logo
শনিবার ২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ২৭ জুন ২০১৯, ০০:০০  

ঊর্মিলার এইসব দিন রাত্রি...

ধারাবাহিক কিংবা খন্ড নাটক- সব মাধ্যমেই দাপুটে উপস্থিতি মডেল ও অভিনেত্রী ঊর্মিলা শ্রাবন্তী করের। তবে একক এবং খন্ড নাটকের চেয়ে ধারাবাহিক নাটকেই বেশি অভিনয় করতে দেখা যায় এই লাক্সকন্যাকে। গত ঈদুলফিতরের বেশ কয়েকটি নাটকে সাবলীল অভিনয়ের জন্য সমালোচকদের প্রশংসা কুড়ান তিনি। সরব ছিলেন সম্প্রতি অনুষ্ঠিত শিল্পী সংঘের নির্বাচনেও। তবে নির্বাচনে অল্প ভোটের ব্যবধানে হেরে কিছুটা হতাশ তিনি। তবুও নিজের অভিনয়, ভালোলাগা-মন্দলাগাসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেছেন তারার মেলার সঙ্গে। লিখেছেন রায়হান রহমান

ঊর্মিলার এইসব দিন রাত্রি...
ঊর্মিলা শ্রাবন্তী কর
কাজের ব্যস্ততা। দম ফেলার ফুরসুরত নেই। আজ খন্ড নাটকে, কাল ধারাবাহিকে- এভাবেই চলছে ঊর্মিলা শ্রাবন্তী করের চলমান সময়। ফলে সামনা-সামনি বসে, হাতে এক কাপ কফি নিয়ে আড্ডা দেয়া হলো না। দারস্থ হতে হলো মুঠোফোনের। কথার পৃষ্ঠে কথা চললো মুঠোফোনের বদৌলতে।

এ কথা সে কথায় প্রশ্ন উঠলো, ধারাবাহিক ও খন্ড নাটক-দু'মাধ্যমেই কাজ করেছেন। তৃপ্তি মেটে কোন মাধ্যমে? 'সত্যি বলতে, আমি যখন যা করি সব কিছুই তৃপ্তি নিয়ে করি। যে কাজটি করতে আমার ভালোলাগে ওটাই করি। ইচ্ছের বিরুদ্ধে কোনো কাজে হাত দেই না।'- ঝটপট উত্তর দিলেন ঢাকাই নাটকের অন্যমত দর্শকপ্রিয় এ অভিনেত্রী।

একথা শেষ না হতেই মুঠোফোনে শোনা গেলো- 'ভাই ডান দিক দিয়ে যান।' বোঝাই যাচ্ছে, কথাটা ড্রাইভারকে বললেন। কথা বলতে বলতেই ছুঁটছেন গন্তব্যে। স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠে, যাচ্ছেন কোথায়? একগাল হেসে উত্তর দিলেন, 'আর কোথায়? শুটিংয়ে যাচ্ছি।'

এবার আসা যাক অন্য প্রসঙ্গে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হরহামেশাই উড়ে বেড়ায়- এখনকার ধারাবাহিকে নাকি ধারাবাহিকতা নেই। বিষয়টি ঊর্মিলার চোখে কেমন? উত্তরটা দিয়েছেন ঠিক এভাবে, 'ধারাবাহিক ও খন্ড নাটক দু'মাধ্যমেই সমান তালে কাজ করছি। সবসময় মনে হয়েছে গল্পের গ্রহণযোগ্যতার বিচারে খন্ড নাটক এগিয়ে। ব্যক্তিগতভাবে খন্ড নাটকে কাজ করতে ভালোলাগে। আর ধারাবাহিকে গল্পের গভীরতা থাকে না। চরিত্র বিন্যাস ঠিক মতো হয় না। সব মিলিয়ে ধারাবাহিক নাটকে ধারাবাহিকতা নেই, কথাটি সত্য। আর সময় সাপেক্ষ হওয়ার কারণে দর্শক ধরে রাখাও মুশকিল। সবাই ব্যস্ত। এ ব্যস্ত সময়ে যুতসই গল্প না হলে কেউ দেখবে না। তবে খন্ড নাটকে অল্প সময়ের মধ্যে ভালোমানের দৃশ্যায়ন করা হয়। ফলে খন্ড নাটকের দর্শক বেশি।'

খন্ড নাটকের দর্শক বেশি- কথাটি পুরোপুরি ঠিক। বিগত কয়েক বছরের খন্ড নাটকের পরিসংখ্যান তাই বলছে।

এরপরেও সমালোচনা পিছু ছাড়ছে না। ভাড়ামো, গল্পের অসামঞ্জস্যতাসহ একই ধরনের গল্পে বারবার নাটক নির্মাণ হচ্ছে। একজন অভিনয় শিল্পী হিসেবে এ বিষয়গুলো আপনাকে ভাবায় কেমন? প্রশ্নের সোজাসাপ্টা উত্তর দিলেন ঊর্মিলা। 'ভালো ও মন্দের মিশেলে চলছে বর্তমান টিভি নাটক। গলা ফাঁটিয়ে বলা উচিত হবে না- সব নাটকই ভালো হচ্ছে। এখনকার সিংহভাগ খন্ড নাটক মানসম্মত হচ্ছে। দু-একটা মানহীন কাজ দিয়ে পুরো নাট্যপরিবারকে প্রশ্নবিদ্ধ করার সুযোগ নেই। ভালো কাজ দর্শকরা লুফে নেবেই।

শুধু তাই নয়, ঊর্মিলার মতে অভিনয় শিল্পীদের চেয়ে নির্মাতাদের আরও যত্নশীল হওয়া উচিত। তিনি বলেন, 'আমাদের চিত্রনাট্য নিয়ে আরো ভাবা উচিত। বিশেষ করে গল্পের মধ্যে আরও ভেরিয়েশন দরকার।'

ঊর্মিলা শ্রাবন্তী কর বর্তমানে ব্যস্ত রয়েছেন দু'টি ধারাবাহিক নাটক নিয়ে। 'জঙ্গলে গন্ডগোল' নামের এ ধারাবাহিকে তাকে দেখা যাবে অভিনেতা মোশাররফ করিমের প্রেমিকার চরিত্রে। এটি পরিচালনা করছেন উজ্জ্বল মাহমুদ। পাশাপাশি জনপ্রিয় অভিনেতা ও নির্মাতা জাহিদ হাসানের পরিচালনা 'হুলস্থুল' নামের আরো একটি ধারাবাহিকে অভিনয় করছেন তিনি।

নাটকের ব্যস্ততার ভিড়ে অন্য মাধ্যমে কিছুটা নীরব এ অভিনেত্রী। বহুবার অভিনয়ে মুন্সিয়ানা দেখিয়ে প্রশংসিত হলেও আগ্রহ নেই স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে কাজ করার। তার মতে, 'বেশ কিছুদিন আগে একটি স্বল্পদৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছি। ভালোই সাড়া পেয়েছিলাম। তারপরেও স্বল্পদৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্রে আমার আগ্রহ নেই। এতে অভিনয় করতেও ভালোলাগে না। এটা নাটক ও চলচ্চিত্রের মাঝামাঝি একটি বিষয়। আমাকে ওসব টানে না। তার চেয়ে খন্ড নাটকে অভিনয় করতেই ভালোলাগে।'

গত ঈদেও মাসুদ হাসান রানার 'ভাগের জামাই' ও ফেরারি অমিতের 'রঙ' নামের দুটি খন্ড নাটক অভিনয় করে বেশ প্রশংসিত হয়েছেন তিনি। ততক্ষণে গন্তব্য পৌঁছে গেছেন এ অভিনেত্রী। এখন কথা নয়, কাজের সময় তার। ফলে আজকের মতো এ আড্ডার দাঁড়ি টানতে হচ্ছে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে