চন্দনাইশে ৫ টি অবৈধ ইটভাটা গুঁড়িয়ে দিয়েছে ভ্রাম‍্যমান আদালত

চন্দনাইশে ৫ টি অবৈধ ইটভাটা গুঁড়িয়ে দিয়েছে ভ্রাম‍্যমান আদালত

চট্টগ্রামের চন্দনাইশে পরিবেশগত ছাড়পত্র ও জেলা প্রশাসকের ইট পোড়ানো লাইসেন্সবিহীন অবৈধ ইটভাটার বিরুদ্ধে উচ্ছেদ অভিযানের অংশ হিসেবে পরিবেশ অধিদপ্তর ও জেলা প্রশাসন চট্টগ্রামের যৌথ অভিযানে পরিবেশ অধিদপ্তর, চট্টগ্রাম জেলা কার্যালয়ের আওতাধীন চট্টগ্রাম জেলার চন্দনাইশ এলাকায় অবৈধ ভাবে গড়ে উঠা ৫টি ইটভাটা ভেঙে গুড়িয়ে দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

১৭ ফেব্রুয়ারী বুধবার সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত পরিচালিত অভিযানে নেতৃত্ব দেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রেজোয়ানা আফরিন। এই সময় র‍্যাব, পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের সদস‍্যরা উপস্থিত ছিলেন। অভিযানে চন্দনাইশ, বাগিচাহাটের হাশিমপুর এলাকার মেসার্স বিসমিল্লাহ্‌ ব্রিকস ম্যানুঃ, মেসার্স বার আউলিয়া ব্রিকস ম্যানুঃ, হযরত আলী শাহ(রাহঃ) ব্রিকস, পূর্ব হাশিমপুরের গাবতল এলাকার মেসার্স আর বি এল ও মেসার্স আলী শাহ ব্রিকস। চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রেজোয়ানা আফরিন জানান, চন্দনাইশ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অবস্থিত ইটভাটা গুলো দীর্ঘদিন ধরে কোন ধরণের ছাড়পত্র ছাড়া অবৈধভাবে ব্যবসা পরিচালনা করে আসছে এবং প্রতিনিয়ত পরিবেশ ধ্বংস করে চলেছে।

অভিযানে ইটভাটা গুলোর চিমনীসহ গুড়িয়ে দিয়ে এগুলোর কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়া হয়। অভিযানে কাঁচা ইট ও ইট তৈরীর সরঞ্জামাদি ধ্বংস করা হয়। অবৈধ ইটভাটার বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান অভিযান পরিচালনাকারী ম‍্যাজিষ্ট্রেট। পরিবেশ অধিদপ্তর, চট্টগ্রাম জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক শেখ মোজাহিদ জানান, উচ্চ আদালতের নির্দেশে চন্দনাইশ এলাকায় অবৈধ ভাবে গড়ে উঠা ৫টি ইটভাটার বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালিত হয় । যে গুলোর কোন বৈধ কাগজপত্র ও অনুমোদন নেই বলে জানান তিনি।

যাযাদি/ এস

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আরও খবর

Copyright JaiJaiDin ©2021

Design and developed by Orangebd


উপরে