রোববার, ১৯ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

পকসো আদালত থেকে মুক্তি পেলেন ধর্ষণে অভিযুক্ত বাবা

আইন ও বিচার ডেস্ক
  ২১ নভেম্বর ২০২৩, ০০:০০
পকসো আদালত থেকে মুক্তি পেলেন ধর্ষণে অভিযুক্ত বাবা

কন্যা এবং স্ত্রীর ষড়যন্ত্রের শিকার হয়ে এক বছর জেল খেটেছেন। অবশেষে মুক্তি সেই পেলেন ব্যক্তি। তাকে জেল থেকে ছেড়ে দেওয়ার নির্দেশ দিলেন আদালত। ঘটনার সত্যতা জেনে বিস্ময় প্রকাশ করেছেন বিচারপতি। ভারতের হরিদ্বারের বিশেষ পকসো আদালত মুক্তি দিয়েছেন অভিযুক্ত ব্যক্তিকে। ৪৩ বছরের ওই ব্যক্তি গত এক বছর ধরে নিজের কন্যাকে ধর্ষণের অভিযোগে জেল খাটছিলেন। আদালত জানতে পেরেছে, ব্যক্তিকে ফাঁসানো হয়েছিল। তার ১৫ বছরের কন্যা এবং স্ত্রী একসঙ্গে মিলে এই ষড়যন্ত্র করেছিলেন।

২০২১ সালের নভেম্বরে ওই ব্যক্তির স্ত্রী হরিদ্বারের একটি থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। তিনি জানান, বিশেষ কারণে এক মাসের জন্য তিনি তার ভাইয়ের বাড়িতে গিয়েছিলেন। ওই সময়ের মধ্যে তার স্বামী তাদের কন্যাকে একাধিক বার ধর্ষণ করেছেন। বাড়ি ফিরে আসার পর এই হেনস্তা, নির্যাতনের কথা তিনি জানতে পেরেছিলেন। পুলিশের কাছে বয়ানে কন্যাও মায়ের বক্তব্যকেই সমর্থন করে। সে জানায়, বাবা তাকে খুনের হুমকি দিয়ে মুখ বন্ধ করে রেখেছিলেন।

অভিযোগের ভিত্তিতে ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ২০২২ সাল থেকে তিনি জেলে ছিলেন। শুনানি চলাকালীন আদালত জানতে পারে, ওই দম্পতির মধ্যে সম্পত্তি নিয়ে ঝামেলা রয়েছে। সম্পত্তি হাতিয়ে নেওয়ার জন্যই স্বামীর বিরুদ্ধে ওই মহিলা মিথ্যা মামলা সাজিয়েছিলেন। কিশোরীর মেডিকেল রিপোর্টেও ধর্ষণ বা শারীরিক নিগ্রহের কোনো চিহ্ন মেলেনি। এমনকি, দম্পতির কনিষ্ঠা কন্যা আদালতে মা এবং দিদির বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দেয়। এর পরেই আদালত অভিযুক্তের মুক্তির নির্দেশ দিয়েছেন।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
X
Nagad

উপরে