logo
শনিবার ২৪ আগস্ট, ২০১৯, ৯ ভাদ্র ১৪২৬

  উনিশ-বিশ ডেস্ক   ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০  

দঁাতের প্রতি লক্ষ রাখুন

১। প্রতিদিন দুবার দঁাত ব্রাশ করবেন। সকালে ঘুম থেকে উঠে আর রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে এই দুবার দঁাত ব্রাশ করুন। ডা. ফারহানা ইয়াসমিন চৌধুরী বলেন, ‘দঁাত ব্রাশ করারও একটি নিয়ম আছে। প্রথমে ওপরের পাটির দঁাত নিচের দিকে এবং নিচের পাটির দঁাত ওপরের দিকে ব্রাশ করতে হবে। একই ভাবে ভিতরের দঁাত ব্রাশ করতে হবে’।

২। দঁাত মাজার পর কিছুসময় মাড়ি মালিশ করা উচিত।

৩। হা করে ঘুমানোর অভ্যাস ত্যাগ করুন। এতে দঁাত ও মুখের রোগ বেড়ে যাওয়ার আশঙ্খা থাকে।

৪। বাচ্চাদের দঁাতের যতœ আরো বেশি করে নিতে হবে। দুধ দঁাত পড়ে যাওয়ার পর যে দঁাত বের হয় তা যাতে অসমানভাবে না ওঠে সেজন্য খেয়াল রাখতে হবে নতুন দঁাত বাচ্চারা যেন জিভ দিয়ে ঠেলা না দেয়।

৫। বিশেষ কিছু খাবার যেমনÑ পাউরুটি, বিস্কুট, কেক, টফি লজেন্স, আইসক্রিম ইত্যাদি খাওয়ার পর খুব ভালোভাবে দঁাত পরিষ্কার করতে হবে।

৬। অঁাশালো ও শক্ত খাদ্য যেমনÑ গাজর, পেয়ারা, আমড়া, আখ, আনারস, নাশপাতি, আপেল, নারকেল ইত্যাদি দঁাত ও মাড়ি সুস্থ রাখতে সাহায্য করে থাকে।

৭। লেবু, আমলকী, কমলা, টমেটো ও বিভিন্ন ধরনের শাক-সবজিতে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি ও অন্যান্য ভিটামিন থাকে। ভিটামিন সি দঁাতের ও মাড়ির জন্য উপকারী।

৮। দঁাত মাজার পর জিহŸাও নিয়মিত পরিষ্কার করবেন। জিহŸার ময়লা থেকে মুখে দুগর্ন্ধ সৃষ্টি হতে পারে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে