওপর যৌন নির্যাতন করার অভিযোগ গঠন করা হয়।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
jjdin-hrch_cat_news-30-5