logo
বুধবার ১৬ অক্টোবর, ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬

  অনলাইন ডেস্ক    ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০  

চলিস্নশের ঘরে কারিনা

বলিউডে নামকরা কাপুর পরিবারের আহ্লাদি মেয়েটা সিনেমায় আসবে তা হয়তো আন্দাজ করেছিলেন অনেকেই। বড় বোন কারিশমার পথ ধরে ছোটবোনও এসেছেন বলিউডে। কারিনা কাপুর থেকে হয়ে উঠেছেন সবার পছন্দের 'বেবো'। আর এখন তিনি ছোট নবাব সাইফ আলী খানের 'বেগম'। 'বেবো' থেকে 'বেগম' হওয়ার এই পর্যায়ে আনন্দেই দিন কাটাচ্ছেন কারিনা। কারণ আগামী ২১ সেপ্টেম্বর এই বলিউড স্টারের ৩৯তম জন্মদিন। তবে নিজের বয়স চলিস্নশের ঘরে পৌঁছালেও নিজেকে এখনও সেই ছোট্টটিই ভাবেন তিনি। জন্মদিন উপলক্ষে কারিনা কাপুরের উলেস্নখযোগ্য কিছু খুটিনাটি তুলে ধরা হলো তারার মেলায়...

চলিস্নশের ঘরে কারিনা
কারিনা কাপুর খান
'আনা কারিনিনা' থেকে কারিনা...

কারিনার বাবা রনধির কাপুর ও মা ববিতা। তাদের প্রথম সন্তান কারিশমা কাপুর ও দ্বিতীয় সন্তান কারিনা কাপুর। কারিনার নামরাখা নিয়ে একটা মজার গল্প রয়েছে। ববিতা যখন অন্তঃসত্ত্বা তখন তিনি লিউ টলস্টয়ের লেখা 'আনা কারিনিনা' উপন্যাসটি পড়ছিলেন। দ্বিতীয় সন্তান জন্মগ্রহণ করার পর তার নাম 'কারিনা' রাখতে ওই উপন্যাসটি প্রভাব ফেলে। একটু বড় হওয়ার পর থেকেই কারিনা তার বড়বোন কারিশমার সঙ্গে সিনেমার সেটে যেতেন। বড়বোনের সঙ্গে কারিনার বরাবরই ছিল ভালো সম্পর্ক। কলেজ শেষ করার পর কারিনার অভিনেত্রী হওয়ার শখ জাগে। তিনি ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন ইনস্টিটিউট অব ইন্ডিয়া থেকে অভিনয়ে ট্রেনিং নেন এবং ২০০০ সালে রিফিউজি সিনেমার মাধ্যমে সিনেমায় তার অভিষেক হয়।

'বেবো' থেকে 'বেগম'...

৩৯ বছরে কত কিছুই ঘটেছে কারিনার জীবনে। তারকা হওয়ায় সবই এসেছে সংবাদমাধ্যমে। অনেকের মতোই উত্থান পতনের মধ্যে দিয়েই গেছে কারিনার ক্যারিয়ার। বলিউডের প্রভাবশালী তিন খানের সঙ্গেই সিনেমা করেছেন তিনি। সুপারহিটও হয়েছে সেই ছবিগুলো। তবে 'বেবো মে বেবো'- অক্ষয় কুমারের সঙ্গে এই গানটির মধ্য দিয়ে বলিউডে 'বেবো' উপাধি পান কারিনা। ২০১২ সালের ১৬ অক্টোবর কারিনা কাপুর হয়ে যান কারিনা কাপুর খান। সাইফ আলী খানের সঙ্গে বিয়ে হয় তার। এরপর থেকেই সিনেমা কমিয়ে দিয়েছেন বলিউডের বেবো। এখন কারিনা ব্যস্ত তার স্বামী-সংসার-সন্তান নিয়ে। তাই তার কাছের বন্ধু ও ভক্তরা কারিনাকে ডাকেন বেগম বলে। তবে 'বেবো' নামটি খুব প্রিয় তার। কারিনা অনেকের কাছেই মজা করে নিজেকে 'বেবো' বলে সম্বোধন করতেন। এমনকি পরিচয়ও দিতেন।

প্রথাবিরোধী কারিনা...

বলিউড সুপারস্টার কারিনা কাপুর খান প্রতিনিয়ত নতুন দিগন্ত উন্মোচন করছেন। এ যাবতকালে বলিউডে চলতে থাকা অনেক প্রথা ভেঙেচুরে একেবারে গুঁড়িয়ে দিয়েছেন। এই প্রথা ভাঙার যাত্রা শুরু হয় শহীদ কাপুরের সঙ্গে প্রেমের মাধ্যমে। ভাবছেন, বলিউডে অনেক নায়ক-নায়িকাই প্রেম করেন, এ আর বিশেষ কী? তবে বিশেষত্ব তো আছেই, এ সেই নায়িকা, যিনি প্রেম করে অকপটে প্রেমিকের নাম মিডিয়ায় স্বীকার করেন। এর আগে অন্য কোনো নায়িকা সহশিল্পীর সঙ্গে প্রেম করলে তা স্বীকার করতেন না। এরপর এলো বিয়ের পালা। ক্যারিয়ারের একেবারে মধ্যগগনে বিয়ের পিঁড়িতে বসতে চাইতেন না কোনো নায়িকা। কারিনাই সেই ধারা চালু করেন। শুধু তা-ই নয়, বিয়ে করে ক্যারিয়ার থেকে মুখথুবড়ে পড়া নায়িকাদের দলেও তিনি নেই। বরং নতুন উদ্যমে ব্যবসা সফল সিনেমা উপহার দেন।

এরপর আসে গর্ভধারণের বিষয়। কারিনাই প্রথম নায়িকা, যিনি কোনো দিন তার প্রেগনেন্সি লুকাননি। সন্তানকে গর্ভে রেখেই শুটিং করেছেন,র্ যাম্পে হেঁটেছেন, অ্যাওয়ার্ড শোতে পুরস্কার নিয়েছেন, এমনকি মিডিয়ার ক্যামেরায় পোজ দিয়েছেন। ছেলে তৈমুর জন্মের অল্পদিনের মধ্যেই একেবারে ফিট হয়ে কাজে ফেরেন এই তারকা।

এসব তো গেল ব্যক্তিজীবনের গল্প। ক্যারিয়ারেও কারিনার কিছু সিদ্ধান্ত একেবারেই প্রচলিত প্রথাকে ভেঙে দেয়। বলিউডের শীর্ষ নায়িকা হয়ে তিনি শুরু করেন রেডিও শো, যা ওই চ্যানেলের সবচেয়ে হিট শো। আর এবার তিনি দেখা দিলেন টেলিভিশনে একটি নাচের রিয়্যালিটি শোর বিচারক হয়ে। এর মাধ্যমে প্রথমবার টিভি পর্দায় দেখা মিললো কারিনার। যেখানে বলিউডের অন্য নায়িকারা সিনেমায় কাজ না পেয়ে টিভির শোতে বিচারক হন, সেখানে কারিনার হাতে রয়েছে তিনটি সিনেমা। এত ব্যস্ততার মধ্যেও তিনি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, যা ভক্তদের মুগ্ধ করেছে। কারিনা বলেছেন, 'আমি ভালো কাজ করতে চাই। কী মাধ্যমে করছি সেটা বড় কথা নয়। দর্শকের ভালোবাসা পাওয়াটাই মুখ্য। এ জন্য নিজের ইমেজ নিয়ে আমি ভাবি না। মেধা থাকলে, ভালো কাজ করলে দর্শক আমাকে ফিরিয়ে দেবেন না।'

এবং সিনেমা...

'ক্যারিয়ারের ১৮ বছর পেরিয়ে গেছে। এখন অভিনয় ছাড়া আর কিছুই ভাবতে পারছি না। কারণ, আমি সব সময় অভিনয়শিল্পী হতে চেয়েছিলাম। সুতরাং আমি অভিনয় ছাড়া জীবনকে ভাবতেই পারি না।'

সম্প্রতি একটি পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এভাবে বললেন কারিনা কাপুর খান। আর এ কারণে অভিনয় কমিয়ে দিলেও স্বামী-সন্তান ও সংসারের পাশাপাশি অভিনয়কেও সময় দিচ্ছেন। বর্তমানে তিনি 'আংরেজি মিডিয়াম' নামের একটি ছবির কাজ করছেন। এতে তার বিপরীতে অভিনয় করছেন ইরফান খান। এই ছবির কাজ করতে গিয়ে কারিনা বলেছেন, 'আমি সব খানের সঙ্গেই অভিনয় করেছি। কিন্তু আমার মতে, ইরফান খানের সঙ্গে কাজ করাটা আমার কাছে অত্যন্ত গর্বের। তিনি পথপ্রদর্শক, সবখানের মধ্যে সেরা অভিনেতা তিনিই আর ইরফানই আমার কাছে বলিউডের সেরা।'

এদিকে 'আংরেজি মিডিয়াম' ছবির পর আরও দুটি নতুন ছবির শুটিং করবেন তিনি। ছবির নাম 'লাল সিং চাড্ডা'। এতে তার বিপরীতে অভিনয় করেছেন আমীর খান। রিমেক হলেও ছবিটি ভারতীয় আদলে নির্মিত হবে। আর ভারতীয় আদলে চিত্রনাট্য করেছেন অতুল কুলকার্নি। ছবিটি পরিচালনা করছেন অদ্বৈত চৌহান। ছবিতে ভারতের রাজনীতির পট পরিবর্তন, গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা তুলে ধরা হবে। এর আগে সবশেষ তারা ২০১২ সালে মুক্তি পাওয়া 'তালাশ : দ্য আন্সার লাইস উইদিন' ছবিতে একসঙ্গে অভিনয় করেছিলেন। আগামী ২০২০ সালের ২৫ ডিসেম্বর ছবিটি মুক্তি পাওয়ার কথা রয়েছে।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
close

উপরে